Mi 11X ও Mi 11X Pro ১০৮ মেগাপিক্সেল পর্যন্ত ক্যামেরা ও দুর্ধর্ষ ফিচার সহ ভারতে লঞ্চ হল

Mi 11x mi 11x Pro launched in India with triple rear camera snapdragon soc price specifications sale date

Mi 11X ও Mi 11X Pro প্রত্যাশামতোই আজ ভারতে লঞ্চ হল। “Into the Future” নামের একটি ভার্চুয়াল লঞ্চ ইভেন্টে Xiaomi ফোন দুটির ওপর থেকে পর্দা সরিয়েছে। এরমধ্যে এমআই ১১এক্স ফোনে আছে স্ন্যাপড্রাগন ৮৭০ প্রসেসর। আবার স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্রসেসর সহ এসেছে এমআই ১১এক্স প্রো। এছাড়া এই দুটি ফোনে পাওয়া যাবে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা, ১২০ হার্টজ রিফ্রেশ রেটের AMOLED ডিসপ্লে ও ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট সহ ৪,৫২০ এমএএইচ ব্যাটারি। জানিয়ে রাখি, Mi 11X ও Mi 11X Pro ফোন দুটি যথাক্রমে ফেব্রুয়ারিতে চীনে লঞ্চ হওয়া Redmi K40 ও Redmi K40 Pro+ এর রিব্র্যান্ডেড ভার্সন।

Mi 11X ও Mi 11X Pro এর দাম ও লভ্যতা

ভারতে শাওমি এমআই ১১এক্স এর দাম শুরু হয়েছে ২৯,৯৯৯ টাকা থেকে। এই মূল্য ফোনটির ৬ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজের। আবার এর ৮ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজের দাম ৩১,৯৯৯ টাকা। ফোনটি কসমিক ব্ল্যাক, ফ্রস্টি হোয়াইট ও সেলেস্টিয়াল সিলভার কালারে পাওয়া যাবে।

অন্যদিকে এমআই ১১এক্স প্রো এর ৮ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ এবং ৮ জিবি র‌্যাম ও ২৫৬ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজের দাম যথাক্রমে ৩৯,৯৯৯ টাকা ও ৪২,৯৯৯ টাকা। এই ফোনটিও Mi 11X এর মত একই কালার অপশনে পাওয়া যাবে।

আগামী ২৪ এপ্রিল Amazon ও mi.com থেকে ফোনগুলি প্রি অর্ডার করা যাবে। আবার এদের সেল শুরু হবে ২৭ এপ্রিল থেকে।

Mi 11X ও Mi 11X Pro এর স্পেসিফিকেশন

শুরুতেই বলে রাখি, এমআই ১১এক্স ও ১১এক্স প্রো কয়েকটি পার্থক্য ছাড়া প্রায় একই স্পেসিফিকেশন সহ এসেছে। দুটি ফোনেই পাওয়া যাবে কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫ সহ ৬.৬৭ ইঞ্চি E4 AMOLED ট্রু টোন ডিসপ্লে। এই ডিসপ্লের পিক্সেল রেজোলিউশন ১০৮০ x ২৪০০, আসপেক্ট রেশিও ২০:৯, স্ক্রিন টু বডি রেশিও ৯২.৬১ শতাংশ, রিফ্রেশ রেট ১২০ হার্টজ, টাচ স্যাম্পেল রেট ৩৬০ হার্টজ। এছাড়াও এই ডিসপ্লে DCI-P3 কালার গ্যামুট, এইচডিআর ১০প্লাস সাপোর্ট এবং ১৩০০নিটস পর্যন্ত ব্রাইটনেস অফার করবে। শুধু তাই নয়, ডিসপ্লেটি SGS Eye Care সার্টিফিকেশন প্রাপ্ত।

Mi 11X ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে স্ন্যাপড্রাগন ৮৭০ প্রসেসর। সাথে আছে এড্রনো ৬৫০ জিপিইউ। ফোনটি ৮ জিবি পর্যন্ত র‌্যাম ও ১২৮ জিবি স্টোরেজ সহ পাওয়া যাবে। অন্যদিকে এড্রনো ৬৬০ জিপিইউ ও কোয়ালকমের লেটেস্ট স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্রসেসর সহ চলবে Mi 11X Pro। এতে ৮ জিবি র‌্যাম ও ২৫৬ জিবি পর্যন্ত স্টোরেজ রয়েছে।

ফটোগ্রাফির জন্য দুটি ফোনের পিছনেই ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ উপলব্ধ। তবে এমআই ১১এক্স ফোনের ক্যামেরাগুলি হল OIS সাপোর্ট সহ ৪৮ মেগাপিক্সেল Sony IMX582 প্রাইমারি সেন্সর (এফ/১.৭৯), ৫০মিমি ফোকাল লেন্থ সহ ৫ মেগাপিক্সেল টেলিফোটো ম্যাক্রো ক্যামেরা, ১১৯ ডিগ্রি ফিল্ড অফ ভিউ সহ ৮ মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড লেন্স।

যেখানে এমআই ১১এক্স প্রো ফোনের প্রাইমারি ক্যামেরা হল ১০৮ মেগাপিক্সেল Samsung HM2 সেন্সর (এফ/১.৭৫)। এছাড়াও অন্য দুটি ক্যামেরা হল ৮ মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড লেন্স, ও ৫ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো লেন্স। সেলফি ও ভিডিওর কলের জন্য দুটি ফোনের সামনে আছে ২০ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা।

দুটি ফোনের পিছনের ক্যামেরা ১০৮০পি রেজোলিউশন ও ৯৬০ ফ্রেম পার সেকেন্ডে স্লো মোশন ভিডিও রেকর্ড করতে পারবে। এছাড়াও ৩০এফপিএস-এ 4K ভিডিও রেকর্ড করা যাবে। এই ক্যামেরায় ভ্লগ মোড, ম্যাজিক ক্লোন সহ একাধিক ফিল্টার বর্তমান। 

ফোন দুটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ বেসড এমআইইউআই ১২ কাস্টম স্কিনে চলবে। দুটি ফোনেই পাওয়া যাবে ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট সহ ৪,৫২০ এমএএইচ ব্যাটারি। আবার এতে ২.৫ ওয়াট রিভার্স চার্জিং সাপোর্ট করবে। চার্জিংয়ের জন্য এতে ইউএসবি টাইপ সি উপলব্ধ। ফোনগুলির অন্যান্য ফিচারের মধ্যে আছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ব্লুটুথ, ওয়াইফাই ৬, ডলবি অ্যাটমস সহ স্টেরিও স্পিকার, Hi-Res অডিও।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

Passionate techie. Professional tech writer. A true cricket fan. Julai is a senior editor For Techgup and has frequently written about smartphones, apps, telecom News. You can follow him on Twitter @Julai_Mondal.