Redmi 9A কেন কেনা উচিত নয়? অনেক ভালো Redmi 8A

Cons fact at Redmi 9A why you sould not buy

ভারতের এক নম্বর স্মার্টফোন ব্র্যান্ড Xiaomi, বছরে অন্তত দুবার নতুন ফোনের সিরিজ বাজারে আনে, এবং সেই সিরিজে বিভিন্ন রেঞ্জের বা বাজেটের স্মার্টফোন উপলব্ধ হয়। ঠিক এমনইভাবে গতকাল সংস্থাটি, তার জনপ্রিয় “9” সিরিজের নতুন Redmi 9A ফোন ভারতের বাজারে এনেছে। শাওমির এন্ট্রি-লেভেলের এই ফোনটির দাম শুরু হয়েছে ৬,৭৯৯ টাকা থেকে। তবে এই নতুন বাজেট ফোনটি, এর পূর্বসূরী অর্থাৎ গত বছর বাজারে আসা সংস্থার Redmi 8A ফোনটিকে টেক্কা দিতে পারেনি।

গত বছরে লঞ্চ হওয়া Redmi 8A ফোনদুটির প্রধান সেলিং পয়েন্ট ছিল – ১৮ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং এবং ইউএসবি টাইপ-সি (Type-C) কানেক্টর।
এমনকি শাওমি ইন্ডিয়ার সিইও মনু কুমার জৈন অত্যন্ত উৎসাহের সাথে এই ফোনটি সম্পর্কে বেশ কয়েকটি টুইট করেছিলেন। যাইহোক, সাশ্রয়ী মূল্যে ফাস্ট চার্জিং, ইউএসবি-সি পোর্ট এবং আরো বেশ কিছু ফিচারের জন্য এই 8A ফোনটি খুব সহজেই অন্যান্য প্রতিযোগীদের পেছনে ফেলে গ্রাহকদের পছন্দের তালিকায় জায়গা করে নিয়েছিল।

অন্যদিকে, Redmi 9C ফোনটি Redmi 9A নামে ভারতের বাজারে এলেও এটি এমন কিছু আহামরি নয়, এমনটাই মনে করা হচ্ছে। কারণ, নতুন ফোনে আপনি অবশ্যই নতুন ফিচার এবং আরো উন্নত পারফরম্যান্স পেতে চাইবেন। এক্ষেত্রে, Redmi 9A ডিভাইসটিতে সাধারণ মাইক্রো-ইউএসবি পোর্ট এবং ১০ ওয়াট চার্জিং টেকনোলজি দেওয়া হয়েছে।


এছাড়া, Redmi 8A এবং Redmi 8A Dual দুটি ফোনেই গরিলা গ্লাস ৫ প্রোটেকশন দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু Redmi 9A ফোনটিতে গরিলা গ্লাস প্রোটেকশন সম্পর্কে কোনো ধরণের উল্লেখ করা হয়নি। ফলে Redmi 8A ফোনটির তুলনায় Redmi 9A ফোনটির ফিচার যে বেশ ডাউনগ্রেড বা হতাশাজনক তা বলার অপেক্ষা রাখেনা।

আবার যদি দুটি ফোনের দামের তুলনা করা হয়, সেক্ষেত্রেও Redmi 9A আপনাকে হতাশ করতে পারে। কারণ Redmi 8A লঞ্চের সময় সেটির লঞ্চ প্রাইজ ছিল ৬,৪৯৯ টাকা; এমনকি মাস সাতেক আগে লঞ্চ হওয়া Redmi 8A Dual, যাতে একটি অতিরিক্ত ক্যামেরা রয়েছে তার দামও ছিল ৬,৪৯৯ টাকা। কিন্তু, Redmi 9A ফোনটির দাম শুরু হচ্ছে ৬,৭৯৯ টাকা থেকে।

আমরা আপনাকে কখনোই পুরনো অর্থাৎ আগে লঞ্চ হওয়া ফোন কেনার যুক্তি দেব না, কিন্তু আপনি যদি Redmi 9A ফোনটি কিনতে চান তবে অবশ্যই এর ডাউনগ্রেড বৈশিষ্ট্যগুলি মাথায় রাখবেন।