5G সাপোর্টের সাথে আসছে এই পাঁচটি ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন, আপনি কোনটি কিনবেন

5-upcoming-flagship-smartphones-oppo-find-x3-pro-oneplus-9-pro-mi-11-pro-ultra
Oppo Find X3 Pro

একটা দুঃস্বপ্নের বছর অতিক্রম করে আশা-নিরাশার দোলাচলে নতুন বছরে মাস দুয়েকের বেশী কাটিয়ে ফেললাম আমরা। চলতি বছরে ফ্ল্যাগশিপ ফোনের বাজার কে মাতাবে তা আর কয়েকমাসের মধ্যেই স্পষ্ট হয়ে যাবে। একে একে স্মার্টফোন নির্মাতারা তাদের আস্তিন থেকে বের করবে অত্যাধুনিক ফিচারের প্রিমিয়াম ফোন। Xiaomi Mi 11, Samsung Galaxy S21 বা iPhone 12-এর মতো ফ্ল্যাগশিপ ফোনগুলিতে যদি আপনি সন্তুষ্ট না হন, তাহলে নিম্নে রইলো এই বছর ফ্ল্যাগশিপ স্পেসিফিকেশন সহ লঞ্চ হতে চলা পাঁচটি নতুন হ্যান্ডসেটের নাম যেগুলিতে 5G কানেক্টিভিটি থাকবে।

Oppo Find X3 ও Find X3 Pro (সম্ভাব্য লঞ্চ – মার্চের মাঝামাঝি)

রিপোর্ট বলছে, ফাইন্ড এক্স৩ সিরিজের অধীনে অপ্পো তিনটি স্মার্টফোন আনবে। PEGM10, PEGT10, এবং PEEM00 মডেল নম্বর সহ অপ্পোর তিনটি ফ্ল্যাগশিপ ফোন ইতিমধ্যে চীনের 3C সার্টিফিকেশন পেয়েছে। ফাঁস হওয়া তথ্য থেকে জানা যাচ্ছে, Oppo Find X3-এর স্ক্রিনে ফুল-ইংক কালার ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম সাপোর্ট থাকবে। যা ফটো এবং ভিডিওর কালার ডিসপ্লে এফেক্টকে আরও উন্নীত করে তুলবে। আবার Oppo Find X3 Pro তে ৬.৭-ইঞ্চি ডিসপ্লে থাকবে যা ১২০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট সাপোর্ট করবে। ফোনটি ৪৫০০ এমএএইচ ব্যাটারি সহ আসবে। এতে ৬৫ ওয়াট ওয়্যারড ফাস্ট চার্জিং এবং ৩০ ওয়াট ওয়্যারলেস ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে।

OnePlus 9 Pro (সম্ভাব্য লঞ্চ – মার্চ থেকে এপ্রিলের মধ্যে)

OnePlus 9 Pro
OnePlus 9 Pro

ওয়ানপ্লাসের ফ্ল্যাগশিপ ফোনের সাথে এখন অসাধারণ স্ক্রিন শব্দটি সমার্থক হয়ে গেছে৷ কিন্তু ওয়ানপ্লাসের ফোনে মাঝারি মানের ক্যামেরা নিয়ে অভিযোগ বিস্তর৷ ওয়ানপ্লাস ৯ সিরিজের ওয়ানপ্লাস ৯ প্রো সেই সমস্যার সমাধান করবে বলে এখন থেকেই অনুমান করা হচ্ছে৷ স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্রসেসরের অর্ন্তভুক্তির ফলে ফোনটিতে অসামান্য ছবি উঠবে৷ হ্যাসেলব্ল্যাডের সাথে হাত মিলিয়ে ওয়ানপ্লাস ৯ প্রো-র ক্যামেরা ডেভলপ হবে বলে জানা গেছে৷ তাই আপনি যদি নতুন ফ্ল্যাগশিপ ফোনের আশায় থাকেন, OnePlus 9 Pro আপনার জন্য ভালো বিকল্প হতে পারে।

Xiaomi Mi 11 Pro (সম্ভাব্য লঞ্চ মে)

Xiaomi Mi 11 Pro
Xiaomi Mi 11 Pro

গত ডিসেম্বরের শেষলগ্নে চীনে লঞ্চ হয়েছিল মি ১১। কয়েকদিন আগে একে গ্লোবাল মার্কেটেও লঞ্চ করা হয়েছে। তবে কয়েকমাসের মধ্যে এই ফোনটির আপগ্রেড ভার্সনও বাজারে আসবে বলে মনে করা হচ্ছে। Mi 11 Pro নামে আসা এই ফোনেও স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্রসেসর থাকবে। এছাড়াও মি ১১ প্রো-তে ক্যামেরার দিক থেকে বড়ো আপগ্রেড দেখা যাবে বলে অনুমান করা হচ্ছে।

Xiaomi Mi 11 Ultra (সম্ভাব্য লঞ্চ – আগস্ট অথবা সেপ্টেম্বর)

Xiaomi Mi 11 Ultra
Xiaomi Mi 11 Ultra

এমআই ১১ আল্ট্রা-র সম্পূর্ণ ছবি কয়েকদিন আগে ফাঁস হয়েছে। একটি ইউটিউব ভিডিও (এখন ডিলিট করে দেওয়া হয়েছে) থেকে ফোনটির একাধিক স্ক্রিনশট অনলাইনে ছড়িয়ে পড়েছে। প্রাপ্ত ছবিগুলি অনুযায়ী, এমআই ১১ আল্ট্রা ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ সহ আসতে চলেছে। ফোনটিতে তাগড়াই ক্যামেরা বাম্পের সাথে আসবে। ক্যামেরা মডিউলে দুটি বড়ো সেন্সর এবং পেরিস্কোপ লেন্স থাকবে।

এছাড়াও Mi 11 Ultra তে ৫০ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর, ৪৮ মেগাপিক্সেল আল্ট্রাওয়াইড লেন্স এবং ৪৮ মেগাপিক্সেল পেরিস্কোপিক টেলিফটো জুম লেন্স থাকবে। স্মার্টফোনটির ক্যামেরা ১২০এক্স জুম সাপোর্ট করবে। ক্যামেরা মডিউলের পাশে আবার খুব ছোট্ট একটি ডিসপ্লে থাকবে। যা ফোনের যে কোনো অ্যাপ্লিকেশন খোলার কাজে আবার রিয়ার ক্যামেরা দিয়ে সেলফি তোলার কাছে ব্যবহৃত হবে।

শুধু তাই নয়, এমআই ১১ আল্ট্রা-তে WQHD+ রেজোলিউশনের হোল-পাঞ্চ ডিজাইন যুক্ত কোয়াড-কার্ভড OLED ডিসপ্লে থাকবে। ফোনটি কোয়ালকমের ফ্ল্যাগশিপ স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্রসেসর এবং ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি সহ আসতে পারে। এতে ৬৭ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং, ৬৭ ওয়াট ফাস্ট ওয়্যারলেস চার্জিং এবং ১০ ওয়াট রিভার্স চার্জিং সুবিধা থাকবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন