ভারতের তৈরী ফোন চীনে পাঠানোর স্বপ্ন, চীন থেকে ব্যবসা গুটিয়ে ভারতে আসছে লাভা

ভারত সরকার ‘স্বনির্ভর ভারত’ এবং ‘লোকাল কেলিয়ে ভোকাল’ এর উপর জোর দেওয়ায় চীন থেকে ব্যবসা গোটাচ্ছে লাভা ইন্টারন্যাশনাল। কোম্পানিটি শুক্রবার ঘোষণা করেছে তারা চীন থেকে ব্যবসা গুটিয়ে ভারতে নিয়ে আসবে। এছাড়াও আগামী পাঁচ বছরের জন্য তারা ভারতে ৮০০ কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে। এই বিনিয়োগ কোম্পানি দেশে মোবাইল ফোন বিকাশ ও উৎপাদনের জন্য করবে বলে জানা গেছে।

কোম্পানির তরফে জানানো হয়েছে, “চীনের আমাদের প্রায় ৬০০-৬৫০ জন কর্মী ছিল, যারা প্রোডাক্ট ডিজাইন করতো। এখন আমরা ভারতে ডিজাইনিং ক্ষেত্রটি নিয়ে চলে আসছি। ভারতে যে পরিমান ফোন আমাদের বিক্রি হয় তা স্থানীয় প্ল্যান্ট পূরণ করতে পারবে।” এদিকে লাভা আন্তর্জাতিক চেয়ারম্যান এবং ব্যবস্থাপনা পরিচালক হরি ওম রাই পিটিআইকে বলেছেন, “আমরা আংশিকভাবে বিশ্বব্যাপী চীন থেকে মোবাইল ফোন রফতানি করতাম, যা এখন ভারত থেকে হবে।”

আপনাকে জানিয়ে রাখি লকডাউন সময়ে লাভা চীন থেকে তার রফতানির চাহিদা পূরণ করেছে। হরি ওম রাই আরও জানিয়েছেন, “আমার স্বপ্ন চীনে মোবাইল ডিভাইস রফতানি করা। ভারতীয় সংস্থাগুলি ইতিমধ্যে চীনে মোবাইল চার্জার রফতানি করছে। সুতরাং ভারত থেকে এখন পুরো অভিযান পরিচালিত হবে।”

এপ্রিল মাসে সরকার স্থানীয় ইলেক্ট্রনিক্স উৎপাদন বৃদ্ধিতে এবং ২০২৫ সালের মধ্যে ২০ লক্ষ প্রত্যক্ষ ও অপ্রত্যক্ষ চাকরির জন্য প্রায় ৪৮,০০০ কোটি টাকার তিনটি প্রকল্পের কথা জানিয়েছিল। এই প্রকল্পের ইনসেনটিভ স্কিমের কথাও বলা ছিল। এই প্রকল্পের আওতায় ইলেকট্রনিক্স উত্পাদনকারী সংস্থাগুলি ৪-৬ শতাংশ ইনসেনটিভ পাবে যদি তারা বছর বছর সেল বাড়াতে পারে। লাভা এই প্রকল্পের সুবিধা নিতেই ভারতে বিনিয়োগ করতে শুরু করেছে।