Mi 11 Lite এর প্রি-অর্ডার আজ থেকে শুরু, পাবেন ১৫০০ টাকা ডিসকাউন্ট

mi-11-lite-pre-orders-start-today-12pm-on-flipkart-and-mi-launch-offers-price-specs
এমআই ১১ লাইট এর প্রি-অর্ডার শুরু হচ্ছে

চলতি সপ্তাহে ভারতে লঞ্চ হয়েছিল Mi 11 Lite। আজ থেকে ফোনটির প্রি-অর্ডার (pre-order) শুরু হচ্ছে। কোম্পানির নিজস্ব সাইট Mi.com ছাড়াও Flipkart থেকে Mi 11 Lite প্রি-অর্ডার করা যাবে। কোম্পানির তরফে প্রি-অর্ডারকারীদের ১,৫০০ টাকা ডিসকাউন্ট অফার দেওয়া হবে। এছাড়াও রয়েছে ব্যাংক অফার। এমআই ১১ লাইট হল চলতি বছরে লঞ্চ হয় এখনও পর্যন্ত সবচেয়ে পাতলা (৬.৮মিমি) ও হালকা (১৫৭ গ্রাম) স্মার্টফোন। এছাড়া এই ফোনে আছে স্ন্যাপড্রাগন ৭৩২জি প্রসেসর, ৯০ হার্টজ AMOLED ডিসপ্লে ও ৪,২৫০ এমএএইচ ব্যাটারি।

Mi 11 Lite এর দাম ও প্রি-অর্ডার অফার

এমআই ১১ লাইট ভারতে দুটি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টে উপলব্ধ। এর ৬ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম ২১,৯৯৯ টাকা। আবার ২৩,৯৯৯ টাকা দাম ধার্য করা হয়েছে ৮ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের‌। এমআই ১১ লাইট জাজ ব্লু, টাস্কানি কোরাল এবং ভিনাইল ব্ল্যাক কালারে পাওয়া যাবে।

আজ দুপুর ১২টা থেকে Mi 11 Lite প্রি-অর্ডার করা যাবে। লঞ্চ অফার হিসেবে প্রি-অর্ডারকারীরা ১,৫০০ টাকা ডিসকাউন্ট পাবেন। আবার HDFC ব্যাংকের ক্রেডিট ও ডেবিট কার্ডধারীদের ইএমআই ট্রানজ্যাকশনে ১,৫০০ টাকা ছাড় দেওয়া হবে। ১,০০০ টাকা অফ পাবেন সাধারণ ট্রানজ্যাকশনে। Mi 11 Lite এর নো কস্ট ইএমআই শুরু হবে ৩,৩৬৭ টাকা থেকে।

Mi 11 Lite এর স্পেসিফিকেশন

এমআই ১১ লাইট ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ বেসড এমআইইউআই ১২ সিস্টেমে চলবে। এই ফোনের সামনে পাওয়া যাবে ৬০-৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট ও কর্নি গরিলা গ্লাস ৫ প্রোটেকশন সহ ৬.৫ ইঞ্চি ফুল এইচডি প্লাস (২৪০০ x ১০৮০ পিক্সেল) AMOLED পাঞ্চ হোল ডিসপ্লে। আবার পিছনে রয়েছে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ। এই ক্যামেরাগুলি হল এফ/১.৭৯ অ্যাপারচার সহ ৬৪ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স (এফ/২.২) ও ৫ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো সেন্সর (এফ/২.৪)। সেলফি ও ভিডিও কলের জন্য এমআই ১১ লাইট ফোনে এফ/২.৪৫ অ্যাপারচার সহ ১৬ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা পাওয়া যাবে।

Mi 11 Lite ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে অ্যাড্রেনো ৬১৮ জিপিইউ সহ স্ন্যাপড্রাগন ৭৩২জি প্রসেসর। ফোনটি ৮ জিবি পর্যন্ত র‌্যাম (LPDDR4X) ও ১২৮ জিবি পর্যন্ত স্টোরেজ সহ পাওয়া যাবে। মাইক্রো এসডি কার্ডের মাধ্যমে স্টোরেজ ৫১২ জিবি পর্যন্ত বাড়ানো যাবে। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য এই ফোনে ৪,২৫০ এমএএইচ ব্যাটারি আছে, যার সাথে ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে। ফোনটি সাইড মাউন্টেড ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর সহ এসেছে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

I'm magnetically attracted to everything that implies innovation... And Rock 'N Roll!