সাবধান! ডার্ক ওয়েবে লক্ষ লক্ষ টাকায় বিক্রি হচ্ছে এই অ্যাপের প্রাইভেসি এবং সিকিউরিটি বাগ

বর্তমান সময়ে সবচেয়ে জনপ্রিয় ভিডিও মিট অ্যাপ হলো জুম (Zoom)। তবে যখনই কোনো অ্যাপ জনপ্রিয়তা পায় তখনই হ্যাকার চেষ্টা করে সেটি ব্যবহার করে লোক ঠকাতে। জুমের জনপ্রিয়তা আপনাকে এভাবে বললে বুঝতে পারবেন যে, এটি ভারতে হোয়াটসঅ্যাপ, টিকটক কে পিছনে ফেলেছে। লকডাউন চলার কারণেই এই ভিডিও মিটিং অ্যাপের জনপ্রিয়তা বেড়েছে।

তবে হ্যাকাররা প্রাইভেসি এবং সিকিউরিটি বাগের মাধ্যমে এই অ্যাপের থেকে রোজগার করতে শুরু করেছে। সম্প্রতি MotherBoard একটি হ্যাকারের সাক্ষাৎকার নেয়। সেই হ্যাকার জানিয়েছে ডার্ক ওয়েবে জুম অ্যাপের প্রাইভেসি ও সিকিউরিটি বাগ কেনার জন্য ৫,০০০ থেকে ৩০,০০০ ডলার খরচ করছে অনেকে।

এদিকে ভারতের কম্পিউটার ইমার্জেন্সি রেসপন্স টিম এবং দেশের সাইবার সুরক্ষা এজেন্সি গত বৃহস্পতিবার ভারতের জনগণকে জুম অ্যাপ্লিকেশনের সিকিউরিটি নিয়ে মানুষকে সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছে। তাদের মতামত জুম অ্যাপ সাইবার সিকিউরিটিগত হামলার একটি রাস্তা খুলে দিতে পারে। এই অ্যাপ্লিকেশনটি ব্যবহার করে সাইবার অপরাধীরা আপনার গুরুত্বপূর্ণ তথ্য চুরি করে সেগুলির দুর্ব্যবহার করতে পারে।

তাই এই সংস্থার তরফ থেকে সমস্ত জুম ব্যবহারকারীদের জানানো হয়েছে যেন তারা তাদের অ্যাপ্লিকেশনটি সবসময় আপ-টু-ডেট রাখেন এবং ব্যবহারকারীর পাসওয়ার্ড যেন একটি শক্তিশালী পাসওয়ার্ড হয়। এছাড়াও কোনো একটি মিটিংয়ে কজন মানুষ প্রবেশ করছে তার ওপর নজর রাখাও অত্যন্ত প্রয়োজন। ইতিমধ্যেই জানানো হয়েছে আগামী ৯০ দিনের মধ্যে নতুন সিকিউরিটি প্যাচ নিয়ে আসার মাধ্যমে এই অ্যাপ্লিকেশনটির সিকিউরিটিগত সমস্ত সমস্যা দূর করা হবে।