অ্যাপল অ্যাপ স্টোর ও গুগল প্লে স্টোর থেকে সরিয়ে দেওয়া হল ব্যাটেল গেম Fortnite কে

epic-games-sues-after-apple-and-google-removed-fortnite-from-app-store-and-play-store

Epic Games এর জনপ্রিয় রয়্যাল ব্যাটেল গেম, Fortnite কে Apple অ্যাপ স্টোরের পর সরিয়ে দেওয়া হল Google প্লে স্টোর থেকেও। মূলত অ্যাপ স্টোরগুলির পলিসি না মানার কারণে ফোর্টনাইট কে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। প্রসঙ্গত, কোনো অ্যাপ্লিকেশান পারচেজ বা মোবাইল গেমের মধ্যে কিছু কেনার জন্য অ্যাপ স্টোর ও প্লে স্টোরের নিজস্ব পেমেন্ট বা বিলিং সিস্টেম ব্যবহার করতে হয়। কিন্তু সম্প্রতি Fortnite এর নতুন আপডেটে সেই নিয়ম মানা হয়নি। এই নতুন আপডেটটি আসার ফলে ব্যবহারকারীরা গুগল ও অ্যাপেলের পেমেন্ট প্ল্যাটফর্ম বাইপাস করে ডাইরেক্ট ফর্টনাইট অ্যাপের মাধ্যমেই ইন-অ্যাপ পারচেজ যেমন ওয়েপন আপগ্রেড থেকে শুরু করে অ্যাকসেসারিস প্রভৃতি কিনতে পারছিল।

ফলস্বরূপ পেমেন্টস গাইডলাইন অমান্য করার জন্য প্রথমে অ্যাপেল, অ্যাপস্টোর থেকে ও পরে গুগলও প্লে স্টোর থেকে Fortnite কে সরিয়ে দেয়। যদিও গেমটি এখন প্লে স্টোরে উপলব্ধ না হলেও অ্যান্ড্রয়েড ইউজাররা এটি ফোনে ইনস্টল করতে পারবেন। এপিক গেমসের ওয়েবসাইট থেকে এটি যেমন ডাউনলোড করা যাবে তেমনি স্যামসুং ব্যবহারকারীরাও গ্যালাক্সি স্টোর থেকে গেমটি ইনস্টল করে নিতে পারবেন।

এদিকে এই ঘটনার পর দ্য ভার্জের রিপোর্ট অনুসায়ী, Epic Games গুগল ও অ্যাপেল উভয় সংস্থার বিরুদ্ধে অ্যান্টি কম্পিটিটিভ ব্যবহারের অভিযোগ এনে আইনত পদক্ষেপ নিচ্ছে। এপিক গেমস তাদের আনা মামলায় জানিয়েছে, অ্যাপেল নিজেই একসময় মনোপোলি -র (একটি সংস্থার বাজারে একচেটিয়া আধিপত্য) বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করেছিল। আর এখন সংস্থাটি নিজেই বাজারে মনোপলিস্ট হয়ে উঠছে। তারা অভিযোগ করেছে, Apple বাজার নিয়ন্ত্ৰণ, কম্পিটিশান ব্লক এমনকি নতুন ইনোভেশনকেও দমন করতে চাইছে। অ্যাপেল এখন তার পূর্ববর্তী মনোপলিস্টদের থেকেও বেশী শক্তিশালী ও ক্ষতিকর ৷

অ্যাপ সাবস্ক্রিপশন বা ইন-অ্যাপ পারচেজের জন্য অ্যাপেল সাধারণত ১৫-৩০ শতাংশ এবং গুগলও প্রায় একই রকম ফি ধার্য করে। নতুন আপডেটের মাধ্যমে ইউজাররা এই অতিরিক্ত ফি বাইপাস করেই অপেক্ষাকৃত কম মূল্যে ফর্টনাইট অ্যাপ থেকেই ইন-অ্যাপ পারচেজের সুবিধা পেয়ে যাচ্ছিল।

অ্যাপেল তাদের বিবৃতিতে জানিয়েছে, ব্যবহারকারীদের কাছে অ্যাপস্টোর সুরক্ষিত রাখার জন্য অ্যাপস্টোরের যাবতীয় গাইডলাইনসগুলি প্রত্যেক ডেভলপারের ওপর সমানভাবে প্রযোজ্য। কিন্তু আজ এপিক গেমস দুর্ভাগ্যজনকভাবে এই গাইডলাইনস ভঙ্গ করার পথে হেঁটেছে। ফলস্বরূপ তাদের অ্যাপটি স্টোর থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। অ্যাপস্টোরে প্রত্যেক ডেভলপার যারা ডিজিট্যাল গুডস বা সার্ভিস অফার করেন তারা পেমেন্ট সংক্রান্ত সমস্ত গাইডলাইনস মানতে বাধ্য। কিন্তু এপিক গেমস তাদের নতুন আপডেটে যে ফিচারটি এনাবেল করেছে সেটি অ্যাপেল রিভিউ বা অ্যাপরুভ কোনোটাই করেনি। সুতারাং এপিক গেমস উদ্দেশ্যজনক ভাবেই ইন-আপ পেমেন্ট সংক্রান্ত অ্যাপস্টোরের নির্দেশিকা অমান্য করেছে।

গুগলও এই বিষয়টির ওপর বিবৃতি দিয়ে জানিয়েছে, অ্যান্ড্রয়েডের ওপেন ইকোসিস্টেমের মাধ্যমে ডেভলপাররা মাল্টিপেল প্ল্যাটফর্মে অ্যাপ ডিসট্রিবিউট করতে পারেন। যেসব গেম ডেভলপার তাদের গেমের জন্য প্লে স্টোর পছন্দ করেছেন, আমাদের কিছু ধারাবাহিক নীতি যেমন তাদের স্বার্থ অনুকূল রাখতে বদ্ধপরিকর, তেমনি ব্যবহারকারীদেরও কাছেও গুগল প্লে স্টোর সুরক্ষিত রাখতে অঙ্গীকারবদ্ধ। ফর্টনাইট এখনও অ্যান্ড্রয়েডে উপলব্ধ হলেও প্লে স্টোরে গেমটিকে আমরা আনতে অক্ষম। যদিও গেমটি পুনরায় প্লে স্টোরে ফিরিয়ে আনার জন্য আমাদের সাথে এপিক গেমসের আলোচনার সমস্ত সুযোগ খোলা আছে.

ভার্জের রিপোর্ট অনুযায়ী, অ্যাপেলের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ফর্টনাইটের সাথে আলোচনার মাধ্যমে তারাও সমাধানসূত্র বার করতে আগ্রহী ৷ গেমটি এখনও এপিক গেমসের ওয়েবসাইট থেকে অ্যান্ড্রয়েডে ফোনে ইনস্টল করা যাবে। তবে অ্যাপেলে এই সুবিধাটি থাকছে না।

Shuvro is very much passionate about quiz, writing and extremely enthusiastic to learn the modern scientific and technological discoveries in all over the world.