মাইক্রোসফট কিনলেও ভারতে ব্যান থাকবে টিকটক, জানুন কেন

microsoft-tiktok-deal-know-these-6-important-things

ভারতে ব্যান হওয়ার পরেই চীনের সংস্থা ByteDance এর জনপ্রিয় অ্যাপ্লিকেশন TikTok চীন থেকে তাদের ব্যবসা সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার পরিকল্পনা করছিল। আপাতত যা খবর তাতে টিকটক মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে তাদের ব্যবসা সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। রিপোর্ট অনুযায়ী, Tiktok এর মার্কিনী অংশকে কিনে নিতে চলেছে টেকনোলজি জায়ান্ট Microsoft। তারা জানিয়েছে, বাইটড্যান্সের সঙ্গে তারা অন্তিম পর্যায়ের কথা বার্তা বলছে এই বিষয় নিয়ে।

মাইক্রোসফটের সিইও সত্য নাদেলা তার একটি ব্লগ পোস্টে লিখেছেন, যে তিনি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গেও বৈঠক করেছেন এই বিষয় নিয়ে। এই বৈঠকের পরই মাইক্রোসফট, TikTok এর মার্কিন অংশ কিনে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আসুন টিকটক ও Microsoft এর মধ্যে হওয়া ডিল সম্পর্কে কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য জেনে নিই।

১. মাইক্রোসফট জানিয়েছে, যে তারা খুব তাড়াতাড়ি বাইটড্যান্সের সঙ্গে তাদের TikTok অ্যাপের অধিগ্রহণ নিয়ে কথা বলবে এবং এই সমস্ত ডিল আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর এর মধ্যে শেষ হয়ে যাবে।

২. Microsoft-এর অধিগ্রহণের পর টিকটকের এই নতুন সার্ভিস কাজ করবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা অস্ট্রেলিয়া এবং নিউজিল্যান্ডে। অন্যান্য মার্কিন বিনিয়োগকারীরা মাইক্রোসফট এর সঙ্গে এই চুক্তিতে স্বাক্ষর করতে পারেন। তাদেরকে এই ডিল এর একটি সামান্য অংশ হিসেবে চিহ্নিত করা হবে।

৩. মার্কিন সরকার এবং টিকটকের কোম্পানি বাইটড্যান্সের সঙ্গে একসাথে Microsoft এই বিষয় নিয়ে কথা বলবে।

৪. মাইক্রোসফট আরো জানিয়েছে যে, টিকটকের মার্কিন ব্যবহারকারীদের সমস্ত ডেটা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যেই সীমিত থাকবে। শুধুমাত্র আমেরিকা নয়, বাকি যে দেশেই টিকটক কাজ করবে সেই দেশের ব্যবহারকারীদের ডেটা শুধুমাত্র সেই দেশেই সঞ্চিত থাকবে।

৫. সবশেষে মাইক্রোসফট জানিয়েছে যে, এখনও অবধি তাদের মধ্যে শুধুমাত্র প্রাথমিক আলোচনা হয়েছে। এই ডিল এখনও অবধি ফাইনাল করা হয়নি।

৬. যেহেতু মাইক্রোসফট, টিকটকের কেবল মার্কিন অংশ কিনবে তাই এর সাথে ভারতের কোনো সম্পর্ক নেই। ফলে স্পষ্ট বলা যায়, মাইক্রোসফট কিনলেই TikTok ভারতে ফিরবে না। বরং ভারত সরকার যে যে প্রশ্ন টিকটককে করেছে, সেগুলোর যথাযথ উত্তর মিললে তবেই টিকটক ফিরে আসতে পারে।