আসছে Black Friday সেল, ভারতে বসেই ধামাকা অফারে কিনুন বিদেশী প্রোডাক্ট

আমেরিকা-সহ অন্যান্য পাশ্চাত্য দেশে নভেম্বরের চতুর্থ বৃহস্পতিবার ‘Thanksgiving Day’ হিসাবে পালন করা হয়। আর থ্যাঙ্কসগিভিং-এর পরের দিন ‘Black Friday’ নামে পরিচিত, যে দিন প্রচুর কেনাকাটা করে থাকে সকলে। এই বছর ব্ল্যাক ফ্রাইডে পড়েছে ২৭ নভেম্বর। এই দিন আমেরিকার সমস্ত অনলাইন শপিং প্ল্যাটফর্মে বিপুল ছাড় দেওয়া হবে। কোনো কোনো জায়গায় গোটা সপ্তাহ জুড়েই সেল চলে। আবার সপ্তাহ শেষের পরেও শুরু হয় ‘Cyber Monday’ সেল। ভারতে যদিও এই ব্ল্যাক ফ্রাইডে পালিত হয় না, তা সত্ত্বেও ভারতীয় গ্ৰাহকরা এই সেলের সুযোগ নিতে পারেন। আপনি যদি কোন বিদেশী সাইট থেকে জিনিস কেনার কথা ভেবে থাকেন তাহলে এটাই উপযুক্ত সময়।

ভারতীয় হয়ে ‘ব্ল্যাক ফ্রাইডে’ সেলের সুযোগ নেওয়া যাবে?

বড় বড় শপিং প্ল্যাটফর্মগুলি গোটা বিশ্ব জুড়েই ডেলিভারি দিয়ে থাকে। তবে আপনি যে জিনিসটি কিনছেন, সেটি কেনার আগে একবার দেখে নেবেন সেই জিনিসটির উপর গ্লোবাল শিপিং আছে কিনা।

তাছাড়া, আমেরিকা বা অন্যান্য দেশে যদি আপনার কোন বন্ধু বা আত্মীয় থাকে তাহলে তাদের ঠিকানাতে আপনি অর্ডার করতে পারেন। ফলে তারা যখন ভারতে আসবে তখন জিনিসটি সঙ্গে নিয়ে আসতে পারে।

আরেকটি অপশন হলো কোন থার্ড-পার্টি শিপিং সার্ভিস ব্যবহার করা। সেক্ষেত্রে সেই শিপিং সার্ভিস আপনাকে সরাসরি ভারতে জিনিসটি পাঠিয়ে দেবে। অবশ্যই এখানে আপনাকে অতিরিক্ত কিছু শিপিং চার্জ এবং প্রযোজ্য কাস্টম ডিউটি বহন করতে হবে। প্রসঙ্গত, এই থার্ড-পার্টি শিপিং সার্ভিসগুলি আপনাকে একটি ভার্চুয়াল অ্যাড্রেস দেবে যেখানে আপনি আপনার জিনিসটি পাঠিয়ে দিতে পারেন। তারপর তারা আপনার জিনিসটি ভারতের ঠিকানায় পাঠিয়ে দেবে।

‘Black Friday’-তে কেনাকাটার টিপস

প্রথমেই আপনি যে যে জিনিসগুলি কিনতে চান তার একটি তালিকা তৈরি করুন। তারপর সেই জিনিসগুলির স্থানীয় বাজারে দাম ইত্যাদি নোট করে নিন। এরপর আপনি যে সাইট থেকে জিনিসগুলি কিনতে চান সেই সাইটে কতটা ছাড় দিচ্ছে সেটা দেখে বিচার করুন কিনে লাভ হবে কিনা। তবে বিদেশি সাইট থেকে জিনিস কেনার ক্ষেত্রে যে সব জিনিস সহজে শিপিং করা যাবে সেসব জিনিস কেনাই ভালো।

বিভিন্ন সাইটের মধ্যে দামের তুলনা করে দেখুন কে কতটা ছাড় দিচ্ছে। মনে রাখবেন জিনিসের দাম ছাড়াও আপনাকে শিপিং চার্জ এবং কাস্টম ডিউটির টাকাও দিতে হবে। সুতরাং যদি ছাড়ের পরিমাণ খুব বেশি না থাকে তাহলে কিন্তু লাভের সম্ভবনা কম।

‘Black Friday’ সেলে কি কি কিনবেন?

ব্ল্যাক ফ্রাইডে সেলে ইলেকট্রনিক জিনিস কিনলেই সবচেয়ে বেশি লাভ। যেসব ইলেকট্রনিক জিনিস ভারতে পাওয়া যায় না সেগুলি আপনি এই সেলে কিনে ফেলতে পারেন। তাছাড়া ওয়েব হোস্টিং, VPN সার্ভিস, ডোমেন নেম ইত্যাদিও কিনতে পারেন এই সেলে। তবে অন্যান্য জিনিস কেনার সময় মাথায় রাখবেন জিনিসটি যেন খুব ভারী না হয়। জিনিসটি বেশি ভারী হলে শিপিং চার্জ বেশি লাগবে।

উল্লেখ্য, বিশ্বব্যাপী প্যানডেমিকের কারণে বিদেশ থেকে কোন জিনিস আসার ক্ষেত্রে অনেক বিধিনিষেধ আরোপ করা হচ্ছে। আন্তর্জাতিক শিপিং চালু থাকলেও অনেক জায়গাতেই কর্মচারী আগের তুলনায় কম। সুতরাং আপনার জিনিসটি আসতে অনেক দিন সময় লেগে যেতে পারে।

টেকগাপের মেম্বাররা ও সদ্য যোগ দেওয়া লেখকরা এই প্রোফাইলের মাধ্যমে টেকনোলজির সমস্ত রকম খুঁটিনাটি আপনাদের সামনে আনে।