সফটওয়্যার আপডেট দিয়ে iPhone এর পারফরম্যান্স ধীর করে দেওয়ার অভিযোগ Apple এর বিরুদ্ধে

apple-accused-for-slow-down-iphone-8-12-xs-model-through-software-update
Apple iPhone এর পারফরম্যান্স মন্থর হওয়ার অভিযোগ

নতুন ফিচার জুড়তে ও হ্যান্ডসেটকে নিরাপদ রাখতে প্রত্যেকটি স্মার্টফোন নির্মাতারাই প্রায়শই কোনো না কোনো নতুন সফ্টওয়্যার আপডেট দিয়ে থাকে। সেরূপ টেক জায়ান্ট Apple-ও তাদের iPhone ইউজারদের জন্য হালফিলে বেশ কয়েকটি নয়া আপডেট রোল আউট করেছিল। তবে এই সাম্প্রতিক আপডেটগুলিকে কেন্দ্র করে দেখা দিয়েছে কিছু গুরুতর সমস্যা! আরো স্পষ্ট করে বললে, স্পেন কনজিউমার প্রটেকশন অর্গানাইজেশন (spanish consumer protection organization) অ্যাপেলের বিরুদ্ধে সম্প্রতি অভিযোগ এনেছে যে, এই নতুন আপডেটের কারণে বেশ কয়েকটি iPhone মডেলের পারফরম্যান্স ধীর হয়ে যাচ্ছে। তবে শুধু অভিযোগ এনেই ক্ষান্ত থাকেনি এই কনজিউমার সংস্থাটি, সাথে একটি লিখিত পত্রও তারা অ্যাপেলকে প্রেরণ করেছেন। এই পত্রে, iPhone 8 এবং iPhone XS-এর মতো পুরোনো হ্যান্ডসেট স্লো-ডাউন বা মন্থর হয়ে যাওয়ার অভিযোগ জানানো হয়েছে। পাশাপাশি অ্যাপেলের লেটেস্ট সফ্টওয়্যার আপডেটের পরে iPhone 11 এবং iPhone 12 সিরিজের হ্যান্ডসেটগুলির পারফরম্যান্সও ধীর হয়ে গেছে বলে জানা গেছে।

Apple iPhone এর পারফরম্যান্স মন্থর হওয়ার অভিযোগ

স্প্যানিশ সংস্থাটি পত্রে জানিয়েছে যে, iOS 14.5, iOS 14.5.1 এবং iOS 14.6 -এই তিনটি নয়া আপডেটের জন্যই মূলত আইফোনের কয়েকটি মডেলে সমস্যাটি দেখা দিয়েছে। সংস্থাটির মতে, অ্যাপেল ইচ্ছাকৃতভাবে এই আপডেটগুলির মাধ্যমে তাদের আইফোনের গতি কমিয়ে দিচ্ছে। তাই যেসকল ব্যবহারকারীরা অ্যাপলের এই চক্রান্তের শিকার হয়েছে তাদেরকে ক্ষতিপূরণ দিতে বলা হয়েছে পত্রে। প্রসঙ্গত, স্প্যানিশ মিডিয়া iPhoneros-এর একটি রিপোর্ট থেকে সর্বপ্রথম জানা যায় যে, স্পেনের কনজিউমার প্রটেকশন অর্গানাইজেশন ওরফে OCU অ্যাপেলকে এই খোলা চিঠিটি পাঠিয়েছিল। এই অভিযোগ পত্রে OCU-এর তরফ থেকে ক্ষতিপূরণ দাবি করার পাশাপাশি বলা হয়েছে যে, অ্যাপেল যদি এই ব্যাপারে কোনো সন্তোষজনক উত্তর না দেয় তাহলে তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করতেও পিছপা হবে না তারা।

প্রসঙ্গত, OCU দ্বারা প্রেরিত চিঠিতে নির্দিষ্ট কোনো ইউজারের অভিযোগের বিবরণ দেওয়া হয়নি। শুধু বলা হয়েছে যে, iOS 14.5, iOS 14.5.1 এবং iOS 14.6 আপডেটের কারণে Apple iPhone ইউজারদের ডিভাইস ব্যাপক পরিমানে ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। এমনকি, ডিভাইসগুলির ব্যাটারিও যথেষ্ট প্রভাবিত হয়েছে। তদুপরি, প্রযুক্তিগত এবং অ-প্রযুক্তিগত বহু মিডিয়া আউটলেটও এই বিষয়ে রিপোর্ট জারি করেছে, বলে স্পেন ভিত্তিক কনজিউমার সংস্থাটির দাবি।

এই সমস্যাটি যে মনগড়া নয় বা অভিযোগের তালিকাটি যে সত্যি তা, গত মাসে সংঘটিত হওয়া কয়েকটি ঘটনা নিজেই প্রমান করে দিয়েছে। যেমন, এক iPhone ইউজার গতমাসে জানিয়েছিলেন যে, iOS 14.6 সফ্টওয়্যার ভার্সন আপডেট করার পর থেকেই তার ডিভাইসের ব্যাটারি দ্রুত শেষ হচ্ছে। ফলে তাকে যথেষ্টই সমস্যার মুখোমুখি হতে হচ্ছে। অন্যদিকে, অপর এক ইউজার বলেছিলেন যে, তার আইফোন রাতারাতি ৭০% খারাপ হয়ে গিয়েছিল। একই ভাবে এক iPhone 12 ইউজার নালিশ করেছিলেন যে, সারা রাত চার্জ দেওয়ার পরও তার ফোনের ব্যাটারি ৩০ শতাংশের বেশি চার্জ হয়নি। সুতরাং, আইওএস আপডেটের নেপথ্যে থাকা সমস্যাটি যদি অবিলম্বে শোধরানো না হয়, তবে অ্যাপেলকে ভালোই সমালোচনার সম্মুখীন হতে হবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

শুভেচ্ছা বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী। তিনি একদিকে যেমন ফটোগ্রাফার, তেমনি পাশাপাশি লেখিকাও। এছাড়াও তার শখের মধ্যে আছে বই পড়া, গান গাওয়া, ছবি আঁকা এবং ওয়েব ডিজাইন। শুভেচ্ছা আমাদের টেকগাপ পরিবারের একজন নতুন সদস্য।