দাম কমাতে আইফোন ১২ ফোনের বাক্স থেকে ইয়ারপডস ও চার্জার সরিয়ে নিচ্ছে অ্যাপল?

আজকাল স্মার্টফোনের দাম কমানোর জন্য কোম্পানিগুলি বিভিন্ন পন্থা অবলম্বন করছে। এর আগে আমরা চীনা স্মার্টফোন কোম্পানিগুলিকে ফোনের সাথে হেডফোন না দিতে দেখেছি। এবার টেক জায়েন্ট অ্যাপলও সেই পথে হাঁটতে পারে। বিখ্যাত টিপ্সটার Ming-Chi Kuo কিছুদিন আগেই জানিয়েছিলেন যে Apple iPhone 12 এর বাক্সের মধ্যে EarPods দেওয়া হবেনা। ফলে কোম্পানি তাদের গ্রাহকদের ওয়্যারলেস ব্লুটুথ AirPods কেনার জন্য বাধ্য করতে পারে।

এবার 9to5Mac এর একটি রিপোর্ট আপনার আরও মন খারাপের কারণ হতে পারে। কারণ এই রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে যে, কোম্পানি আইফোন ১২ এর বাক্স থেকে চার্জার ও সরিয়ে নিচ্ছে। যদিও কিছুদিন আগেই জানা গিয়েছিল Apple আইফোন ১২ সিরিজের জন্য ২০ ওয়াটের চার্জার নিয়ে আসবে। তবে 9to5Mac থেকে জানানো হয়েছে ২০ ওয়াটের চার্জার কোম্পানি আনছে, তবে সেটি আলাদাভাবে কিনতে হবে। এর আগে কোম্পানি আইফোন ১১ প্রো ফোনের জন্য ১৮ ওয়াটের চার্জার এনেছিল।

রিপোর্ট অনুযায়ী, অ্যাপল তাদের আইফোন ১২ সিরিজের দাম কম রাখতেই ইয়ারপডস ও চার্জার সরিয়ে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। @omegaleaks এর একটি প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে যে অ্যাপল, iPhone 12 এবং iPhone 12 Max এর 4G এবং 5G ভার্সন আনতে পারে। iPhone 12 এবং iPhone 12 ম্যাক্সের 4G ভার্সনের দাম হবে যথাক্রমে ৫৪৯ ডলার (প্রায় ৪১,০০০ টাকা) এবং ৬৪৯ ডলার (৪৯,০০০ টাকা)। অন্যদিকে 5G ভার্সন কিনতে গেলে ৬৪৯ ডলার (৪৯,০০০ টাকা) এবং ৭৪৯ ডলার (৫৬,০০০ টাকা) দাম পড়তে পারে। যার পরে মনে করা হচ্ছে কয়েক বছর পর অ্যাপল সাশ্রয়ী মূল্যে আইফোন আনতে চলেছে।

এর আগে জন প্রোসার, এন্ট্রি-লেভেল ৫.৪-ইঞ্চি iPhone 12-এর জন্য দাম অনুমান করেছিলেন ৬৪৯ ডলার। এছাড়া, ওয়েডবুশ সিকিওরিটিজ-এর ড্যানিয়েল আইভস-এর এক অ্যানালিস্ট পূর্বাভাস দিয়েছিলেন ২০২০ সালে আসন্ন ৫.৪-ইঞ্চি ডিসপ্লের iPhone 12 এর একটি সস্তা সংস্করণ থাকতে পারে।

একটি প্রতিবেদন থেকে আরো জানা গেছে, নতুন সিরিজে iPhone 12 এবং iPhone 12 ম্যাক্সের সাইজ হবে যথাক্রমে ৫.৪ ইঞ্চি এবং ৬.১ ইঞ্চি। অন্যদিকে iPhone 12 প্রো-এর সাইজ ৬.১ ইঞ্চি, এবং iPhone 12 প্রো ম্যাক্সের সাইজ ৬.৭ ইঞ্চি হতে পারে। চারটি ফোনই, আইফোন এক্সের মতো ডিজাইন প্রদর্শন করতে পারে। এছাড়াও মনে করা হচ্ছে, আগের মডেলগুলির তুলনায় এতে আপডেটেট অটোফোকাস থাকতে পারে।