আরও ভালো ভাবে হবে ওয়্যারলেস চার্জিং, Apple iPhone 12 সিরিজে থাকবে ম্যাগনেটিক কয়েল

apple-iphone-12-magnetic-coil-wireless-charging-airpower

অ্যাপলের এই নতুন iPhone 12 সিরিজ নিয়ে ইতিমধ্যেই বাজারে জোর চর্চা চলছে। বেশ কয়েকজন টিপ্সটার আইফোন ১২ সিরিজের স্পেসিফিকেশন ফাঁস করেছেন। জানা গেছে Apple iPhone 12 সিরিজেও ওয়্যারলেস চার্জিং ফিচার থাকবে, তবে এই চার্জিং ফিচারস অন্যান্যবারের থেকে একটু অন্যরকম হবে। রিপোর্ট অনুযায়ী, এই ফিচারের সাথে একটি নতুন ম্যাগনেটিক কয়েল যুক্ত করা হচ্ছে, যার দরুন ফোনের ওয়্যারলেস চার্জিং অনেক ভালো হবে।

চীনের মাইক্রোব্লগিং সাইট Weibo তে নতুন ম্যাগনেটিক কয়েল এর একটি স্কেচ পোস্ট করা হয়েছে। জানা গেছে iPhone 12 সিরিজে ব্যবহার করা হচ্ছে এই ম্যাগনেটিক বৃত্তাকার চার্জিং স্ট্রিপ যা ওয়্যারলেস চার্জিং কয়েলের ওপরে বসানো থাকবে। এই ম্যাগনেট গুলি আপনার আইফোন কে এমন জায়গায় বসিয়ে দেবে যেখানে সবথেকে ভালো চার্জ হবে।

তবে শুধুমাত্র আইফোন ১২ সিরিজে ম্যাগনেটিক কয়েল ছাড়াও, Apple এবছর একটি কম্পিটেবল ওয়্যারলেস চার্জার ও নিয়ে আসতে পারে। অ্যাপেলের ডিভাইস AirPower কে ফের ফেরানো হতে পারে বলে বিশেষজ্ঞদের ধারণা। জানিয়ে রাখি ২০১৭ সালে অ্যাপল, AirPower কে আনলেও ব্যবসায়িক ভাবে লঞ্চ করেনি। তবে এবার মনে করা হচ্ছে, iPhone 12 সিরিজের সঙ্গেই আরও উন্নত পারফরম্যান্সের সাথে লঞ্চ হবে অ্যাপলের এই নতুন ওয়্যারলেস চার্জার।

এদিকে Apple জানিয়েছে যে তাদের এবছরের আইফোন সিরিজ, iPhone 12 এর বিক্রি কয়েক সপ্তাহ দেরি তে শুরু হবে। স্বাভাবিক ভাবে অ্যাপল প্রতিবছরের সেপ্টেম্বরে তাদের আইফোন লাইনআপ নিয়ে আসে। যদিও এবছর তার ব্যতিক্রম হতে পারে। অথবা এমনও হতে পারে যে কোম্পানি সেপ্টেম্বরে iPhone 12 লঞ্চ করলেও, এর সেল দেরিতে শুরু হবে। এদিকে নতুন একটি রিপোর্টে বলা হয়েছে এবারের আইফোন ১২ সিরিজ দুটি ভাগে আসতে পারে।

অর্থাৎ প্রথমে iPhone 12 সিরিজের একটি ফোন বাজারে আনার হতে পারে এবং তার কয়েকমাস পরে আরও কয়েকটি ফোন লঞ্চ করা হতে পারে। যদিও Apple এর কাছে এটি নতুন নয়। ২০১৭ সালে কোম্পানি প্রথমে iPhone 8 এবং iPhone 8 Plus এনেছিল। এর কিছু মাস পরে লঞ্চ করা হয়েছিল Phone X। আবার ২০১৮ সালে iPhone XS এবং XS Max এর কিছু মাস পরে আনা হয়েছিল iPhone XR।