ফেসবুকের থেকে ব্যবহারকারীদের তথ্য চাওয়ার ঘটনায় দ্বিতীয় স্থানে ভারত সরকার

users-data-from-facebook

বিশ্বব্যাপী ফেসবুকের কাছে ব্যবহারকারীদের ডেটা চাওয়ার ঘটনা উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে। গত বছর অর্থাৎ ২০১৯ সালে এই ঘটনা ৯.৫% বৃদ্ধি পেয়েছে। ফেসবুকের কাছে ডেটা চাওয়ার ঘটনায় ভারত দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে এবং আবার প্রথমে আছে আমেরিকা। ফেসবুকের জারি করা ট্রান্সপারেন্সি রিপোর্টে এই তথ্য সামনে এসেছে।

ফেসবুক তাদের রিপোর্টে জানিয়েছে, ২০১৯ সালে ব্যবহারকারীদের ডেটা চেয়ে ভারত সরকার ৪৯ হাজার আইনী ও জরুরি আবেদন ফেসবুক কে পাঠিয়েছিল। এর আগে ২০১৮ সালে ৩৭ হাজার আবেদন করা হয়েছিল। অন্যদিকে ফেসবুকের ভিপি এবং ডেপুটি জেনারেল কাউন্সেল ক্রিস সান্দার্বি বলেছেন যে, ২০১৯ সালের দ্বিতীয় কোয়ার্টারে বিশ্বব্যাপী সরকারগুলি ফেসবুকের কাছ থেকে ডেটা চাওয়ার আবেদন ৯.৫ শতাংশ বাড়িয়েছে। আগে যেখানে এই ধরণের অনুরোধের সংখ্যা ছিল ১,২৮,৬১৭, তা এখন বেড়ে দাঁড়িয়েছে১,৪০,৮৭৫ এ । আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্র, ভারত, জার্মানি এবং ফ্রান্স এর মত দেশ সর্বাধিক ডেটা চেয়েছে।

এবার আপনি প্রশ্ন করতে পারেন, আইনি ও জরুরি আবেদনের পার্থক্য কি? আপনাকে জানাই সরকার দুইভাবে এই ডেটা চেয়েছে। যার একটি সম্পূর্ণ আইন মেনে। আরেকটি হল কোনও ধরনের সঙ্কটের ক্ষেত্রে কোনও আইনি প্রক্রিয়া ছাড়াই জরুরি অনুরোধ পাঠানো হয়েছে।

ফেসবুক তার অফিসিয়াল ব্লক পোস্টে বলেছে যে জরুরি পরিস্থিতিতে সরকার আইনী প্রক্রিয়া ছাড়াই ডেটা চেয়ে অনুরোধ পাঠাতে পারে। পরিস্থিতি বুঝে আমরা সরকারকে তথ্য দিয়ে থাকি।