Aprilia SR 160 বড়সড় আপডেট সহ চলতি বছরের এই সময় লঞ্চ হচ্ছে

aprlia-sr-160-india-launch-tipped-this-time-know-details

Aprilia-র ম্যাক্সি স্কুটার SXR 125 ভারতে লঞ্চ হওয়া এখন মাত্র সময়ের অপেক্ষা। অফিসিয়াল দাম সামনে আসার পাশাপাশি স্কুটারটির বুকিং করার সুবিধাও এখন উপলব্ধ৷ তবে SXR 125 লঞ্চের আবহে এবার খবরের শিরোনামে Aprilia-র আর এক জনপ্রিয় স্কুটার SR 160, যা ভারতে উপলব্ধ সবচেয়ে রোমাঞ্চকর এবং স্পোর্টি স্কুটারের মধ্যে একটি। যদিও বাজারে পা রাখার পর স্টাইলের দিক থেকে স্কুটারটি যেমন বড়সড় আপগ্রেড পায়নি, তেমন ফিচারের নিরিখেও এটি বেশ পিছিয়ে। তবে সমস্ত খামতি ঢাকতে Aprilia-র মালিক সংস্থা Piaggio, SR 160 স্কুটারের নতুন ভার্সনের ওপর কাজ শুরু করে দিয়েছে। প্রিমিয়াম স্কুটারটির আপডেটেড ভার্সন চলতি বছরে উৎসবের মরশুমের মুখে লঞ্চ হয়ে যেতে পারে।

বলে রাখি এটি কোনো উড়ো খবর নয়৷ এক্সপ্রেস ড্রাইভস এর সাক্ষাতকারে ভারতে পিয়াজিও গ্রুপের চেয়ারম্যান ও ম্যানেজিং ডিরেক্টর দিয়েগো গ্রাফি (Diego Graffi) বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেছেন, কোম্পানি এই বছর এপ্রিলিয়া এসআর ১৬০ স্কুটারটি আপডেট করতে চলেছে।

এবার প্রশ্ন হচ্ছে, এপ্রিলিয়া এসআর ১৬০ স্কুটারের ২০২১ ভার্সনে আমরা নতুন কী দেখতে পাবো। উত্তরে বলা যায়, আপডেটেড ফিচারসমূহের তালিকায় ব্লুটুথ কানেক্টিভিটিযুক্ত ইনস্ট্রুমেন্ট ক্লাস্টার, ইঞ্জিন স্টার্ট-স্টপ স্যুইচ এবং সাইড স্ট্যান্ড ইঞ্জিন কাট-অফ স্যুইচ যোগ হওয়ার আশা আমরা রাখতে পারি। আবার শার্পার প্যানেল, রিস্টাইলড হেডল্যাম্প ও টেলল্যাম্প, নতুন কালার ও গ্রাফিক্স-সহ ২০২১ এপ্রিলিয়া এসআর ১৬০ স্কুটার বডি ওয়ার্কের দিক থেকেও বেশ কিছু  আপডেট পেতে পারে।

এগজিস্টিং এপ্রিলিয়া এসআর ১৬০ স্কুটারের প্রসঙ্গে আসলে, এটির প্রথম হাইলাইট ১৬০ সিসি-র সিঙ্গল সিলিন্ডার, ফুয়েল ইঞ্জেকটেড ইঞ্জিন, যেটি ৭,৬০০ আরপিএম গতিতে ১০.৮ বিএইচপি ও ৬,০০০ আরপিএম গতিতে ১১.৬ এনএম টর্ক উৎপন্ন করতে পারে। আবার অ্যাগ্রেসিভ এবং স্লিক ডিজাইন ল্যাঙ্গুয়েজ স্কুটারটির ব্যক্তিত্বে এক মোহময়ী আবেদন সৃষ্টি করেছে যাতে এক পলক দেখলেই তরুণ প্রজন্ম এর প্রেমে মজে যায়। সামনের দিকে স্কুটারটির অ্যাপরনে টুইন হেডল্যাম্প বসানো। যদিও টার্ন সিগন্যাল ইন্ডিকেটর হ্যান্ডেলবার কাউলের ওপর অবস্থান করেছে।

সাসপেনশনের দায়িত্বের জন্য স্কুটারের সামনে টেলিস্কোপিক ফোর্কস এবং পিছনে মনো-শক সেটপ দেওয়া হয়েছে৷ আবার স্কুটারের সামনের দিকে ডিস্ক ব্রেক ও পিছনে ড্রাম ব্রেক রয়েছে। পাশাপাশি, স্কুটারটি সিবিএস বা কম্বাইন্ড ব্রেকিং সিস্টেম সহ এসেছে।

এপ্রিলিয়া এসআর ১৬০-এর পারফরম্যান্স ও হ্যান্ডলিং ডাইনামিক্সের প্রশংসা ফের একবার করতে হচ্ছে। কারণ এই দুটি বিষয় বিবেচনা করলে বর্তমানে ভারতের বাজারে এসআর ১৬০-এর সমকক্ষ স্কুটার খুঁজলেও পাওয়া খুব মুশকিল। নতুন ভার্সনে স্কুটারটির দাম যে কিছুটা বাড়বে, তা বলার অপেক্ষা রাখে না। প্রিমিয়াম স্কুটারটি কেমন আপডেটের সাথে বাজারে পা রাখবে, সেই দিকেই এখন আমাদের নজর থাকবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন