Homeঅটোকারইলেকট্রিক গাড়িশাহরুখ খানের হাত ধরে ভারতে Hyundai এর দ্বিতীয় বৈদ্যুতিক গাড়ি Ioniq 5 লঞ্চ, এক চার্জে যাবে 631 কিমি

শাহরুখ খানের হাত ধরে ভারতে Hyundai এর দ্বিতীয় বৈদ্যুতিক গাড়ি Ioniq 5 লঞ্চ, এক চার্জে যাবে 631 কিমি

নতুন বছরের শুরুতেই সবচেয়ে বড় চমক নিয়ে হাজির হয়েছে এই বছরের অটো এক্সপো। দিল্লিতে অনুষ্ঠিত প্রায় এক সপ্তাহব্যাপী এই ইভেন্টে যোগদান করেছে দেশ-বিদেশের ছোট-বড়-মাঝারি বিভিন্ন গাড়ি ও মোটরবাইক নির্মাতারা। তবে বর্তমান দিনে পেট্রোল-ডিজেল চালিত যানবাহনকে টেক্কা দিয়ে জনগণের মনে নিজেদের এক চিলতে জায়গা করে নিয়েছে ব্যাটারি চালিত যানবাহন। তাই এবার অটো এক্সপোতে ইলেকট্রিক ভেহিকেলের দিকেই নজর থাকছে বেশি। এই উন্মাদনাকে কয়েক গুণ বাড়িয়ে শাহরুখ খানের উপস্থিতিতে Hyundai এবার লঞ্চ করেছে এদেশে তাদের দ্বিতীয় বৈদ্যুতিক গাড়ি Ioniq 5।

Ioniq সিরিজের অন্তর্গত এটি তাদের প্রথম মডেল যা ২০২১ সালে আন্তর্জাতিক বাজারে প্রথম আত্মপ্রকাশ করে। ভারতে গাড়িটির দাম শুরু হচ্ছে ৪৪.৯৫ লাখ (এক্স শোরুম) টাকা থেকে। হুন্ডাইয়ের নিজস্ব BEV প্রযুক্তির উপর তৈরি ইলেকট্রিক গ্লোবাল মডিউলার প্লাটফর্ম (E-GMP)কে ভিত্তি করেই তৈরি হয়েছে এই নতুন ইভি। চলুন দেখে নেওয়া যাক Ioniq 5-র সমস্ত খুঁটিনাটি।

Hyundai Ioniq 5: ডিজাইন

৩০০০ মিমি দীর্ঘ হুইলবেসের উপর নির্মিত হয়েছে হুন্ডাই আয়োনিক ৫। সংস্থার তৈরি প্রথম ক্লেমশেল হুড ব্যবহার হয়েছে গাড়িটির একদম সামনে, যা খুব কম পরিমাণ প্যানেল গ্যাপ তৈরি করার ফলে এয়ারোডাইনামিক অনেকটা উন্নত হয়। সামনে রয়েছে ভি-আকৃতির বাম্পার যার সাথেই যুক্ত ডিআরএল। এই একই ধরনের পিক্সেলের মত আকার গাড়িটির পিছনের দিকেও রয়েছে। এছাড়াও দুপাশে থাকা অটো ফ্লাশ ডোর হ্যান্ডেল বেশ পরিচ্ছন্ন লুক প্রদান করার পাশাপাশি এয়ারোডায়নামিক আরো উন্নত করে। উপরন্তু গাড়িটির সামনের ও পিছনের অংশ এর দরজার কাছে গিয়েই মিশে গিয়েছে।

Hyundai Ioniq 5: কেবিন

হুন্ডাই আয়োনিক ৫ গাড়িটির অন্দরমহলের সর্বত্র “লিভিং স্পেস” থিমের ঝলক নজরে পড়ে। এমনকি এর চলাচলযোগ্য সেন্ট্রাল কনসোল ১৪০ মিমি পর্যন্ত পিছনে সরিয়ে আনা যায়। Ioniq 5 গাড়িটিতে ইলেকট্রনিক্যালি অ্যাডজাস্টেবল ফ্রন্ট সিট দেওয়া হয়েছে। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হল এর সিট,হেডলাইনার, দরজার অংশ, ফ্লোর, আর্ম রেস্ট সবকিছুই পরিবেশবান্ধব এবং অচিরাচরিত শক্তি উৎস যেমন রিসাইকেল করা বোতল, উদ্ভিজ্জ তন্তু, প্রাকৃতিক উল, পরিবেশবান্ধব উপায়ে তৈরি করা লেদার সহযোগে তৈরি।

হুন্ডাইয়ের এই ইলেকট্রিক গাড়িটি ডুয়েল ককপিট ফিচারে বাজারে আসছে। অর্থাৎ এর মধ্যে রয়েছে যাত্রীদের জন্য ১২ ইঞ্চির একটি টাচ স্ক্রিন ও ড্রাইভারের জন্য আরও একটি ১২ ইঞ্চির ডিজিটাল স্ক্রিন, যা নিজের পছন্দমত কাস্টমাইজ করা সম্ভব। সর্বোপরি অগমেন্টেড রিয়েলিটি হেড আপ ডিসপ্লে (AR HUD) প্রযুক্তি উপলব্ধ রয়েছে এখানে, যার ফলে উইন্ডশীল্ডটিকে একটি ডিসপ্লে স্ক্রিনে রূপান্তর করা যায়।

Hyundai Ioniq 5: মোটর ও ব্যাটারি

আয়োনিক ৫ এসেছে ১৬০ পিএস পাওয়ার এবং ৩৫০ এনএম টর্ক উৎপাদনকারী টু-হুইল ড্রাইভ (2WD) মোটর নিয়ে। সম্পূর্ণ স্থির অবস্থা থেকে সর্বোচ্চ ১০০ কিমি/ঘন্টা গতিবেগ অর্জন করতে এর সময় লাগে মাত্র ৭.৬ সেকেন্ড। সাথে রয়েছে ৭২.৬ কিলোওয়াট আওয়ারের ব্যাটারি প্যাক। ARAI-র দাবি অনুযায়ী সম্পূর্ণ চার্জে Ioniq 5 প্রায় ৬৩১ কিমি রাস্তা চলতে সক্ষম।

Hyundai Ioniq 5: সেফটি ফিচার

যাত্রীগণের সুরক্ষার্থে বিন্দুমাত্র কার্পণ্য করেনি দক্ষিণ কোরিয়ার এই গাড়ি নির্মাতা। তাদের নতুন লঞ্চ করা Ioniq 5 মডেলটিতে অত্যাধুনিক ভার্সনের হুন্ডাই স্মার্টসেন্স ও এডভান্সড ড্রাইভার অ্যাসিস্টেন্স সিস্টেম থাকায় এটি রাস্তায় চলাচলের সময় সর্বোচ্চ পর্যায়ের সুরক্ষা প্রদান করবে। উপরন্তু Ioniq 5 মডেলটি তাদের প্রথম গাড়ি যেখানে হাইওয়ে ড্রাইভিং অ্যাসিস্টেন্স ২ (HDA 2) প্রযুক্তি দেওয়া হয়েছে। এর পাশাপাশি গাড়িটিতে থাকা অন্যান্য ড্রাইভিং অ্যাসিস্টেন্স সিস্টেমগুলি হল- ফরওয়ার্ড কলিশন অ্যাভয়ডেন্স অ্যাসিস্ট (FCA), ব্লাইন্ড স্পট কলিশন অ্যাসিস্ট (BCA), ইন্টেলিজেন্ট স্পিড লিমিট অ্যাসিস্ট (ISLA), ড্রাইভার অ্যাটেনশন ওয়ার্নিং (DAW), হাই বিম অ্যাসিস্ট (HBA) সহ আরো অনেক কিছু।

আরও পড়ুন