ইলেকট্রিক গাড়ি

5 লাখের ই-সাইকেল! গাড়ির দামে দ্বিচক্রযান আনল ভারতীয় সংস্থা, কী এমন বিশেষ ফিচার

পুণের ইলেকট্রিক বাইসাইকেল উৎপাদনকারী সংস্থা EMotorad ভারতবাসীর জন্য, তার থেকে বলা ভাল উচ্চবিত্তদের জন্য নিয়ে এসেছে তাদের দুটি অত্যাধুনিক ব্যাটারি চালিত সাইকেল- Desert Eagle এবং Night Hawk। সম্পূর্ণ চার্জে প্রিমিয়াম ই-বাইকগুলি ১০০ কিমি পর্যন্ত রাস্তা পাড়ি দিতে পারে। সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য ফিচার হিসেবে সাইকেলগুলিতে রয়েছে ১৫০/১২০ মিমি লম্বা ফর্ক, ৩৫ মিমি দীর্ঘ স্ট্যানচিয়নস এবং একটি X5 Derailleur যা সাবলীল ভাবে গিয়ার শিফটের মাধ্যমে গতিবেগ নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে।

EMotorad Desert Eagle সাইকেলটিতে শক্তি সরবরাহ করে Bafang-র ২৫০ ওয়াটে মোটর। সাথে রয়েছে SRAM থেকে নেওয়া ১২০ মিমি দীর্ঘ ট্রাভেল ফর্ক সাসপেনশন। এতে ৩৬ ভোল্ট ১৭.৫ অ্যাম্পিয়ার আওয়ারের লিথিয়াম আয়ন ফ্রেম ইন্টিগ্রেটেড ব্যাটারি প্যাক দেওয়া হয়েছে। ইন্সট্রুমেন্ট কনসোল হিসাবে Bafang-র এলসিডি স্ক্রিন ব্যবহার করা হয়েছে। তাছাড়াও উন্নত ব্রেকিং এর জন্য Tektro থেকে নেওয়া ডিস্ক ব্রেক রয়েছে ব্যাটারি চালিত এই সাইকেলটিতে। EXAFrom-র ড্রপার সিট পোস্ট যুক্ত রয়েছে এতে।

অন্য দিকে, EMotorad Night Hawk মডেলটিতেও একই ধরনের ২৫০ ওয়াটের Bafang-র মোটর সংযুক্ত রয়েছে। তবে এক্ষেত্রে ব্যবহৃত হয়েছে ১৫০ মিমি দীর্ঘ ফ্রন্ট ফর্ক সাসপেনশন। এই ইলেকট্রিক সাইকেলটি অ্যালুমিনিয়াম ফেমের উপর নির্মিত। ৩৬ ভোল্ট এবং ১৭.৫ অ্যাম্পিয়ার আওয়ারের লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারি সংযুক্ত রয়েছে এই ফ্রেমের সঙ্গে। এই মডেলটিতেও Tektro-র ডিস্ক ব্রেক দেওয়া হয়েছে। তবে এখানে ব্যবহৃত টায়ার বেশ চওড়া।

দামের দিক থেকেও এই দুটি ব্যাটারি চালিত সাইকেলের মধ্যে ফারাক নিতান্তই কম। Desert Eagle মডেলটি কিনতে খরচ হবে ৪.৭৫ লাখ টাকা। অন্যদিকে Night Hawk মডেলটির অফিসিয়াল প্রাইস ৫ লাখ টাকা, যা এই সংস্থার সবচেয়ে দামি ইলেকট্রিক সাইকেলের তকমা এনে দিয়েছে একে। এই প্রিমিয়াম মডেল দুটি ছাড়াও EMotorad এনেছে সাশ্রয়ী মূল্যের তিনটি বৈদ্যুতিক সাইকেল যেগুলি X-Factor সিরিজের অন্তর্গত। এই সাইকেলগুলিতে পরিবর্তনযোগ্য ব্যাটারি এবং এলসিডি স্ক্রিন যুক্ত রয়েছে। সাথে অপশনাল হিসেবে মিলবে ডিরেইলার্স। দাম ২৪,৯৯৯ টাকা থেকে শুরু হয়ে ৩২,৯৯৯ টাকা পর্যন্ত।

Back to top button