‘ডিম ও মাংস থেকে ছড়াচ্ছে করোনা ভাইরাস’ ভুয়ো মেসেজে কোটি কোটি টাকা লোকসান পোলট্রি ফার্ম মালিকদের

সরকার থেকে বারবার সচেতন করা হয়েছে অন্ধভাবে হোয়াটসঅ্যাপে আসা কোনো মেসেজ কে না বিশ্বাস করতে এবং অন্য কাউকে না পাঠাতে। তবে আমরা আর সে কথা শুনছি কই? সম্প্রতি হোয়াটসঅ্যাপের একটি ভুয়ো মেসেজের কারণে ১ কোটি টাকা লোকসান হল মহারাষ্ট্রের একটি পোলট্রি ফার্মের।

ঘটনা হল মহারাষ্ট্রের একটি পোলট্রি ফার্মের মালিকের কাছে মেসেজ আসে যে, ডিম এবং মুরগির মাংস থেকে করোনা ভাইরাস ছড়াচ্ছে। এই মেসেজটি সারা দেশে হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে ছড়িয়ে পরে এবং ডিম এবং মুরগির দাম ৯০ শতাংশ কমে যায়। এমন পরিস্থিতিতে কেবল এই মেসেজ ভাইরাল হওয়ার কারণে লক্ষ লক্ষ মালিক এখন কোটি কোটি টাকা লোকসানের মুখে।

ইংলিশ ওয়েবসাইট লাইভ মিন্টকে দেওয়া এক সাক্ষাত্কারে অল ইন্ডিয়া পোল্ট্রি ব্রিডার্স অ্যাসোসিয়েশনের ভাইস প্রেসিডেন্ট সুরেশ চিতপুরী জানিয়েছেন, ডিম ও মুরগির চাহিদা কমে যাওয়ার কারণে মার্চের গোড়ার দিকে দেশের সব জায়গাতে মুরগির দাম কমে দাঁড়িয়েছে ১৫-২০ টাকায়। এমন পরিস্থিতিতে ফার্ম মালিকরা প্রতিদিন প্রায় ১৬০ কোটি টাকা লোকসান করছেন।

ডিম ও মুরগির মাংস থেকে কি করোনা ছড়িয়ে পড়ে?

এখন প্রশ্ন হচ্ছে যে, মুরগী ​​এবং ডিম খেলে কি করোনা ভাইরাস ছড়ানোর ঝুঁকি রয়েছে? অনেক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে যে, এখনও অবধি এরকম কোনও ঘটনা ঘটেনি যা থেকে এটি নিশ্চিত হওয়া গেছে যে মুরগি খাওয়ার ফলে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। তাই গুজবে মনোযোগ দেওয়ার দরকার নেই। অন্যদিকে, মহারাষ্ট্রের পশুপালন মন্ত্রী সুনীল কেদার বলেছেন যে, এই জাতীয় গুজব ছড়িয়ে দেওয়ার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।