মাহিন্দ্রা নিয়ে আসছে সবচেয়ে সস্তা বৈদ্যুতিক গাড়ি, জানুন দাম ও লঞ্চের তারিখ

বর্তমানে পরিবেশ দূষণের কারণে বহু মানুষ ইলেকট্রিক চালিত যানের দিকে পা বাড়াচ্ছেন। এই ধরনের ইলেকট্রিক চালিত গাড়ি অথবা বাইক ব্যবহারের অনেক সুবিধা রয়েছে। এই ধরনের বাইক অথবা গাড়ি মেইনটেইন করা অনেক সুবিধাজনক। এই গাড়ি চালানোর খরচ অনেকটাই কম। তাই বর্তমানে ভারতের নামকরা কোম্পানিগুলি ইলেকট্রিক চালিত গাড়ি অথবা বাইক তৈরির দিকে নজর দিচ্ছে। এই দৌড়ে পিছিয়ে নেই জনপ্রিয় গাড়ির কোম্পানি মাহিন্দ্রাও।

মাহিন্দ্রার স্করপিও অথবা বোলেরোর নাম শোনেনি এরকম মানুষ খুব কম। তবে এবার মাহিন্দ্রা নিয়ে আসতে চলেছে আপনাদের জন্য বৈদ্যুতিক গাড়ি। ‌চলতি অর্থবর্ষে মাহিন্দ্রা ইলেক্ট্রিক তিনটি নতুন যান লঞ্চ করতে চলেছে। এদের মধ্যে অন্যতম হলো Mahindra Atom। ইলেকট্রিক কোয়াড্রাইসাইকেলের জগতে এটি একটি নতুন সংযোজন। এই বছরের শেষের দিকে এটিকে লঞ্চ করা হবে। লঞ্চের আগে কোম্পানি এই গাড়িটির একটি টিজার ভিডিও লঞ্চ করে Mahindra Atom electric এর কিছু বিশেষ ফিচার আমাদেরকে জানিয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে ইন্টেরিয়র স্পেস এবং অনেক বেশি কমফোর্ট। আসুন মাহিন্দ্রা এটম ইলেকট্রিক গাড়ির ব্যাপারে জেনে নিই।

Mahindra Atom electric এর দাম :

প্রথমে আসা যাক দামের ব্যাপারে। এই গাড়িটি হতে চলেছে ভারতের সর্বপ্রথম বিদ্যুৎচালিত কোয়াড্রিসাইকেল। এই গাড়িটির এক্স শোরুম প্রাইস ৩ লক্ষ টাকা হতে পারে‌। তবে আমরা এখনো জানিনা এই গাড়িটির প্রাইস রেঞ্জ ঠিক কি রকম থাকবে। তবে মনে করা হচ্ছে এটি একটি লো বাজেট গাড়ি হবে। এবং আপনার বাজেট যদি খুবই কম থাকে এবং আপনি যদি পেট্রোল বা ডিজেল চালিত গাড়ি না কিনতে চান, তাহলে এই গাড়ি হতে পারে আপনার সবথেকে ভালো চয়েস।

Mahindra Atom electric এর ডিজাইন :

ডিজাইনের দিক থেকে এই ছোট গাড়িটি বেশ ভালো। এই গাড়িটিকে এবছর ফেব্রুয়ারিতে অনুষ্ঠিত হাওয়া অটো এক্সপোতে প্রথমবারের জন্য সামনে নিয়ে আসা হয়েছিল। এই গাড়িটিকে নিয়ে মাহিন্দ্রা কোম্পানির আশা যে, গাড়িটি ইলেকট্রিক গাড়ির জগতে বেশ সফল হবে। এই গাড়িতে আকর্ষণীয় ডিজাইন এলিমেন্ট দেওয়া হয়েছে। এরমধ্যে রয়েছে ক্লিয়ার লেন্স হ্যান্ড ল্যাম্প, বডি কালার আউটসাইড রিয়ার ভিউ মিরর। এছাড়াও আপনারা পাচ্ছেন ফ্রন্ট এবং রিয়ার বাম্পার রিফ্লেক্টর স্ট্রিপ, বড় উইন্ডশীল্ড, ট্রিপল পড টেল ল্যাম্প এবং আরো অনেক কিছু।

দরজা এবং চারটি সিট :

মাহিন্দ্রা অ্যাটম গাড়িতে আপনারা পাবেন দুটি দরজা। এই গাড়িতে ড্রাইভার সহ ৪ জন বসতে পারবেন। সামনে কেবলমাত্র একটি ড্রাইভার সিট রয়েছে। পিছনে তিনজন ভালোভাবে বসতে পারবেন।

পাওয়ার ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম :

মাহিন্দ্রা অ্যাটমে ১৫ কিলোওয়াট এর ইলেকট্রিক মোটর এবং লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারি রয়েছে। কনসেপ্ট মডেলের মত এর প্রোডাকশন রেডি মডেল নিয়ে আসা হচ্ছে আর কিছুদিনের‌ মধ্যেই। এই প্রোডাকশন রেডি মডেল বাজারে বিক্রি করা হবে। আপনারা এই গাড়ির ব্যাটারি পরিবর্তন করতে পারবেন।

সর্বোচ্চ গতি এবং ব্যাটারি ম্যানেজমেন্ট :

এটি একটি বৈদ্যুতিক গাড়ি হবার দরুন এই গাড়ির সর্বোচ্চ গতি খুব একটা বেশী হবেনা। কোম্পানির তরফে জানানো হচ্ছে যে, এই গাড়ির টপ স্পিড হবে ৭০ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টা। আপনারা এর ব্যাটারি মাত্র ৪ ঘন্টার মধ্যে সম্পূর্ণ চার্জ করে নিতে পারবেন। আপনারা এই ব্যাটারির জন্য বিশেষ থার্মাল ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম পেয়ে যাবেন। এই থার্মাল ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম আপনাকে ব্যাটারি ভালোভাবে ব্যবহার করতে সাহায্য করবে।

টেকগাপের মেম্বাররা ও সদ্য যোগ দেওয়া লেখকরা এই প্রোফাইলের মাধ্যমে টেকনোলজির সমস্ত রকম খুঁটিনাটি আপনাদের সামনে আনে।