কল রিসিভ করলেও দিতে হবে টাকা, বন্ধ হতে পারে বিনামূল্যে ইনকামিং কলের সুবিধা

ভারতের সমস্ত টেলিকম কোম্পানি মোটামুটিভাবে তাদের নতুন প্ল্যান সামনে এনেছে, যেখানে গ্রাহকদের খরচ কয়েকগুন বেড়ে যাবে। তবে গ্রাহকদের জন্য হয়তো সবচেয়ে বড়ো ঝটকা এখনো আসতে বাকি । টেলিকম বিশেষজ্ঞদের মত কিন্তু তেমনই। আসলে জিওর পর ভোডাফোন-আইডিয়াও ও আউটগোয়িং কলের জন্য আইইউসি চার্জ লাগু করেছে। এরজন্য এই দুই কোম্পানি তাদের প্ল্যানে ১,০০০ অফ নেট মিনিট অফার করছে, যাতে গ্রাহকরা অন্য নেটওয়ার্কে কল করার জন্য ৬ পয়সা প্রতি সেকেন্ড  না দিয়েই কল করতে পারে।

এসবিআই ক্যাপিটাল সিকিওরিটির প্রধান গবেষক রাজীব শর্মা জানিয়েছেন, এর আগে জিও অন্যান্য নেটওয়ার্কের কলগুলিতে আইইউসি চার্জের আওতায় প্রতি মিনিটে ৬ পয়সা চার্জ নিতে শুরু করে এবং এখন ভোডাফোন-আইডিয়া ও এই চার্জ নিতে শুরু করেছে। তিনি জানিয়েছেন, আগের মতোই ফের গ্রাহকদের ভয়েস কলের জন্য খরচ করতে হচ্ছে। ফলে অবাক হওয়ার কিছু নেই যদি কোম্পানিরা ইনকামিং কলের উপর ও চার্জ নিতে শুরু করে।

আমরা জানি আগে রোমিং কলের জন্য যে কল করতো এবং যাকে করা হতো, দুজনের থেকেই চার্জ নেওয়া হতো। এবার এই নিয়মই সাধারণ কলের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য হলে গ্রাহকদের কিছু বলার থাকবেনা।

সুবিধা পাবে জিও গ্রাহকরা :

টেলিকম বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, ডিসেম্বরের ৬ তারিখে জিও যখন তার নতুন ট্যারিফ ঘোষণা করবে তখন এটি তার প্রতিদ্বন্দ্বী সংস্থাগুলির চেয়ে গ্রাহকদের আরও বেশি সুবিধা দিতে পারে। সংস্থাটি এর আগেও বলেছিল যে আমরা অন্যান্য সংস্থাগুলির তুলনায় ২০ শতাংশ কম ট্যারিফ দেব, আর সুবিধাও ৩০০ শতাংশ বৃদ্ধি পাবে।

এছাড়াও জিওর কাছে একটি বড়ো সংখ্যক গ্রাহক আছে, যার মধ্যে ৯০ শতাংশ প্রিপেড গ্রাহক। অর্থাৎ কোম্পানি চাইলে প্রতি কাস্টমার থেকে কম লাভ রেখেও মুনাফা করতে পারে। কিন্তু ভোডাফোন-আইডিয়া ও এয়ারটেলের মোট গ্রাহকের প্রায় ৩০ শতাংশ পোস্টপেড গ্রাহক, ফলে তাদের জন্য দাম বাড়ানো ছাড়া অন্য পথ খোলা নেই।

সমস্ত খবরের আপডেট পেতে এখানে লাইক দিন!