কোন অ্যাপ কি ডেটা নেবে নির্ধারণ করবেন আপনি, অ্যান্ড্রয়েডে আসছে অ্যান্টি-ট্র্যাকিং ফিচার

google-may-adds-anti-tracking-feature-on-android

নিজেদের সেরা প্রতিপন্ন করার চেষ্টায় মাঝে-মধ্যেই Apple, Google -এর মত টেক জায়ান্ট সংস্থাগুলি পরস্পরের সাথে দ্বন্দ্বে মেতে ওঠে; চলে উন্নত এবং নতুন ফিচার সরবরাহ করার প্রতিযোগিতাও। কিন্তু এবার, Apple-এর জুতোয় পা গলিয়েই কিস্তিমাত করতে পারে Google! সাম্প্রতিক রিপোর্ট অনুযায়ী, Google এখন Apple-এর পদাঙ্ক অনুসরণ করে অ্যান্টি-ট্র্যাকিং (Anti- tracking) ফিচারের একটি নিজস্ব সংস্করণ আনতে কাজ করছে। সংবাদমাধ্যম ব্লুমবার্গের মতে, ইন্টারনেট জায়ান্ট সংস্থাটি, অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমে ক্রস-অ্যাপ ট্র্যাকিং ফিচারটি কীভাবে কাজ করবে এবং ফিচারটির জন্য কতটা পরিমিত ডেটা সংগ্রহ করতে হবে – সে বিষয়ে আলোচনা করছে। সেক্ষেত্রে Google-এর এই নতুন ফিচারটি Apple-এর উক্ত বৈশিষ্ট্যের থেকে সহজ সরল নিয়মে চলবে বলে মনে করা হচ্ছে।

আসলে গুগল (Google), ডেভেলপার এবং বিজ্ঞাপনদাতাদের আর্থিক প্রয়োজনের সাথে সাথে গোপনীয়তা সম্পর্কে সচেতন গ্রাহকদের ক্রমবর্ধমান চাহিদার ভারসাম্য বজায় রাখার চেষ্টা করছে। গুগলের এক মুখপাত্র এই বিষয়ে জানিয়েছেন যে, তারা সবসময় ডেভেলপারদের সাথে নির্ঝঞ্ঝাট ভাবে কাজ করার এবং বিজ্ঞাপন-সমর্থিত অ্যাপ্লিকেশন ইকোসিস্টেমকে সক্ষম করার উপায় সন্ধান করতে থাকে। এই নতুন ফিচারটিও সংস্থার এই ধরণের পদক্ষেপের অংশ হতে চলেছে।

এই প্রসঙ্গে বলে রাখি, গত ডিসেম্বরে Apple, তার আইওএস ১৪.৫ (iOS 14.5) এবং আইপ্যাডওএস আপডেটের সাথে অ্যাপ ট্র্যাকিং ট্রান্সপারেন্সি নামে একটি নতুন ফিচার যুক্ত করেছে। এই ফিচারটি গ্রাহকদের কোনো অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করার সময় তাদের সম্পর্কে অ্যাপটি কতটা ডেটা সংগ্রহ করতে পারবে নির্ধারণ করতে পারবেন। সেক্ষেত্রে মনে করা হচ্ছে, অ্যাপলের এই নতুন ফিচার প্রবর্তনের পরপরই সমগ্র ডিজিটাল বিজ্ঞাপন শিল্প এই ধরণের ফিচারের প্রয়োজনীয়তা অনুভব করতে শুরু করেছে। যদিও ফেসবুক এবং অন্যান্য সংস্থাগুলি অভিযোগ করেছে যে এই বৈশিষ্ট্যটি ব্যক্তিগত বিজ্ঞাপনগুলি কার্যকরভাবে পরিবেশন করবে এবং তাদের রেভেনিউ সীমাবদ্ধ করবে।

সেক্ষেত্রে গুগলের এই অ্যান্টি-ট্র্যাকিং ফিচারটি Apple-এর ফিচারটির তুলনায় অনেকটাই কম কঠোর হবে বলে মনে হচ্ছে। এছাড়াও এই ফিচারে অ্যাপলের মতো ডেটা ট্র্যাকিংয়ের জন্য প্রম্প্টের প্রয়োজন হবে না। তবুও গুগলের এই নতুন পদক্ষেপটি আগামী দিনে অ্যান্ড্রয়েড প্ল্যাটফর্মে বেশ খানিকটা পরিবর্তন আনবে এমনটা আশা করাই যায়!

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন