Hero নয়া ইঞ্জিন ও নতুন লুকের সাথে পুরনো বাইক লঞ্চের ঘোষণা করল, যে কোনও মুহূর্তে দাম প্রকাশ

Updated Hero XPulse 200T teased

নভেম্বরে ভারতের বৃহত্তম টু-হুইলার নির্মাতা হিরো মোটোকর্প (Hero MotoCorp) তাদের সবচেয়ে সস্তার রোডস্টার বাইক Xpulse 200T হাজির করতে চলেছে। তার আগে সংস্থা কর্তৃক সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রকাশিত টিজার বাইকটির লঞ্চের জল্পনায় ঘৃতাহুতি দিয়েছে। কোনরকম আবরণ ছাড়াই বিশ্ববাসীকে বাইকটির দর্শন করিয়েছে হিরো। ২০২২-এর জুলাইয়ে একটি বিজ্ঞাপনী শ্যুটিংয়ের পর এই প্রথম Hero Xpulse 200T এর দেখা মিলল। উল্লেখ্য, টিজার প্রকাশ করলেও লঞ্চের দিনক্ষণ এখনও জানায়নি সংস্থা।

উল্লেখ্য, ২০১৯-এর মে’তে ভারতে প্রথম পা রেখেছিল Hero Xpulse 200T। কিন্তু চাহিদা কম থাকার কারণে বিক্রি বন্ধ করে দেয় হিরো। এদিকে হালে এদেশে রেট্রো-থিমের মোটরসাইকেলের প্রতি ক্রেতাদের আগ্রহ ক্রমেই বেড়ে চলেছে। যা দেখে হিরো তাদের পুরনো জমি ফিরে পেতে ফের একবার কষে কোমর বেঁধেছে।

নতুন XPulse 200T এর ডিজাইনে একাধিক বদল ঘটানো হয়েছে। এটি ভারতের বাজারে Royal Enfield 350, TVS Ronin 225 ও Yamaha FZ-X-এর সাথে প্রতিযোগিতা করবে। এতে সিলভার কেসিং সহ নতুন পজিশনে এলইডি হেডলাইট ইউনিট, একটি নতুন উইন্ডস্ক্রিন, এবং ফর্ক গেইটর দেওয়া হয়েছে। বডি কালারের উইন্ডস্ক্রিনটি হেডলাইটের ঠিক উপরে অবস্থিত। ব্র্যান্ড নিউ বেলি প্যান এবং সিঙ্গেল পিস টিউবুলার গ্র‍্যাব রেলটি লাগেজ র‍্যাকের জায়গা দখল করেছে।

অনুমান করা হচ্ছে XPulse 200T-তে একটি ১৯৯.৬ সিসি অয়েল কুল্ড, সিঙ্গেল সিলিন্ডার, ফোর ভাল্ভ ইঞ্জিন দেওয়া হবে। যা থেকে ৮,৫০০ আরপিএম গতিতে ১৮.৮ বিএইচপি শক্তি এবং ৬,৫০০ আরপিএম গতিতে ১৭.৩৫ এনএম টর্ক উৎপন্ন হবে। ইঞ্জিনের সাথে সংযুক্ত ৫-স্পিড ট্রান্সমিশন। সাসপেনশন হিসেবে সামনে একটি টেলিস্কোপিক ফর্ক এবং পেছনে ৭-স্টেপ অ্যাডজাস্টেবল মোনোশক দেওয়া হয়েছে।

ব্রেকিংয়ের জন্য সিঙ্গেল চ্যানেল এবিএস সহ সামনে ২৭৬ মিমি এবং পেছনে ২২০ মিমি ডিস্ক ব্রেক উপস্থিত। Hero Xpulse 200T-এর নতুন প্রজন্মের (2023) মডেলটির দাম ১.২৯ লক্ষ টাকা (এক্স-শোরুম) রাখা হতে পারে। ফিচারের তালিকায় ব্লুটুথ কানেক্টিভিটি সহ ফুল ডিজিটাল ইন্সট্রুমেন্ট ক্লাস্টার, নেভিগেশন, আপসোয়েপ্ট এগজস্ট সহ আরও অন্যান্য বৈশিষ্ট্য থাকবে। লঞ্চের ঘোষণা আসতে পারে যে কোনও মুহূর্তে। তারপরেই দাম প্রকাশ হবে।