‘5G এর কারণে ছড়াচ্ছে করোনা,’ টাওয়ার জ্বালিয়ে দিল বিক্ষুদ্ধ জনতা

করোনা ভাইরাসের কারণে বিশ্বজুড়ে প্রায় সব জায়গায় লকডাউন চলছে। ঘরবন্দী মানুষরা সময় অতিবাহিত করার জন্য তাই টিভির সাথে মোবাইল ফোন কেই বেছে নিয়েছে। এই কারণে মোবাইল ডেটা ব্যবহার বৃদ্ধি পেয়েছে কয়েকগুণ। কিন্তু ঠিক উল্টো ঘটনা ঘটলো ইউকে তে । সেখানকার ৫জি টাওয়ারে আগুন লাগিয়ে দিল আমি জনতা। বিবিসি এর রিপোর্ট অনুযায়ী, সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করা একটি পোস্টের কারণে এই কাজ করেছে সাধারণ মানুষ। আসলে ওই পোস্টে দাবি করা হয়েছিল করোনা ভাইরাসের মত মহামারি ৫জি ইনফ্রাস্ট্রাকচারের কারণে দেখা দিয়েছে।

COVID-19 ছড়িয়ে পড়তেই এর সাথে ৫জি যোগের খবর ফেসবুক এবং Nextdoor মতো সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম গুলিতে শেয়ার হতে থাকে। এই সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টে দাবি করা হয় কোভিড-১৯ এর কারণ 5G । সম্প্রতি ফাইভ-জি নেটওয়ার্ক চালু হওয়ায় উহান থেকে এই মহামারী ছড়িয়েছে।

এরপর কি হয়েছে :

এই গুজব ছড়িয়ে যাওয়ার পরে ব্রিটেনের লোকেরা ৫জি মোবাইল টাওয়ারগুলিতে আগুন লাগাতে শুরু করে। গত কয়েক দিনে এই জাতীয় তিনটি ঘটনাসামনে এসেছে। শুধু তাই নয়, লোকেরা ৫জি ইনস্টলেশনের জন্য ফাইবার অপটিক কেবলে কাজ করা শ্রমিকদেরও হেনস্থা করেছে।

সত্যি কি 5G এর কারণে ছড়াচ্ছে করোনা ভাইরাস :

ফাইভজি টাওয়ার জ্বলানোর ঘটনা সামনে আসার পরে ব্রিটেন সরকারের পক্ষ থেকে টুইট করে প্রতিক্রিয়া জানানো হয়। সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে, করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব এবং ৫জি প্রযুক্তির মধ্যে কোনও যোগসূত্রের প্রমাণ পাওয়া যায়নি। এই দাবিটিও সত্য প্রমাণিত হয় নি, কারণ করোনা ভাইরাস ভারত, ইরান এবং জাপানের মতো দেশেও ছড়িয়ে পড়েছে যেখানে ৫জি প্রযুক্তি এখনও চালু হয়নি।