সাবধান! বিনামূল্যে ওমিক্রন পরীক্ষার এই মেসেজ বা ইমেল পেয়েছেন? খালি হয়ে যেতে পারে ব্যাঙ্ক

বিনামূল্যে ওমিক্রন পরীক্ষার জন্য অনলাইন PCR টেস্ট বুকিংয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে মানুষের ব্যক্তিগত ডেটা চুরির করার কান্ড ঘটাচ্ছে কিছু সাইবার অপরাধী

beware-free-omicron-online-test-message-is-fake-don-t-click-emails-how-to-save

নতুন বছরের শুরুতেই কোভিড-১৯ (Covid-19) ভাইরাসের একটি নতুন ভ্যারিয়েন্ট, ওমিক্রন (Omicron) ভারতে ভয়ঙ্কর রূপ নিয়েছে। ফলে প্রত্যেক ভারতবাসী, বিশেষত প্রথম সারির স্বাস্থ্যকর্মীদের ক্রমবর্ধমান ওমিক্রন কেসের সাথে লড়াই করতে হচ্ছে প্রতিমুহূর্তে। কিন্তু এই সময়েও কিছু অসৎ মানুষ পরিস্থিতির ফায়দা তুলতে ফেঁদে বসেছে প্রতারণার ব্যবসা। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ওরফে MHA সম্প্রতি তাই একটি নির্দেশিকার মাধ্যমে দেশবাসীর জন্য সতর্কতা জারি করেছে। যেখানে বলা হয়েছে, বিনামূল্যে ওমিক্রন পরীক্ষার জন্য অনলাইন PCR টেস্ট বুকিংয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে মানুষের ব্যক্তিগত ডেটা চুরির করার কান্ড ঘটাচ্ছে কিছু সাইবার অপরাধী। নেপথ্যে থাকা এই সকল প্রতারকেরা, সরকারি ও বেসরকারি স্বাস্থ্য পরিষেবা প্রদানকারী সাইটের অনুরূপ ফিশিং সাইট তৈরি করে সেটির ম্যালিশিয়াস লিংক, মেইল বা মেসেজের সাথে সংযুক্ত করে সাধারণ মানুষকে পাঠাচ্ছে। আপনারাও যদি এই প্রকার কোনো লিংক পেয়ে থাকেন, তবে অতিঅবশ্যই তার সত্যতা পুঙ্খানুপুঙ্খ ভাবে যাচাই করে নিন।

ফ্রি ওমিক্রন টেস্টের প্রলোভনে দেখিয়ে তথ্য চুরির কান্ডে লিপ্ত সাইবার ক্রিমিনালরা, সতর্কতা জারি করলো MHA

ওমিক্রনকে কেন্দ্র করে ঘটমান সাইবার জালিয়াতির ঘটনা সম্পর্কে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের (MHA) ‘সাইবার অ্যান্ড ইনফরমেশন সিকিউরিটি ডিভিশন’ জানিয়েছে, “আকস্মিক উৎপন্ন স্বাস্থ্য সংকটের দিকে সরকার অধিক মনোনিবেশ করার কারণে, সাইবার ডিফেন্স এখন তুলনায় দুর্বল, যার ফায়দা তুলছে সাইবার অপরাধীরা। এরা সর্বদা নাগরিকদের ঠকানোর জন্য নতুন নতুন উপায় খুঁজে বেড়ায়। যেমন আজকাল, ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট-থিমড সাইবার অপরাধ দিনকেদিন বাড়ছে। দ্রুত বিকশিত ওমিক্রন সংক্রান্ত পরিস্থিতিকে ভিত্তি করে নির্দোষ ব্যক্তিদের সর্বস্বান্ত করার জন্য সাইবার অপরাধীরা বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করছে।”

বিনামূল্যে PCR টেস্ট করার নামে নতুন ধরনের অনলাইন প্রতারণা, মূলত সরকারি ও বেসরকারি হেলথ অর্গানাইজেশনের ওয়েবসাইটের ইউজার ইন্টারফেস (UI) নকল করে ঘটানো হচ্ছে। আগেই বলেছি, এই সকল ফিশিং সাইটের লিংক সংযুক্ত করে প্রেরিত মেসেজ বা মেইলে, কোভিড-১৯ ভাইরাসের নয়া ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রনের জন্য ফ্রি টেস্ট বুক করার প্রলোভন দেখানো হয়। আর, এই ‘ফ্রি’ শব্দের ফাঁদে পা দিয়ে প্রদত্ত লিংকে ক্লিক করলেই, ছলে বলে ইউজারের ব্যাঙ্ক ডিটেলস সহ বিভিন্ন তথ্য হাতিয়ে নেয় প্রতারকরা। এরপর মানি ট্রান্সফার এবং আইডেন্টিটি থেফট বা পরিচয় চুরি করার মতো ঘটনা ঘটায় তারা। তাই সম্প্রতি জারি করা নির্দেশিকায়, বারংবার নাগরিকদের এই প্রকার ভুয়ো মেসেজ এড়িয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার।

কীভাবে বিনামূল্যে ওমিক্রন টেস্টের ফাঁদে পড়া থেকে বাঁচবেন

১. বিনামূল্যে ওমিক্রন টেস্ট করার প্রলোভন দেখিয়ে কোনো ওয়েবসাইটের লিংক দেওয়া হলে, প্রথমেই সেটির ডোমেইন নাম ও URL অ্যাড্রেস পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে পরীক্ষা করুন।

২. যেকোনো ‘ফ্রি’ অফারের থেকে সাবধান থাকুন! কারণ, বেশিরভাগ জালি ও ম্যালিশিয়াস ওয়েবসাইটই বিনামূল্যে বা অধিক ডিসকাউন্ট অফার করার মাধ্যমে ভিক্টিমদের প্রলুব্ধ করার চেষ্টা করে। তাই, অফার গ্রহণ করার আগে অবশ্যই ওয়েবসাইট বা সার্ভিস প্রোভাইডারের সম্পর্কে খোঁজ নিন।

৩. মেসেজে আসা লিংক বা ইন্টারনেটে পোস্ট করা অনলাইন অ্যাডের মধ্যে কোনোটি যদি সন্দেহজনক মনে হয়, তবে সেটির বিস্তারিত তথ্য অবিলম্বে ভারত সরকারের সাইবার ক্রাইম পোর্টালে – cybercrime.gov.in portal মেইল করে জানান

শুভেচ্ছা বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী। তিনি একদিকে যেমন ফটোগ্রাফার, তেমনি পাশাপাশি লেখিকাও। এছাড়াও তার শখের মধ্যে আছে বই পড়া, গান গাওয়া, ছবি আঁকা এবং ওয়েব ডিজাইন। শুভেচ্ছা আমাদের টেকগাপ পরিবারের একজন নতুন সদস্য।