হার্ট অ্যাটাকের আগাম সর্তকতা দিয়ে ফের এক মহিলার জীবন বাঁচাল Apple Watch

Apple Watch হার্ট অ্যাটাকের আগাম সর্তকতা দিয়ে জীবন বাঁচাল Yolie De Leon নামের এক মহিলার

apple-watch-saves-life-of-a-women-by-inform-her-heart-attack-before

মানুষকে নতুন জীবন দানের ক্ষেত্রে Apple Watch-এর অসামান্য অবদানের ঘটনা উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে। প্রযুক্তিগত সাধারণ সুবিধা প্রদানের পাশাপাশি Apple Watch ইউজারের স্বাস্থ্য সচেতনতা, বিশেষত জীবন রক্ষায় ত্রাতারূপে কাজ করেছে – এমন ঘটনার কথা আমরা একাধিকবার শুনেছি। এবার আরও একবার এক মার্কিনি মহিলার জীবন বাঁচিয়ে শিরোনামে এল অত্যাধুনিক এই স্মার্টওয়াচটি। আসুন ঘটনাটি ঠিক কী ঘটেছে সে সম্পর্কে বিস্তারিতভাবে জেনে নেওয়া যাক।

মার্কিন মুলুকের অ্যারিজোনার ইয়োলি ডি লিওন (Yolie De Leon) নামক ওই মহিলা জানিয়েছেন যে, Apple Watch তাঁকে তাঁর অস্বাভাবিক উচ্চ হৃদস্পন্দন সম্পর্কে সতর্ক করে, আর তাই তিনি তৎক্ষণাৎ চিকিৎসার জন্য ডাক্তারের কাছে ছুটে যান। তাঁকে পর্যবেক্ষণ করে ডাক্তার জানান যে, তাঁর অবস্থা সত্যিই প্রাণঘাতী ছিল এবং ডিভাইসটি যদি সঠিক সময়ে অ্যালার্ট না করতো তাহলে তাঁর প্রাণ হারানোরও প্রবল সম্ভাবনা ছিল।

Apple Insider-এর রিপোর্ট অনুযায়ী, ডি লিওন বলেন যে, Apple Watch তাঁকে জানায় যে ওই সময়ে তাঁর হৃদস্পন্দনের হার ছিল ১৭৪, ফলে তাঁকে অবিলম্বে ডাক্তারের সাথে যোগাযোগ করা উচিত। আপনাদেরকে জানিয়ে রাখি, অ্যাপেল ওয়াচের ECG অ্যাপ্লিকেশন এবং ইরেগুলার হার্ট রিদিম নোটিফিকেশন ফিচার ব্যবহারকারীদের অস্বাভাবিক তথা অনিয়মিত হৃদস্পন্দনের সবচেয়ে সাধারণ ফর্ম AFib-র লক্ষণগুলি সনাক্ত করতে সহায়তা করে। যদি সময়মতো এর চিকিৎসা না করা হয়, তখন AFib স্ট্রোকের অন্যতম কারণ হয়ে দাঁড়াতে পারে, যা বিশ্বজুড়ে মৃত্যুর দ্বিতীয় সর্বাধিক সাধারণ কারণ। তিনি তৎক্ষণাৎ হাসপাতালে যান, যেখানে ডাক্তাররা ইলেক্ট্রোকার্ডিওগ্রাম সহ একাধিক টেস্ট করে যথাযথ চিকিৎসার মাধ্যমে ওই মহিলাকে সুস্থ করে তোলেন।

Apple Watch-এর এই চমৎকার কার্যকারিতায় আপ্লুত হয়ে ডি লিওন এই ডিভাইসটির ভূয়সী প্রশংসা করেছেন, এবং এই ডিভাইসটি কীভাবে তাঁর জীবন বাঁচালো সে সম্পর্কে Apple-এর সিইও টিম কুককে জানিয়ে কোম্পানির প্রতি তাঁর আন্তরিক কৃতজ্ঞতাও প্রকাশ করেন। প্রতিক্রিয়াস্বরূপ কুক, ডি লিওনকে জানান যে, “আমি খুব আনন্দিত যে আপনি এই ডিভাইসটির সাহায্যে যথাযথ সময়ে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা গ্রহণ করতে সক্ষম হয়েছেন। আপনার অভিজ্ঞতা আমাদের সাথে ভাগ করে নেওয়ার জন্য ধন্যবাদ। এটি আমাদের ভবিষ্যতে আরও এগিয়ে যেতে অনুপ্রাণিত করবে।” উল্লেখ্য যে, Apple Watch-এর ECG, ফল ডিটেকশন এবং অন্যান্য হেলথ ফিচারগুলি ইতিমধ্যেই বিশ্বজুড়ে অনেকের জীবন বাঁচিয়েছে, এবং ভবিষ্যতেও যে আমরা এরকম একাধিক ঘটনার সাক্ষী হতে পারব, সেকথা বলাই বাহুল্য।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

টেকগাপের মেম্বাররা ও সদ্য যোগ দেওয়া লেখকরা এই প্রোফাইলের মাধ্যমে টেকনোলজির সমস্ত রকম খুঁটিনাটি আপনাদের সামনে আনে।