e-RUPI: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর হাত ধরে ভারতে লঞ্চ হচ্ছে নতুন ডিজিটাল পেমেন্ট সলিউশন

e-rupi-digital-payment-solutions-launching-by-narendra-modi-tomorrow
e-RUPI ডিজিটাল পেমেন্ট পরিষেবা আগামীকাল লঞ্চ হবে

আমাদের পরিচিত ডিজিটাল জগতে লেনদেনের আরো একটি নতুন বিকল্প সংযোজন হতে চলেছে। ই-রুপি (e-RUPI) নামক ভাউচার-ভিত্তিক লেনদেনের পক্ষে উপযোগী এই অ্যাপ্লিকেশনটি সোমবার অর্থাৎ আগামীকাল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর হাত ধরে প্রকাশ্যে আসতে চলেছে। এই অ্যাপ্লিকেশনের আত্মপ্রকাশের পর আমরা ব্যক্তিগত সংগ্রহে থাকা ই-ভাউচারগুলি থেকে সম্পূর্ণ ফায়দা তুলে নিতে সক্ষম হবো। পুরো প্রক্রিয়াটি হবে অত্যন্ত সহজ-সরল এবং নির্ঝঞ্ঝাট। আসুন ই-রুপি (e-RUPI) অ্যাপ্লিকেশন কারা ডেভেলপ করছে এবং এর কার্যকারিতা জেনে নিই…

e-RUPI ডিজিটাল পেমেন্ট পরিষেবা কারা তৈরী করছে

ন্যাশনাল পেমেন্টস কর্পোরেশন অফ ইন্ডিয়া (National Payments Corporation of India) বা এনপিসিআই (NPCI), অর্থনৈতিক কাজকর্মের দপ্তর (Department of Financial Services) সহ ভারতের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রক (Union Ministry of Health & Welfare) এবং জাতীয় স্বাস্থ্য প্রতিষ্ঠান (National Health Authority) প্রমুখেরা মিলিতভাবে ই-রুপি (e-RUPI) অ্যাপ্লিকেশনটিকে তৈরী করেছে। ক্যাশ এবং কোনোরকম যোগাযোগের ভাবনাহীন উক্ত অ্যাপ্লিকেশনটি আমাদের ভবিষ্যৎ লেনদেনের ক্ষেত্রে বড় সহায় হতে চলেছে।

যেখানে দেশের প্রধানমন্ত্রী স্বয়ং, সর্বপ্রথম একটি অ্যাপ্লিকেশনকে জনসমক্ষে আনছেন, সেখানে প্রধানমন্ত্রীর নিজস্ব দপ্তরের চুপচাপ বসে থাকা শোভনীয় নয়। ফলে ই-রুপি (e-RUPI) অ্যাপ্লিকেশনের আগমনকে কেন্দ্র করে উপরোক্ত দপ্তরের মন্তব্যে বেশ খানিকটা উচ্ছ্বাস লক্ষ্য করা গিয়েছে। তাদের পক্ষ থেকে একটি বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, “দেশের প্রতিটি ডিজিটাল উদ্যোগের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর অকুণ্ঠ সমর্থন আমরা সবসময় প্রত্যক্ষ করেছি। মানুষের পক্ষে সুবিধাজনক এবং নিরাপদ এমন একাধিক উদ্যোগ গত কয়েক বছরে গৃহীত হয়েছে।” ডিজিটাল ব্যবস্থার সুযোগ-সুবিধা যাতে ‘সবথেকে বেশী সংখ্যক সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে যায়’ সে বিষয়ে সরকারের নজর থাকবে বলেও প্রধানমন্ত্রীর দপ্তরের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

e-RUPI ডিজিটাল পেমেন্ট পরিষেবা কীভাবে কাজ করবে

উল্লেখ্য, e-RUPI একটি QR কোড বা এসএমএস (SMS) স্ট্রিং নির্ভর ই-ভাউচার লেনদেন পরিষেবা, যা ব্যবহারকারীদের যথাযথ পরিমাণে সন্তুষ্ট করবে বলে প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর দাবী করেছে। কোনোরকম কার্ড, ডিজিটাল পেমেন্ট অ্যাপ বা ইন্টারনেট ব্যাঙ্কিং অ্যাপ্লিকেশন ছাড়া শুধুমাত্র e-RUPI ব্যবহার করে একজন তার সংগৃহীত ভাউচারের পূর্ণ লাভ উসুল করতে পারবেন। এর ওয়ান-টাইম পেমেন্ট পুরো প্রক্রিয়াটিকে অত্যন্ত করবে সহজ করে তুলবে।

এছাড়া প্রধানমন্ত্রী দপ্তরের বক্তব্য, e-RUPI অ্যাপ্লিকেশন বিভিন্ন স্পনসর সংস্থা, উপভোক্তা এবং পরিষেবা প্রদানকারীর মধ্যে সংযোগ গড়ে তুলবে এবং সেটাও কোনোরকমের প্রত্যক্ষ যোগাযোগ ছাড়া। এক্ষেত্রে ট্রানজ্যাকশন সফল হলে তবেই উপভোক্তা লেনদেনে অগ্রসর হতে পারবেন। এই ধরনের বৈপ্লবিক উদ্ভাবনের ফলে ডিজিটাল আদানপ্রদানের ব্যবস্থা আরও একধাপ এগিয়ে গেলো বলে অনেকের অভিমত। এছাড়া বিভিন্ন বেসরকারি সংস্থাগুলি কর্মীদের উন্নয়ন ও পরিবার কল্যাণের উদ্দেশ্যেও আলোচ্য অ্যাপ্লিকেশনটিকে কাজে লাগাতে পারবেন।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

One of the newest members of the Techgup Family. Soumo grew his liking for gadgets almost a decade back while searching for his first smartphone, and started writing about tech recently in 2020