Homeঅটোকারইলেকট্রিক গাড়িচার্জ থাকবে প্রায় 7 মাস, কাছে এলে ই-স্কুটার নিজে থেকেই চালু হবে, Ola আনল নতুন ফিচার

চার্জ থাকবে প্রায় 7 মাস, কাছে এলে ই-স্কুটার নিজে থেকেই চালু হবে, Ola আনল নতুন ফিচার

গত বছরের আগস্টে MoveOS সফটওয়্যারের সাথে Ola S1 ও S1 Pro ইলেকট্রিক স্কুটার লঞ্চ করেছিল ওলা। একগুচ্ছ আধুনিক ফিচারের প্রতিশ্রুতি দেওয়া হলেও সেগুলি যে পরবর্তীতে ধীরে ধীরে ওটিএ মাধ্যমে যুক্ত করা হবে, তা নিশ্চিত করা হয় সংস্থার তরফে। গত জুনে MoveOS 2 ভার্সন রোলআউট করে বেশ কিছু ফিচার সক্রিয় করে ওলা। আর দীপাবলি উপলক্ষ্যে গত শনিবার ওলা তাদের সফটওয়্যারের তৃতীয় সংস্করণ MoveOS 3 লঞ্চের মাধ্যমে কয়েকটি বিশেষ বৈশিষ্ট্য যোগ করার ঘোষণা করেছে। আসুন এই প্রতিবেদনে সেগুলি সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক।

পার্টি মোড

নতুন সফটওয়্যার ওলার  স্কুটারের পার্টি মোড ফিচারকে জাগিয়ে তুলেছে। ফলে যখনই গান বাজানো হচ্ছে, সেই গানের ছন্দে তাল মিলিয়ে আলোর ঝলকানি হতে দেখা যাবে। যা এক অন্যরকম অনুভূতি দেবে গ্রাহকদের। প্রসঙ্গত, একই ফিচার Tesla-র গাড়িতেও দেখা যায়।

প্রোফাইল এবং উইজেট

S1 স্কুটারটি যদি শেয়ার্ড মডেল বা ফ্যামিলি স্কুটার হিসেবে ব্যবহৃত হয়, তবে নতুন আপডেটের ফলে স্কুটারের মালিককে নিজের পাসকোডটি শেয়ার করার আর প্রয়োজন পড়বে না। MoveOS 3 একাধিক প্রোফাইল সেটআপ নিয়ে এসেছে। এছাড়া উইজেট রাইডিং সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য স্ক্রিনে ভাসিয়ে তুলতে সহায়তা করবে।

অ্যাক্সিলারেশন সাউন্ড এবং মুড

নতুন আপডেট পাওয়ার পর ওলার স্কুটারগুলি অ্যাক্সিলারেশন সাউন্ড উৎপন্ন করতে সক্ষম হয়ে উঠেছে। আবার ব্যবহারকারী, ভিন্টেজ এবং বোল্ট – এই দুই মুডের মধ্যে থেকে যেকোনো একটি বেছে নিতে পারবেন। ফিউচারিস্টিক সাউন্ড সহ এসেছে বোল্ট মুড যেখানে ভিন্টেজ মোডে একটি চিরাচরিত স্কুটারের এগজস্ট আওয়াজ বাজবে। সাথে ইন্সট্রুমেন্ট ক্লাস্টারটিও সাবেকি রূপ ধারণ করবে।

অটো রিপ্লাই সহ কল অ্যালার্ট

Ola S1 ও S1 Pro এবারে ডিসপ্লেতে কল অ্যালার্ট প্রদর্শন করতে সক্ষমতা পেয়েছে। উপরন্তু যুক্ত হয়েছে অটো রিপ্লাই ফিচার। অর্থাৎ অটো রিপ্লাই সক্রিয় থাকলে ম্যানুয়ালি কোনও বার্তা টাইপ করার প্রয়োজন পড়বে না। আগে থেকে নির্বাচন করা বার্তা গ্রহীতার কাছে পৌঁছে যাবে।

ডকুমেন্ট স্টোরেজ

MoveOS 3 ওলার স্কুটারগুলিকে কোনো ডকুমেন্ট স্টোর করে রাখার সুবিধা দান করেছে। তাই বস্তুত ব্যবহারকারীর কোনো ডকুমেন্ট ফিজিক্যালি বহন করার প্রয়োজন পড়বে না। এখানে রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট, ইন্সুরেন্স, লাইসেন্স ইত্যাদি নথি স্টোর করে রাখা যাবে।

ভেকেশন মোড এবং উন্নত অ্যাক্সেলারেশন

স্কুটার বাড়িতে রেখে অফিসের কাজে বা ভ্রমণের জন্য বেশ কিছু দিন বা ক’মাস বাইরে যাওয়ার প্ল্যান করলে ভেকেশন ফিচার খুব কার্যকরী হবে। ওলা ইলেকট্রিক দাবি করেছে, না ব্যবহার করা অবস্থায় ব্যাটারির চার্জ ২০০ দিন পর্যন্ত বজায় রাখবে। অন্যদিকে নতুন সফটওয়্যার আপডেট আসার ফলে স্কুটারের গতিবেগ বাড়ানোর ক্ষমতা বৃদ্ধি পেয়েছে। যা স্পোর্টস এবং হাইপার মোডে প্রত্যক্ষ করা যাবে।

প্রক্সিমিটি আনলক এবং হিল হোল্ড কন্ট্রোল

এতদিন ওলার স্কুটার ব্যবহারকারীদের মোবাইল ফোনে অ্যাপ খুলে অথবা পাসওয়ার্ডের মাধ্যমে স্কুটার চালু করতে হত। কিন্তু এবার মালিক কাছে এলে স্কুটার নিজে থেকেই আনলক হয়ে যাবে। প্রক্সিমিটি আনলক ফিচারের জন্য যা সম্ভব হয়েছে। অন্যদিকে হিল হোল্ড কন্ট্রোল স্কুটারকে ঢালু রাস্তায় উঠতে বিশেষভাবে সহায়তা করবে।

হাইপারচার্জিং এবং অন্যান্য ফিচার

MoveOS 3 ওলার স্কুটারে হাইপারচার্জিং সক্রিয় করে তুলেছে। ফল ১৫ মিনিটের চার্জে ৫০ কিলোমিটার পথ চলার শক্তি অর্জন করতে পারবে স্কুটার । এখনও পর্যন্ত এ ওলার ৫০টির মতো হাইপারচার্জার রয়েছে ভারতে। এবং আরও বাড়ানোর কাজ চলছে। অন্যান্য ফিচারের মধ্যে রাইড রিপোর্ট, স্মার্ট মোড, হ্যাজার্ড লাইট সহ অন্যান্য বৈশিষ্ট্য যুক্ত হয়েছে।

আরও পড়ুন