ফ্লিপকার্ট থেকে পাওয়া যাবে Vivo X50 সিরিজ, থাকবে তাক লাগানো ক্যামেরা ফিচার ও 5G সাপোর্ট

ভিভো ইন্ডিয়ার টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে কয়েকদিন আগেই জানানো হয়েছিল যে, শীঘ্রই ভারতে আনা হবে Vivo X50 সিরিজ। যদিও কোম্পানি ফোনের সঠিক লঞ্চ ডেট এখনও জানায়নি। তবে ই-কমার্স সাইট Flipkart এবার ভিভো এক্স ৫০ সিরিজের জন্য আলাদা পেজ বানালো। ফলে বলা যায় Vivo X50 সিরিজ ফ্লিপকার্ট এক্সক্লুসিভ প্রোডাক্ট হবে।

ফ্লিপকার্টের এই ডেডিকেটেড পেজে ভিভো এক্স ৫০ সিরিজের প্রধান প্রধান ফিচার কে সামনে এনেছে। যেখানে এর ক্যামেরা ফিচারকে হাইলাইট করা হয়েছে। এছাড়াও জানানো হয়েছে এই সিরিজ ৫জি কানেক্টিভিটির সাথে আসবে। আবার এতে বেজেল লেস ডিসপ্লে, পাঞ্চ হোল ক্যামেরা সিস্টেম থাকবে।

আপনাকে জানাই ভিভোর এই নতুন সিরিজে তিনটি ফোন আছে Vivo X50, X50 Pro ও X50 Pro+। কোম্পানি গতমাসে চীনে এই সিরিজ লঞ্চ করেছিল। Vivo X50, X50 Pro ফোনে কোম্পানি স্ন্যাপড্রাগন ৭৬৫ জি প্রসেসর ব্যবহার করেছে। আবার স্নাপড্রাগণ ৮৬৫ প্রসেসরের সাথে এসেছে ভিভো এক্স ৫০ প্রো প্লাস। ভারতে এই সিরিজের দাম শুরু হতে পারে ৩৮,০০০ টাকা থেকে।

Vivo X50 সিরিজ স্পেসিফিকেশন :

ভিভো এক্স ৫০ ফোনে ৬.৫৬ ইঞ্চি এমোলেড ফ্লাট ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে। ফোনের পাঞ্চ হোল কাট আউটের মধ্যে পাবেন ৩২ মেগাপিক্সেল সেলফি ক্যামেরা। ফোনের পিছনে কোয়াড ক্যামেরা সেটআপ আছে। যার প্রাইমারি ক্যামেরা স্ট্যান্ডার্ড ওআইএস এর সাথে ৪৮ মেগাপিক্সেল। এছাড়াও আছে ৮ মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড ক্যামেরা সেন্সর ও ১৩ মেগাপিক্সেল টেলিফোটো ক্যামেরা। ফোনে ৮ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো সেন্সর উপলব্ধ। এখানে ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সহ ৪,২০০ এমএএইচ ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে।

এদিকে ভিভো এক্স ৫০ প্রো ফোনে ৬.৫ ইঞ্চি ওলেড ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে। এই ফোনের পিছনেও আছে কোয়াড ক্যামেরা সেটআপ। যার প্রাইমারি ক্যামেরা ৪৮ মেগাপিক্সেল সনি আইএমএক্স ৫৯৮ সেন্সর। অন্য ক্যামেরাগুলি হলো ৮ মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড ক্যামেরা, ৮ মেগাপিক্সেল পেরিস্কোপ লেন্স ও ১৩ মেগাপিক্সেল টেলিফোটো ক্যামেরা। এতে ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং যুক্ত ৪,৩১৫ এমএএইচ ব্যাটারি রয়েছে।

এই সিরিজের সবচেয়ে দামি মডেল হল Vivo X50 Pro+। এখানে আছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৬৫ প্রসেসর। ফোনে ৬.৫ ইঞ্চি ওলেড ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে। যার রেজুলেশন ১০৮০ x ২৩৭৬ পিক্সেল। সিকিউরিটির জন্য এখানে ইন ডিসপ্লে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর উপলব্ধ। ফোনের পিছনে ৫০ মেগাপিক্সেল Samsung ISOCELL GN1 সেন্সর যুক্ত কোয়াড ক্যামেরা সেটআপ আছে। অন্যান্য ক্যামেরাগুলি হল ৮ মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড ক্যামেরা, ৮ মেগাপিক্সেল পেরিস্কোপ লেন্স ও ১৩ মেগাপিক্সেল টেলিফোটো ক্যামেরা।