৩১ জানুয়ারির পর সমস্ত ফোনে পাবেন অ্যান্ড্রয়েড ১০, ঘোষণা গুগলের

  

বিশ্বের সবচেয়ে বড়ো সার্চ জায়ান্ট, Google গতমাসেই তাদের নতুন মোবাইল অপারেটিং সিস্টেম, অ্যান্ড্রয়েড ১০ আনুষ্ঠানিক ভাবে লঞ্চ করেছিল। সেইমুহূর্তে এই অপারেটিং সিস্টেম কেবল Pixel এবং Essential ফোনের জন্য উপলব্ধ ছিল। কোম্পানি ওই ইভেন্টে এও ঘোষণা করেছিল যে শীঘ্রই এন্ট্রি লেভেলের স্মার্টফোনের জন্য Android 10 Go Edition পেশ করা হবে। এছাড়াও জানানো হয়েছিল ৩১ জানুয়ারী ২০২০ এর পর আসা সমস্ত স্মার্টফোন অ্যান্ড্রয়েড ১০ দ্বারা চালিত হবে। নতুন করে কোনো ফোনের জন্য আর অ্যান্ড্রয়েড ৯ পাই অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহার করা হবেনা। এমনকি পুরানো ফোনগুলোকেও যত তাড়াতাড়ি সম্ভব নতুন অপারেটিং সিস্টেমের আপডেট দেওয়া হবে।

সেই সূত্র মেনেই XDA Developers তাদের রিপোর্টে জানিয়েছে, যে সমস্ত ফোন ৩১ জানুয়ারী ২০২০ এর পর লঞ্চ হবে তারা অ্যান্ড্রয়েড ১০ অপারেটিং সিস্টেমে রান করবে। যদিও এর জন্য কোম্পানিগুলোর গুগলের থেকে অনুমতি নিতে হবে। যেহেতু গুগল স্পষ্ট করেছে যে, তারা ২০২০ এর পর আর কোনো ফোনের জন্য অ্যান্ড্রয়েড ৯ পাই এর অনুমোদন দেবেনা, সেহেতু কোম্পানিগুলো বাধ্য থাকবে তাদের ফোনে Android 10 ব্যবহার করতে ।

Amazon প্রোডাক্ট কিনতে এখানে ক্লিক করুন

অ্যান্ড্রয়েড ১০ কিভাবে বদলে দেবে আপনার স্মার্টফোনকে :

ইমপ্রুভড প্রাইভেসি :

অ্যান্ড্রয়েড,আইওস এর সিক্যুরিটি নিয়ে অনেকদিন ধরে যে সমালোচনা তা বন্ধ করতে অ্যান্ড্রয়েড ১০ এর প্রাইভেসির উপর বিশেষ গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। এই নতুন অ্যান্ড্রয়েড ভার্সনে বিশেষ কিছু আ্যপের উপর পারমিশন নিয়ন্ত্রণ এর অপশন আনা হয়েছে এবং সিকিউরিটি বাড়ানোর জন্য সেই আ্যপ কতক্ষন সক্রিয় থাকবে তাও নিয়ন্ত্রন করা যাবে। তার সাথে বিভিন্ন আ্যপের ব্যাকগ্রাউন্ড এক্টিভিটিও নিয়ন্ত্রণ করা যাবে। যার ফলে ইউজাররা কোন আ্যপের হঠাৎ পপ আপ হওয়া বন্ধ করতে পারবে।

স্ক্রিন রেকডিং :

Android 10 ভার্সনে গুগল শেষপর্যন্ত বহু প্রতীক্ষিত স্ক্রিন রেকডিং এর অপশন নিয়ে আসল,আগে মূলত থার্ড পার্টি আ্যপের মাধ্যমে যা সম্ভব ছিল।এই স্ক্রিন রেকর্ডিং অপশনটি ডেভেলপার অপশনের মধ্যে পাওয়া যাবে,এবং প্রাথমিকভাবে এটি সক্রিয় করার পদ্ধতি বেশ জটিল। কিন্তু নিঃসন্দেহে এই নতুন ফিচারটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ যার ফলে কোন আ্যপ ছাড়াই স্ক্রিনে চলা কোন ভিডিও রেকর্ড করা যাবে।

ডেস্কটপ মোড :

এই অ্যান্ড্রয়েড ভার্সনে ডেস্কটপ মোড পাওয়া যাবে। এরফলে আপনি আপনার মোবাইলকে যেকোনো কম্পিউটার বা ল্যাপটপে কানেক্ট করতে পারবেন। এরপর আপনার ফোনের ইন্টারফেস কম্পিউটার বা ল্যাপটপে দেখা যাবে। আপনাকে জানিয়ে রাখি ডেস্কটপ মোডের জন্য স্যামসাং তাদের ফোনে DeX এর সাপোর্ট দিচ্ছে।

শেয়ার শর্টকাট :

অ্যান্ড্রয়েডের নতুন ভার্সনে কোনো লিংককে শেয়ার করার মেনুর বদল ঘটানো হয়েছে। লিংক শেয়ারের জন্য শেয়ারিং শর্টকাট ও পাবেন। এরফলে আপনি দ্রুত কোনো ফাইল শেয়ার করতে পারবেন।

লাইভ ক্যাপশন :

অ্যান্ড্রয়েড ১০ তে আপনি কোনো ভিডিও দেখতে দেখতে ক্যাপশন লিখতে পারবেন। উদাহরণ স্বরূপ আপনি যদি ফেসবুকে লাইভে আসেন এবং ভিডিওতে কিছু লিখতে চান তবে এই ফিচারের মাধ্যমে লিখতে পারবেন।

ডুয়েল সিম স্ট্যান্ডবাই :

অ্যান্ড্রয়েডের নতুন ভার্সনে আপনি দুটো সিম একসাথে চালাতে পারবেন। দুটো সিম বলতে আমরা ই-সিম ও ফিজিক্যাল সিমের কথা বললাম। ই-সিমের গুরুত্ব বুঝে কোম্পানি এই ফিচার যুক্ত করেছে।

ডার্ক মোড :

অ্যান্ড্রয়েড ইউজাররা বহু বছর ধরে ডার্ক মোডের জন্য আবেদন করলেও কোন আপডেটে তা আসেনি। কিন্তু অ্যান্ড্রয়েড ১০ বেটার ডিসপ্লে অপশনে ডার্ক মোড সক্রিয় করা যাবে। যার ফলে সেটিংস, লঞ্চার, ভলিউম কন্ট্রোল এবং আরো অনেক কিছুতে সেই ডার্ক মোড সক্রিয় থাকবে।

Amazon থেকে প্রোডাক্ট কিনতে এখানে ক্লিক করুন

সব খবর পড়তে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যুক্ত হোন – এখানে ক্লিক করুন

সব খবর পড়তে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যুক্ত হোন – এখানে ক্লিক করুন