মুখে বলেই অর্ডার করা যাবে প্রোডাক্ট, ফ্লিপকার্ট আনলো ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্ট পরিষেবা

flipkart-voice-assistant-service-roll-out-for-grocery-store-supermart

Walmart এর মালিকানাধীন ই-কমার্স সাইট Flipkart ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্ট পরিষেবা নিয়ে এল। এই পরিষেবার সুবিধা নিয়ে মানুষ গ্রোসারি অ্যাপ থেকে প্রোডাক্ট অর্ডার করতে পারবে। এই পরিষেবা Flipkart এর গ্রোসারি স্টোর ‘সুপারমার্ট ‘ উপলব্ধ করা হয়েছে। ভয়েস অ্যাসিস্ট্যান্ট এর সাহায্যে মুখে বলেই কোনো প্রোডাক্ট অর্ডার করা যাবে। আপাতত হিন্দি ও ইংরেজি ভাষায় শুরু হয়েছে। তবে শীঘ্রই অন্যান্য ভাষাও উপলব্ধ হবে। এদিকে কোম্পানির তরফে বলা হয়েছে আপাতত এই সুবিধা অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপে পাওয়া যাবে। তবে iOS বা ওয়েবসাইটে পরিষেবা পেতে কিছুটা দেরি হবে।

ফ্লিপকার্ট এক বিবৃতিতে বলেছে যে, ভয়েস ফার্স্ট কনভারসেশনাল আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স (এআই) প্ল্যাটফর্মটি ফ্লিপকার্টের ইন-হাউস টেকনোলজি টিম তৈরি করেছে, যার সাহায্যে কথা বোঝা, সাধারণ ভাষা বোঝা, মেশিন ট্রান্সলেশন এবং ভারতীয় ভাষার জন্য টেক্সট থেকে কথায় রূপান্তর করা যাবে।

নতুন পরিষেবাটি ধীরে সমস্ত দেশীয় ভাষা, যেমন হিন্দি, বাংলা প্রভৃতি ভাষায় মুখে বলেই প্রোডাক্ট খোঁজা, প্রোডাক্ট অর্ডার করা বা অন্যান্য সমস্ত কাজ ই-কমার্স সাইট থেকে করতে দেবে। ফ্লিপকার্ট জানিয়েছে যে, এটি একটি দেশীয়ভাবে নির্মিত এআই প্ল্যাটফর্ম, যা গ্রাহকদের কথ্য ভাষাগুলি পুনর্নির্দেশ করবে এবং সাথে সাথে টেক্সটে রূপান্তর বা অনুবাদ করতে সাহায্য করবে।

ফ্লিপকার্ট জানিয়েছে যে, গ্রোসারি শপিংয়ে AI ডেভেলপমেন্টের জন্য তারা প্রায় ৫ মাস ধরে কাজ করেছিল। এমনকি দেশীয় ভাষাকে বুঝতে সংস্থা দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে ঘুরে বেরিয়েছে বলেও জানিয়েছে। ফ্লিপকার্ট একটি সার্ভেতে দেখেছে যে গ্রাহকরা মুখে বলে প্রোডাক্ট অর্ডার করতে আগ্রহী। আর এই কারণেই ফ্লিপকার্ট দেশীয় সংস্থা হিসাবে ইন্ডিয়া ফার্স্ট ইনোভেশন এর উপর জোর দিয়েছিল।