বিশ্বের প্রথম হাইফাই টেকনোলজির ওয়্যারলেস হেডফোন আনছে Vivo

ভিভোর নতুন এই অডিও ডিভাইসটি হাইফাই টেকনোলজির সাথে আসছে। এখানে হাইফাই বলতে হাই ফিডালিটি এবং উন্নত মানের সাউন্ড কোয়ালিটির কথা বোঝানো হয়েছে

Vivo Hi-Fi Wireless Headset Launch Soon

Vivo চলতি মাসেই আনতে চলেছে বিশ্বের প্রথম হাইফাই ওয়্যারলেস হেডসেট। যদিও নতুন এই অডিও ডিভাইসের নাম এখনো জানা যায়নি। তবে সংস্থার দশম বর্ষপূর্তি উপলক্ষ্যে আসতে চলেছে নতুন এই হেয়্যারেবল, যা হাইফাই টেকনোলজি সমৃদ্ধ বিশ্বের সর্বপ্রথম ওয়্যারলেস হেডসেট হতে চলেছে বলে দাবি করেছে সংস্থাটি। চলুন নতুন এই অডিও প্রোডাক্ট সম্পর্কে কি কি তথ্য সামনে আসলো জেনে নেওয়া যাক।

Vivo Hi-Fi ওয়্যারলেস হেডসেটের সম্ভাব্য ফিচার

আগেই বলেছি, ভিভোর নতুন এই অডিও ডিভাইসটি হাইফাই টেকনোলজির সাথে আসছে। এখানে হাইফাই বলতে হাই ফিডালিটি এবং উন্নত মানের সাউন্ড কোয়ালিটির কথা বোঝানো হয়েছে। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, হাই ফিডালিটি সাধারণত ওয়্যার্ড ইয়ারফোন এবং হেডফোনে উপলব্ধ। কিন্তু এবার সেই টেকনোলজি আসতে চলেছে ওয়্যারলেস অডিও ডিভাইসে। তাছাড়া জানা গেছে , আসন্ন ডিভাইসটি ১.২ এমবিপিএস ট্রান্সমিশন রেট সহ আসছে। সেই সঙ্গে এতে থাকবে হাই পারফরম্যান্স ডিএসি চিপ এবং ৪০ কিলোহার্টজের বেশি হাই ডেফিনেশন ইউনিট। তবে এখনো পর্যন্ত আসন্ন হেডসেট সম্পর্কে এর থেকে বেশি কিছু তথ্য জানা যায়নি। আশা করা যায় খুব শীঘ্রই সংস্থার নতুন অডিও ডিভাইস সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য সামনে আসবে।

Vivo Hi-Fi Wireless Headset

একটি ওয়েইবো পোস্টে, ভিভো সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে “ভিভো হাই-ফাই-এর দশম বার্ষিকীতে, একটি বড়সড় সাফল্য আসতে চলেছে। শীঘ্রই আত্মপ্রকাশ করবে অরিজিনাল সাউন্ড এক্সপেরিয়েন্স সহ বিশ্বের প্রথম ট্রু হাই-ফাই ওয়্যারলেস হেডসেট।”

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, Vivo সম্প্রতি চীনে ওয়্যারলেস স্পোর্টস হেডসেট ২ লঞ্চ করেছে। এটি একটি নেকব্যান্ড-স্টাইলের ওয়্যারলেস ইয়ারফোন, যাতে ব্যবহৃত হয়েছে ১১.২ এমএম ড্রাইভার। তাছাড়া এতে রয়েছে নয়েজ রিডাকশন টেকনোলজি, ভয়েস আসিসিট্যান্ট এবং ৮০ এমএস লো ল্যাটেন্সি মোড। সর্বোপরি অডিও ডিভাইসটি ১২ ঘন্টা ব্যাটারি লাইফ অফার করতে সক্ষম।