স্মার্টফোনে ইন্সটল থাকা অ্যাপের তথ্য নিতে পারবে না অন্য অ্যাপ, গুগল প্লে সার্ভিসে নতুন নিয়ম চালু

google-wants-to-block-apps-from-accessing-other-apps-on-android

দিন চারেক আগেই অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসে ডেটা অ্যাক্সেসিংয়ের জন্য বেশ খানিকটা অস্বস্তিতে পড়েছে টেক জায়ান্ট গুগল (Google); কারণ সাম্প্রতিক একটি রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে যে এটির অ্যান্ড্রয়েড ওএস, আইওএস ডিভাইসের তুলনায় ২০% বেশি ইউজারের ডেটা সংগ্রহ করে। সেক্ষেত্রে গুগল এই জাতীয় দাবিকে নাকচ তো করেছেই, পাশাপাশি জনপ্রিয় মার্কিনি কোম্পানিটি এবার অ্যাপ ডেটা অ্যাক্সেস সংক্রান্ত বিষয়ে নিজের গুগল প্লে সার্ভিসে নতুন নিয়ম চালু করার কথা জানিয়েছে। আসলে, আমাদের মধ্যে অনেকেই জানি না যে, স্মার্টফোনে ইন্সটল থাকা প্রতিটি একক অ্যাপ্লিকেশন – অন্যান্য অ্যাপ্লিকেশন সম্পর্কে অবহিত থাকে এবং আমাদের অজান্তেই এগুলি সেই সব অ্যাপ থেকে ইউজারের পছন্দ-অপছন্দ, ব্যাংকিং ডিটেইলস, রাজনৈতিক সম্পর্ক, এমনকি পাসওয়ার্ড পরিচালনার মত একাধিক সংবেদনশীল তথ্য অ্যাক্সেস করতে পারে। তাই এই সিস্টেমে বদল আনতেই আগামী ৫ই মে থেকে প্লে স্টোরে নতুন নিয়ম চালু করছে Google।

অবগতির জন্য জানিয়ে রাখি, অ্যান্ড্রয়েড ১১ আপডেটের পর থেকেই সমস্ত অ্যাপ্লিকেশনই ওএসের API (অ্যাপ্লিকেশন প্রোগ্রামিং ইন্টারফেস) লেভেল বাড়ানোর জন্য ইউজারদের থেকে ‘ক্যোয়ারীঅলপ্যাকেজ’ পারমিশন চায়, যার ফলে এগুলি ডিভাইসে থাকা অ্যাপ্লিকেশনগুলির সম্পূর্ণ তালিকা দেখতে পায় এবং সেগুলির তথ্য অ্যাক্সেস করতে পারে। সেক্ষেত্রে, অ্যাপ্লিকেশনগুলির সমস্ত পারমিশন ব্যবহার করে এমন নজরদারি চালানোর বিষয়টিকে সীমাবদ্ধ করতে Google এখন তার ডেভেলপার প্রোগ্রাম পলিসি আপডেট করতে চলেছে।

আর্স্টেকনিকা (Arstechnica)-র রিপোর্ট অনুযায়ী, Google, অ্যাপ ডেভেলপারদের কাছে জানতে চেয়েছে যে কেন সংস্থা প্লে স্টোরে উপলব্ধ অন্যান্য অ্যাপ্লিকেশনগুলির অ্যাক্সেস তাদের সাথে শেয়ার করবে; এক্ষেত্রে একটি আপডেটের মাধ্যমে, এই বিষয়ে অ্যাপ ডেভেলপারদের যথাযথ যুক্তি পেশ করতে বলেছে প্রযুক্তি সংস্থাটি। যে সব অ্যাপ্লিকেশন এই নতুন নীতিমালার মানদণ্ড পূরণ করতে ব্যর্থ হবে বা Google-এর প্রশ্নের কোনো উত্তর দেবে না এগুলি প্লে স্টোর থেকে অপসৃত হতে পারে বলে জানানো হয়েছে। তাছাড়া অ্যাপের এই ধরণের কার্যকারিতায় সম্প্রতি পরিবর্তন আনলে সেক্ষেত্রেও ডেভেলপারকে জবাবদিহি করতে হবে। এমনকি প্রয়োজনে এই সব অ্যাপ ডেভেলপারের অ্যাকাউন্টটিকেও ব্যান করা হতে পারে বলে রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে।

তবে এই নিয়মে কিছু ব্যতিক্রমকেও স্থান দিয়েছে গুগল। এক্ষেত্রে, যে সব অ্যাপ্লিকেশন (যেমন ব্যাংকিং বা ফিনান্সিয়াল অ্যাপ) লঞ্চ, সার্চ বা ডিভাইসে থাকা অন্য সব অ্যাপ্লিকেশনের সাথে আন্তঃব্যবহারের সম্পর্ক রাখে, সেগুলি নির্দিষ্ট সুরক্ষা বিধি মেনে স্কোপ-অ্যাপ্রোপ্রিয়েট ভিজিবিলিটি অর্থাৎ সুযোগ-উপযুক্ত দৃশ্যমানতা অর্জন করতে পারে বলে জানা গিয়েছে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন