১ লক্ষ টাকার কমে লঞ্চ হল দারুণ স্টাইলিশ বাইক Bajaj Pulsar NS 125

bajaj-pulsar-ns-125-2021-launched-in-india-under-rs-1-lakh

Bajaj-এর Pulsar NS রেঞ্জের মোটরসাইকেলে আজ চুপিচুপি নতুন সদস্যের আগমন ঘটলো। আসলে আগাম পূর্বাভাস ছাড়াই Bajaj আজ ভারতে ১২৫ সিসি সেগমেন্টে লঞ্চ করলো নয়া Pulsar NS 125 মোটরসাইকেল। মাইলেজ ও দামের কথা ভেবে যারা ১২৫ সিসি-র ওপরে কোনো বাইক কেনার পক্ষপাতী নন, কিন্তু স্টাইলের সাথেও আবার কোনোভাবেই আপোস করতে চান না; তরুণ প্রজন্মের সেইসব ক্রেতাদের কাছে Bajaj Pulsar NS 125 নিঃসন্দেহে হয়ে উঠবে উপযুক্ত বিকল্প। ৯৩,৬৭০ (এক্স-শোরুম, দিল্লি) টাকা প্রাইস ট্যাগের সাথে আসা পালসার এনএস ১২৫, এখন ১ লক্ষ টাকার কমে সবচেয়ে স্টাইলিশ বাইক বললেও খুব একটা ভুল হবে না। এই নেকেড স্ট্রিট বাইকের আগমনের ফলে এন্ট্রি লেভেল স্পোর্টস বাইক সেগমেন্টে বাজাজের অবস্থান অনেকটাই দৃঢ ও মজবুত করবে বলে মন্তব্য করা যায়।

Bajaj Pulsar NS 125 2021 Beach Blue

Bajaj Pulsar NS 125 : ডিজাইন

স্টাইলিং এলিমেন্টের দিক থেকে এনএস ১২৫-এ এনএস রেঞ্জের অপর দুই মডেল এনএস ১৬০ ও এনএস ২০০-এর শার্প ডিজাইনের ছাপ পাওয়া যাবে। এতদনুসারে, বাজাজ পালসার এনএস ১২৫ টুইন পাইলট ল্যাম্প সহ, স্পোর্টি বডি গ্রাফিক্স, সিঙ্গেল-পড হ্যালোজেন হেডলাইট, মাসকুলার ফুয়েল ট্যাঙ্ক, ইঞ্জিন কাউল, স্প্লিট স্টাইল সিট, স্পোর্টি লুকসের স্প্লিট গ্রাব রেইল, আন্ডারবেলি এগজস্ট, এবং স্প্লিট স্টাইলের অ্যালোয় হুইল পেয়েছে। আবার এনএস ১৬০ ও এনএস ২০০-এর মতো বাজাজ, এনএস ১২৫-এর পিছনে সিগনেচার টুইন-স্ট্রিপ এলইডি টেল ল্যাম্প রেখেছে।

Bajaj Pulsar NS 125 Pewter Grey.jpg

Bajaj Pulsar NS 125 : ইঞ্জিন

বাজাজ পালসার এনএস ১২৫-এর চাকা ঘোরানোর জন্য রয়েছে সুপারিয়র পাওয়ার এবং স্মুদ থ্রোটল রেসপন্স বৈশিষ্ট্যযুক্ত ১২৫ সিসি-র এয়ার কুল্ড DTS-i ইঞ্জিন। ইঞ্জিনটি মোটরসাইকেলের পেরিমিটার ফ্রেম (সেগমেন্ট ফার্স্ট)-এর মধ্যে বসানো। বাইকে গিয়ারের সংখ্যা পাঁচটি এবং পাওয়ার এবং টর্ক আউপুট যথাক্রমে ১২ বিএইচপি ও ১১ এনএম।

Bajaj Pulsar NS 125 : হার্ডওয়্যার

Bajaj Pulsar NS 125 Fiery Orange

বাজাজ পালসার এনএস ১২৫-এর সাসপেনশন সেটআপে টেলিস্কোপিক ফ্রন্ট ফোর্কস ও রিয়ার নাইট্রক্স মনোশক অ্যাবজর্ভার অর্ন্তভুক্ত হয়েছে। নাইট্রক্স সাসপেনশন বিভিন্ন রাইডিং গতিতে স্থিতিশীলতায় সাহায্য করবে। ব্রেকিং ডিউটির জন্য বাইকের সামনে ২৪০ মিমি ডিস্ক ব্রেক এবং পিছনে ১৩০ মিমি ড্রাম ব্রেক দেওয়া হয়েছে। এবিএস-এর অনুপস্থিতি সত্যিই আশ্চর্যজনক৷ পরিবর্তে বাজাজ, বাইকে কম্বি ব্রেকিং সিস্টেম বা সিবিএস রেখেছে।

Bajaj Pulsar NS 125 : কালার অপশন

নতুন বাজাজ পালসার এনএস ১২৫ চারটি রঙের মধ্যে বেছে নেওয়া যাবে – Beach Blue, Fiery Orange, Burnt Red, ও Pewter Grey। বাইকের চাকায় প্রত্যেকটি কালার অপশনের সাথে ম্যাচিং করে রিম স্ট্রাইপ দেখা যাবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন