করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করা স্বাস্থ্যকর্মীদের ফোন বিনামূল্যে রিপেয়ার করে দেবে স্যামসাং ও গুগল

healthcare-workers-can-repair-their-samsung-and-google-phone-free-till-30-june

Samsung এবং গুগলের মতো দুই বড় টেক কোম্পানি এবার করোনা ওয়ারিয়র্সদের সাহায্য করতে এগিয়ে আসলো। স্যামসাং এবং গুগল জানিয়েছে যে, স্বাস্থ্যকর্মীদের স্মার্টফোন বিনামূল্যে মেরামত করে দেবে তারা। ইংরেজি ওয়েবসাইট দ্য ভার্জ অনুসারে, এই দুটি কোম্পানি মোবাইল মেরামত করার জন্য uBreakiFix এর সাথে হাত মিলিয়েছে। স্বাস্থ্যকর্মীদের ফোনে যদি সমস্যা হয়, তবে তাদেকে ইউব্রেকআইফিক্স এর কোনো সেন্টারে যেতে হবে বা Galaxy ফোন থেকে ইমেল করতে হবে।

স্যামসাংয়ের ওয়েবসাইট থেকে ফোন কিনলেও ৩০ শতাংশ ছাড়ও পাওয়া যাবে, তবে এই অফারটি কেবল স্বাস্থ্যকর্মী এবং করোনা ওয়ারিয়র্সদের জন্য। স্যামসাংয়ের ফ্রি মোবাইল রিপেয়ার প্রোগ্রামটির নাম দেওয়া হয়েছে ‘Free Repairs for The Frontline’। এই প্রোগ্রামের অধীনে, স্ক্রিন নষ্ট, ব্যাটারি রিপ্লেসমেন্ট এবং মোবাইলের অন্যান্য রিপেয়ার করা হবে। স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য ৩০ জুন পর্যন্ত এই অফার রয়েছে। গুগলের প্রোগ্রামটিও স্যামসাংয়ের মতো। Google Pixel ব্যবহার করা স্বাস্থ্যকর্মীরা আমেরিকার ইউব্রেকিফিক্সের যে কোনও কেন্দ্রে গিয়ে তাদের ফোনটি ফ্রি রিপেয়ার করতে পারেন। গুগলের প্রোগ্রামটিও ৩০ জুন পর্যন্ত বৈধ।

এর আগে রিয়েলমি, অপ্পো, নোকিয়া, টেকনো এবং আইটেলের মতো অনেক মোবাইল কোম্পানি তাদের ব্যবহারকারীদের ফোনের ওয়্যারেন্টি সময়কাল দুই মাস বাড়িয়েছিল। টেকনো এবং আইটেলে এর মূল সংস্থা ট্রেনশন হোল্ডিং এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, যে সব মোবাইল ব্যবহারকারীর ওয়্যারেন্টি ২০ মার্চ ২০২০-এর মধ্যে শেষ হচ্ছে তাদের ওয়্যারেন্টি ৩১ মে ২০২০ পর্যন্ত বাড়ানো হয়েছে। ওয়্যারেন্টি বাড়ানোর জন্য গ্রাহকদের কিছু করার দরকার নেই।

এদিকে এইচএমডি গ্লোবালের তরফে বলা হয়েছে নোকিয়া স্মার্টফোন ব্যবহারকারীরা অতিরিক্ত ৬০ দিন ওয়ারেন্টি পাবে। যদি আপনি Nokia ফোন ব্যবহারকারী হন এবং ওয়ারেন্টি ১৫ মার্চের পর শেষ হয়, তাহলে চিন্তা করার প্রয়োজন নেই। কারণ কোম্পানি আপনার ওয়ারেন্টি বাড়িয়ে ১৫ মে করে দিয়েছে।