Aprilia SXR 125 ফুল এলইডি লাইটিং সেটআপ সহ বাজারে এল, জানুন স্কুটারটির দাম

Aprilia SXR 125

Aprilia SXR 160 ম্যাক্সি স্কুটারের পকেট ফ্রেন্ডলি ভার্সন Aprilia SXR 125 নিঃশব্দেই ভারতে লঞ্চ হয়ে গেল।  যদিও অফিসিয়ালভাবে স্কুটারটির লঞ্চের ঘোষণা হয়নি, তবে কোম্পানির ওয়েবসাইটে এর দামের বিষয়টি প্রকাশ করা হয়েছে। Aprilia SXR 125-এর এক্স-শোরুম দাম ১.১৫ লক্ষ টাকা হবে বলে রিপোর্টে দাবি করা হয়েছিল।‌ এখন ভারতে এপ্রিলিয়ার ওয়েবসাইটে স্কুটারটি একই দামে (১.১৫ লক্ষ টাকা, এক্স-শোরুম পুনে) তালিকাভুক্ত করা হয়েছে। এপ্রিলিয়ার এসএক্সআর ১২৫ ম্যাক্সি স্কুটারটি ৫,০০০ টাকা দিয়ে বুকিং করা যাচ্ছে এবং এই টাকা সম্পূর্ণভাবে ফেরতযোগ্য। স্কুটারটি চারটি রঙের মধ্যে বেছে নেওয়া যাবে – সাদা, নীল, লাল, ও কালো।

Aprilia SXR 125 launched in India

স্টাইলের দিক থেকে এপ্রিলিয়া এসএক্সআর ১৬০ এবং নতুন লঞ্চ হওয়া এসএক্সআর ১২৫ ম্যাক্সি-স্কুটারের মধ্যে হুবহু মিল রয়েছে। তবে প্রধান পার্থক্য এসএক্সআর ১২৫-এর ইঞ্জিনে লক্ষ্য করা যাবে। এপ্রিলিয়ার স্পোর্টি স্টাইলের স্কুটার এসআর ১২৫-এর ইঞ্জিন এখানে ব্যবহার করা হয়েছে। যেটি হল ৯.৫২ পিএস শক্তিও  ৯.২ এনএম টর্কের আউটপুট দিতে সক্ষম ১২৫ সিসি-র এয়ার কুল্ড ইঞ্জিন। আবার এসআর ১২৫-এর মতো এসএক্সআর ১২৫ একইরকম চ্যাসিস ও সাসপেনশন পেয়েছে। কিন্তু এসএক্সআর ১২৫-এর ম্যাক্সি স্টাইলের সাথে খাপ খাওয়ানোর জন্য সেগুলি কিছুটা সংশোধন করা হয়েছে। যার উদাহরণ হিসেবে চাকার কথা প্রথমেই উঠে আসছে।‌ এসআর ১২৫ স্পোর্টি স্কুটারে ১৪ ইঞ্চি চাকা রয়েছে৷ যেখানে এসএক্সআর ১২৫ ম্যাক্সি স্কুটার এর থেকে ২ ইঞ্চি কম অর্থাৎ ১২ ইঞ্চি চাকার ওপর ভর করে চলবে।

Aprilia SXR 125 Price

সাসপেনশনের দায়িত্ব সামলানোর জন্য স্কুটারটির সামনে হাইড্রোলিক ডাবল টেলিস্কোপিক ফোর্কস ও পিছনে হাইড্রোলিক শক অ্যাবজর্ভার রয়েছে। আবার এর সামনের দিকে ২২০ মিমি ডিস্ক ব্রেক ও ১৪০ মিমি ড্রাম ব্রেক আছে, নিরাপত্তার জন্য রয়েছে সিবিএস (কম্বি ব্রেকিং সিস্টেম)৷ তবে এবিএস না থাকার বিষয়টি একটু আশ্চর্যজনক! এপ্রিলিয়া এসএক্সআর ১২৫-এর ফুয়েল ট্যাঙ্কের ক্যাপাসিটি ৭ লিটার।

এপ্রিলিয়ার মালিক সংস্থা পিয়াজিও, স্কুটারটিকে নতুন ফিচার দিয়ে ঢেলে সাজিয়েছে৷ এসএক্সআর ১২৫ ম্যাক্সি স্কুটারে ফুল-এলইডি লাইটিং সেটআপ দেওয়া হয়েছে৷ যা ভারতে বিক্রিত অন্যান্য স্কুটারে খুব একটা চোখ পড়বে না। আবার এপ্রিলিয়া এসএক্সআর ১২৫ ম্যাক্সি স্কুটারে বড় এলসিডি ড্যাশবোর্ড রয়েছে যা স্পিডোমিটার, ওডোমিটার, ট্রিপ মিটার, ফুয়েল এফিসিয়েন্সি ডিসপ্লে করবে।‌ এছাড়া, এর উল্লেখযোগ্য ফিচারের মধ্যে পাওয়া যাবে বড় বুট স্পেস, লকেবল ফ্রন্ট স্টোরেজ কমপার্টমেন্ট, এবং ইউএসবি চার্জিং পোর্ট।

Aprilia SXR 125 features

ভারতে Aprilia SXR 125 প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে তাহলে কাকে পাচ্ছে? ডিসপ্লেসমেন্ট ও বডি স্টাইল বিবেচনা করলে Aprilia SXR 125-এর সাথে Suzuki Burgman Street 125 -এর লড়াই চলবে। যদিও, Suzuki Burgman Street 125 অনেকটাই সস্তা৷ এর স্টান্ডার্ড ভ্যারিয়েন্টের দাম ৮৪,৩৭১ টাকা ও ব্লুটুথ এনাবেল্ড মডেলের দাম ৮৭,৮৭১ টাকা (দুটি দামই এক্স-শোরুম পুনের)।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন