লঞ্চ হল সবচেয়ে সস্তা ANC প্রযুক্তির Xiaomi Mi নেকব্যান্ড ব্লুটুথ ইয়ারফোনস প্রো

mi-neckband-bluetooth-earphones-pro-launched-price-in-india-rs-1799-sale-date.jpg

Mi পোর্টাবেল ব্লুটুথ স্পিকারের পাশাপাশি ভারতীয় গ্রাহকদের জন্য আজ Xiaomi নিয়ে এল এমআই নেকব্যান্ড ব্লুটুথ ইয়ারফোনস প্রো (Mi Neckband Bluetooth Earphones Pro)। সস্তায় লঞ্চ হওয়া এই ইয়ারফোনের বিশেষ ফিচারের কথা বললে, এতে আছে ডুয়াল নয়েজ ক্যান্সেলেশন (ANC এবং ENC), শক্তিশালী ব্যাস, ২০ ঘন্টা পর্যন্ত প্লেব্যাক টাইম, ঘাম ও জল প্রতিরোধী ব্যবস্থা, লে ল্যাটেন্সি অডিও প্রভৃতি।

Mi Neckband Bluetooth Earphones Pro দাম

এমআই নেকব্যান্ড ব্লুটুথ ইয়ারফোনস প্রো-র দাম রাখা হয়েছে ১,৭৯৯ টাকা। এটি ব্ল্যাক ও ব্লু কালার অপশনে পাওয়া যাবে। শাওমির এমআই স্টোর ওয়েবসাইট থেকে এটি এখন কেনা যাচ্ছে।

Mi Neckband Bluetooth Earphones Pro স্পেসিফিকেশন ও ফিচার

এই ইয়ারফোনে ব্যবহৃত শক্তিশালী ১০ মিমি ড্রাইভার্স শ্রবণকারীকে সেরা ব্যাসের অভিজ্ঞতা দেবে। কানের ভেতরে থাকা ওয়্যাক্সের ফলে অনেকসময় ইয়ারটিপস নোংরা হয়ে যায়। শাওমির নতুন ইয়ারফোন সেই সমস্যার প্রতিকার করবে। শাওমির দাবি, এর অ্যান্টি-ওয়াক্স ডিজাইন বাডসকে রাখবে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন। এছাড়াও, এর অ্যান্টি-ব্লকেজ স্পিকার নেট কোনো ছোট পদার্থকে ডিভাইসের ভেতরে আসার থেকে প্রতিহত করবে।

শাওমি ব্লুটুথ নেকব্যান্ড ইয়ারফোনটিতে ANC (Active Noise Cancellation) এবং ENC (Environmental Noise Cancellation) দ্বৈত প্রযুক্তি ব্যবহার করেছে। এএনসি বাটনে ক্লিক করলেই কোলাহলপূর্ণ পরিবেশ থেকে মুক্ত হয়ে মিউজিক উপভোগ করা যাবে। আবার ENC ফিচারটি ব্যবহারকারীকে ক্রিস্টাল ক্লিয়ার ভয়েসের অভিজ্ঞতা সরবরাহ করবে। উল্লেখ্য, এদেশে এত সস্তায় এএনসি প্রযুক্তির কোনো ইয়ারফোন পাওয়া যায় না।

ইয়ারফোনটিতে শাওমি ১৫০ এমএএইচ লিথিয়াম-আয়ন পলিমার ব্যাটারি ব্যবহার করেছে। যার স্ট্যান্ডবাই টাইম প্রায় ২০০ ঘন্টা এবং প্লেব্যাক টাইম প্রায় ২০ ঘন্টা। এটি সম্পূর্ণ চার্জ হতে সময় নেবে প্রায় ১.৫ ঘন্টা। ব্লুটুথ (ভার্সন ৫.০)-এর মাধ্যমে এটি আইফোন, অ্যান্ড্রয়েড, এবং উইন্ডোজ ডিভাইসের সাথে কানেক্ট করা যাবে। এর ওয়্যারলেস রেঞ্জ ১০ মিটার।

শাওমির এই নেকব্যান্ড ব্লুটুথ ইয়াহফোনস প্রো IPX5 রেটিং সহ এসছে। ফলে হালকা জল ও ঘাম লাগলেও এটি ঠিকমতো কাজ করবে। লো ল্যাটেন্সি অডিও সাপোর্ট থাকায় গেমিংপ্রেমীদের কাছে এটি আদর্শ হবে। সেইসঙ্গে এতে বিল্ট-ইন মাইক্রোফোনের সাথে ভয়েস অ্যাসিট্যান্ট সাপোর্ট পাওয়া যাবে। ভলিউম কন্ট্রোল এবং পাওয়ারের জন্য শাওমি এতে বাটন রেখেছে। পাওয়ার বাটন ব্যবহার করে কলের উত্তর দেওয়াও সম্ভব হবে।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন