Apple event: iPhone 13 সিরিজ আজ লঞ্চ হতে চলেছে, দাম ও ফিচার জেনে নিন

California Streaming) ইভেন্টে Apple আজ iPhone 13 সিরিজ, Watch Series 7 স্মার্টওয়াচ এবং AirPods 3 ইয়ারবাড লঞ্চ করবে

apple-event-today-iphone-13-series-launch-watch-7-airpods-3-livestream-expected-price-specifications

অবশেষে এসে গেলো সেই মাহেন্দ্রক্ষণ! আজ অর্থাৎ ১৪ সেপ্টেম্বর লঞ্চ হতে চলেছে বহু চর্চিত iPhone 13 সিরিজ। ‘ক্যালিফোর্নিয়া স্ট্রিমিং’ (California Streaming) নামক একটি ভার্চুয়াল ইভেন্টের মাধ্যমে টেক জায়ান্ট Apple তাদের নেক্সট জেনারেশন আইফোন লাইনআপ লঞ্চ করবে। একই সাথে, Apple Watch Series 7 স্মার্টওয়াচ এবং AirPods 3 ইয়ারবাডের উপর থেকেও আজ পর্দা সরানো হবে। ভারতীয়রা আজ রাত ১০.৩০ থেকে iPhone 13 সিরিজের লঞ্চ ইভেন্ট লাইভ দেখতে পারবেন।

iPhone 13 লঞ্চ ইভেন্ট: কীভাবে লাইভস্ট্রিম দেখবেন?

অ্যাপেলের ‘ক্যালিফোর্নিয়া স্ট্রিমিং’ ইভেন্ট ভারতীয় সময় অনুযায়ী রাত্রি ১০.৩০ মিনিটে সম্প্রচার করা হবে। আগ্রহীরা ইভেন্টের লাইভ টেলিকাস্ট দেখার জন্য সংস্থার ইভেন্ট পেজে যেতে পারেন। এছাড়া,অ্যাপেলের অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে এই সম্প্রচার দেখা যাবে। ইউটিউব চ্যানেলে আপনারা রিমাইন্ডার সেট করতে পারেন, যাতে স্ট্রিমিং লাইভ হলেই আপনাদের কাছে নোটিফিকেশন চলে আসে। যদিও ইউটিউব চ্যানেলে অনুষ্ঠানটি দেখতে হলে Apple TV অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করা আবশ্যক। একই সাথে, ফ্লিপকার্ট সম্প্রতি একটি ডেডিকেটেড ওয়েব পেজ তৈরী করেছে আইফোন ১৩ সিরিজের জন্য, এই পেজে দেখা গেছে যে, আজ ফ্লিপকার্টের প্ল্যাটফর্ম থেকেও অ্যাপলের ক্যালিফোর্নিয়া স্ট্রিমিং সম্প্রচার করা হবে। যাইহোক, ইভেন্টটি শেষ হয়ে গেলে এটি যে কোনও সময় অ্যাপল পডকাস্ট অ্যাপে দেখা যাবে। আগ্রহীরা নীচে দেওয়া লিংকে গিয়ে আইফোন ১৩ সিরিজের লঞ্চ ইভেন্টের লাইভস্ট্রিম দেখতে পারবেন :

iPhone 13 সিরিজ স্পেসিফিকেশন ও ফিচার (সম্ভাব্য)

Apple iPhone 12 বা iPhone 11 -এর মতো Apple iPhone 13 সিরিজও মোট চারটি মডেল সহ আসবে। এগুলি হলো – iPhone 13, iPhone 13 mini, iPhone 13 Pro এবং iPhone 13 Pro Max। সাম্প্রতিক রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে, আইফোন ১৩ সিরিজের প্রত্যেকটি মডেলে পূর্বসূরির থেকে তুলনায় ছোট ডিসপ্লে নচ থাকতে পারে। প্রো মডেল ১২০ হার্টজ ডিসপ্লে রিফ্রেশ রেটের সঙ্গে উপলব্ধ হবে। তবে, লো-পাওয়ার মোডে এর রিফ্রেশ রেট ৬০ হার্টজ হয়ে যাবে। আইফোন ১৩ সিরিজের চারটি মডেলের ওজন বৃদ্ধি পাবে বলে মনে করা হচ্ছে। এছাড়া পূর্ববর্তী সংস্করণের চেয়ে ১৮-২০% বড়ো ব্যাটারি দেখা যাবে।

এদিকে আইফোন ১৩ সিরিজের প্রো এবং প্রো ম্যাক্স মডেল ১ টেরাবাইট পর্যন্ত স্টোরেজ সহ পাওয়া যাবে। সেক্ষেত্রে, আইফোন ১৩ প্রো এবং আইফোন ১৩ প্রো ম্যাক্স ফোন দুটিতে থাকবে ১২৮ জিবি, ২৫৬ জিবি, ৫১২ জিবি এবং ১ টেরাবাইট স্টোরেজ। তবে সিরিজের স্ট্যান্ডার্ড মডেল আইফোন ১৩ বা আইফোন ১৩ মিনি -কে ১২৮ জিবি ও ২৫৬ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টে উপলব্ধ করা হতে পারে।

যেকোনো মোবাইলের ক্ষেত্রেই কালার অপশন ক্রেতাদের অনেকাংশে আকর্ষণ করে। অ্যাপেলের এই লেটেস্ট লাইনআপের আইফোন ১৩ এবং আইফোন ১৩ মিনি মডেলকে – ব্ল্যাক, ব্লু, পিঙ্ক, পার্পেল, রেড ও হোয়াইট কালারে পাওয়া যেতে পারে। অন্যদিকে, আইফোন ১৩ প্রো এবং আইফোন ১৩ প্রো ম্যাক্স – ব্ল্যাক, ব্রোন, গোল্ড ও সিলভার কালারে আসবে বলে জানা যাচ্ছে।

iPhone 13 সিরিজের ক্যামেরা ফ্রন্টের প্রসঙ্গে এবার আলোচনা করা যাক। লেটেস্ট সিরিজের ব্যাক প্যানেলে থাকা ক্যামেরা মডিউল বড়ো হবে এবং প্রো মডেলগুলিতে আরো উন্নত আলট্রা-ওয়াইড ক্যামেরা সেন্সর দেখা যাবে। রিপোর্ট অনুযায়ী, iPhone 13 সিরিজ পোর্ট্রেট সিনেম্যাটিক ভিডিও ফিচার সহ আসবে, যা ‘ওয়ার্প’ নামক ইলেকট্রনিক ইমেজ স্ট্যাবিলাইজেশন (EIS) ব্যবহার করে। এই ফিচারের সাহায্যে ভিডিও রেকর্ড করাকালীন ব্যাকগ্রাউন্ডকে ব্লার করা যাবে। তদুপরি, অপটিক্যাল ইমেজ স্ট্যাবিলাইজেশন (OIS) ক্যামেরা সিস্টেম, যেকোনো বস্তুর মুভমেন্ট ডিটেক্ট করার মাধ্যমে স্পষ্ট ছবি ক্লিক করতে সাহায্য করবে। এই সিরিজে আপগ্রেড নাইট মোড ফিচার দেখা যাবে।

অ্যাপলের বিশ্লেষক মিং চি কুও -এর মন্তব্য থেকে জানা গেছিলো যে, আইফোনগুলিত LEO (লোয়ার আর্থ অরবিট) স্যাটেলাইটের কমিউনিকেশন মোড থাকবে। যা, প্রত্যন্ত অঞ্চলে বিমান দুর্ঘটনা বা জাহাজ ডুবির মতো ঘটনা ঘটলে শর্ট ইমার্জেন্সি টেক্সট এবং SOS ডিস্ট্রেস সিগন্যাল প্রেরণ করবে। এটির সাহায্যে আইফোন ইউজাররা, ৪জি বা ৫জি সেলুলার কভারেজ না থাকলেও ফোন কল করতে এবং ম্যাসেজ পাঠাতে পারবেন। তবে এই ফিচারটি নির্বাচিত কিছু অঞ্চলেই কাজ করবে।

এছাড়া, iPhone 13 সিরিজে একটি আপগ্রেডেড ফেস আইডি অথেন্টিকেশন ফিচার থাকতে পারে, যার দৌলতে মাস্ক বা ‘ফগি’ চশমা পরে থাকা অবস্থাতেও ফোনকে আনলক করা যাবে। এটি বর্তমানে কার্যাধীন অবস্থায় আছে। অ্যাপেল, তাদের ওয়াচের মতো আইফোনেও ‘অলওয়েজ অন ডিসপ্লে’ ফিচার ইন্টিগ্রেড করতে পারে। কানেক্টিভিটির জন্য ওয়াই-ফাই ৬ই ভার্সনের সাপোর্ট পাওয়া যাবে।

Apple iPhone 13 সিরিজের দাম (সম্ভাব্য)

রিপোর্ট অনুযায়ী, iPhone 13 mini-র প্রারম্ভিক মূল্য হবে ৬৯৯ ডলার (প্রায় ৫১,৪৭১ টাকা)। এছাড়া, iPhone 13, iPhone 13 Pro, এবং iPhone 13 Pro Max-এর বেস মডেলের মূল্য যথাক্রমে ৭৯৯ ডলার (প্রায় ৫৮,৬৬৫ টাকা), ৯৯৯ ডলার (প্রায় ৭৩,৩৩৭ টাকা), এবং ১,০৯৯ ডলার (প্রায় ৮১,৮৭৯ টাকা) হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

Apple Watch Series 7 স্পেসিফিকেশন ও ফিচার (সম্ভাব্য)

আইফোন ১৩ সিরিজের সাথেই অ্যাপল ওয়াচ সিরিজ ৭ আজ ক্যালিফোর্নিয়া স্ট্রিমিং ইভেন্টে লঞ্চ করা হবে বলে অনুমান করা হচ্ছে। এটি, পূর্বসূরি অ্যাপল ওয়াচ সিরিজ ৬-এর অনুরূপ ডিজাইন সহ আসতে পারে। যদিও ডিসপ্লে সাইজ সামান্য বড়ো থাকার সম্ভাবনা আছে। আর মূল অ্যাপেল ওয়াচের তুলনায় ব্যাটারি লাইফ আরো উন্নত হবে। এপ্রসঙ্গে গুরম্যান বলেছেন, “এই বছরের ওয়্যারেবলে কোনো হেলথ ফিচার আপগ্রেড করা হবে না। বরং, ফ্লাট এজ যুক্ত নতুন ডিজাইনের ডিসপ্লে এবং নতুন চিপ ব্যবহারে দিকে ফোকাস করা হয়েছে।”

AirPods 3 স্পেসিফিকেশন ও ফিচার (সম্ভাব্য)

তৃতীয় প্রজন্মের এয়ারপডসের উপর থেকে আজই হয়তো পর্দা সরানো হবে। টেক জায়ান্টটি, এই অডিও গ্যাজেটকে এয়ারপডস ৩ নামে মার্কেটে লঞ্চ করতে পারে এবং এর ডিজাইন এয়ারপডস প্রো -এর ন্যায় হবে। আপকামিং এয়ারপডস ওয়্যারলেস চার্জিং কেস সহ আসতে পারে। পূর্বসূরির তুলনায়, এই চার্জিং কেসে ২০% বেশি কার্যক্ষম ব্যাটারি থাকবে। এটি আরো উন্নত ব্যাস বুস্ট সাউন্ড অফার করবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

শুভেচ্ছা বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী। তিনি একদিকে যেমন ফটোগ্রাফার, তেমনি পাশাপাশি লেখিকাও। এছাড়াও তার শখের মধ্যে আছে বই পড়া, গান গাওয়া, ছবি আঁকা এবং ওয়েব ডিজাইন। শুভেচ্ছা আমাদের টেকগাপ পরিবারের একজন নতুন সদস্য।