Redmi ও Poco ডিভাইসে কখন MIUI 12 আপডেট পাবেন, দেখুন তালিকা

MIUI 12 update in India timeline for Redmi and Poco devices

গত অগস্টেই Xiaomi ভারতে লঞ্চ করেছে তাদের অ্যান্ড্রয়েড ১০ বেসড কাস্টম ওএস MIUI 12। এমআইইউআই ১১ এর আপগ্রেড ভার্সন, এমআইইউআই ১২ কাস্টম স্কিনে নতুন অ্যানিমেশন, নতুন থিম, ডার্ক মোড ২.০, নতুন ক্যামেরা অ্যাপ, বিল্ট-ইন অ্যাপ ড্রয়ার সহ নতুন ইউজার ইন্টারফেস উপলব্ধ। ইতিমধ্যেই Redmi K20 Pro, Redmi K20 এবং Poco X2 ফোনে এই নতুন আপডেট চলে এসেছে। এছাড়াও শাওমির বহু ফোনে ভবিষ্যতে MIUI 12 আপডেট দেওয়া হবে। আসুন দেখে নেওয়া যাক কোন কোন Xiaomi স্মার্টফোনে কখন এই আপডেটটি পাওয়া যাবে।

Redmi ও Poco ডিভাইসে কখন MIUI 12 আপডেট পাবেন

  • Redmi Note 9 – সেপ্টেম্বর
    Redmi Note 9 Pro – সেপ্টেম্বর
    Redmi Note 8 – সেপ্টেম্বর
    Redmi Note 8 Pro – সেপ্টেম্বর
    Redmi Note 7 – সেপ্টেম্বর
    Redmi Note 7 Pro – সেপ্টেম্বর
    Poco M2 Pro – সেপ্টেম্বর
    Poco F1 – সেপ্টেম্বর বা অক্টোবর
    Redmi Note 7s – সেপ্টেম্বর বা অক্টোবর
    Redmi 8 – সেপ্টেম্বর বা অক্টোবর
    Redmi 8A Dual – সেপ্টেম্বর বা অক্টোবর
    Redmi 7 – অক্টোবর
    Redmi 7A – অক্টোবর
    Redmi 6 Pro – অক্টোবর
    Redmi 6 – অক্টোবর Redmi Y3 – ২০২০ এর শেষ কোয়ার্টার
    Redmi 6A – ২০২০ এর শেষ কোয়ার্টার
    Redmi Note 5 – ২০২০ এর শেষ কোয়ার্টার
    Redmi Note 5 Pro – ২০২১ এর প্রথম কোয়ার্টার
    Redmi Note 6 Pro – ২০২১ এর প্রথম কোয়ার্টার
  • MIUI 12 এর বিশেষ বিশেষ ফিচার

ইউজারের প্রাইভেসি

জানা গিয়েছে যে MIUI 12 নিয়ে এসেছে TUV Rheinland প্রমাণপত্র। এই প্রমাণপত্র সহযোগে কোম্পানির দাবি যে, এই কাস্টম স্কিন সমস্ত ব্যবহারকারী কে প্রিমিয়াম পর্যায়ের সিকিউরিটি দেবে। এতে ইউজার যখনই কোন অ্যাপ বা গেম ওপেন করবেন তখনই যে সমস্ত তথ্যর অ্যাক্সেস দেওয়া হয়েছে তাদের একটি নোটিফিকেশন ব্যবহারকারী পেয়ে যাবে।

ইউনিভার্সাল কাস্টিং টুল

এই টুলের মাধ্যমে আপনি আপনার শাওমি ফোন থেকে কোন বড় ডিসপ্লেতে যেকোন কিছু কাস্ট করতে পারবেন (চালাতে পারবেন) । এটির জন্য MiraCast কে ব্যবহার করা হয়। এটিতে আরেকটি সাব টুল থাকবে যার নাম প্রাইভেট কাস্টিং, যেটির মাধ্যমে আপনি লাইভ কাস্ট করতে করতে কল এবং মেসেজ রিসিভ করতে পারবেন।

টেক্সট রিকগনিশন

এই নতুন ফিচারের মাধ্যমে আপনারা যে কোন ছবি থেকে লেখা ক্যাপচার করতে পারবেন। আপনারা চাইলে এই লেখা নিজের পছন্দসই ভাষায় অনুবাদ করতে পারেন অন্য কোন অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে।

আল্ট্রা ব্যাটারি সেভার মোড

এই মোড এর সাহায্যে আপনি আপনার ফোন আগের তুলনায় আরও পাঁচ ঘন্টা বেশি ব্যবহার করতে পারবেন।

ভার্চুয়াল আইডেন্টিটি

এই ফিচারটির মাধ্যমে আপনার সমস্ত ব্যক্তিগত তথ্য সুরক্ষিত থাকবে এবং এটি আপনার ব্যক্তিগত তথ্য কে ভার্চুয়াল তথ্য দিয়ে গোপন করে রাখবে। আপনি চাইলে বেছে নিতে পারেন যেকোনো একটা ওয়েবসাইট ব্যবহার করার সময় আপনার সিস্টেমটি কোন কোন তথ্য শেয়ার করবে এবং আপনি আপনার অ্যাকাউন্টে সাইন ইন করে এই ফিচারটি ব্যবহার করতে পারেন যেরকম আপনি ফেসবুক বা গুগলে করে থাকেন।

সাউন্ড অ্যাসিস্ট্যান্ট

এই ফিচারটি সাহায্যে আপনি আপনার সমস্ত অ্যাপ যেরকম ফেসবুক, ইউটিউব, নেটফ্লিক্স অন্যান্য প্রয়োজনীয় অ্যাপ ( ও লাইভ স্ট্রিমিং অ্যাপ) গুলিতে আপনার ইচ্ছামত ভলিউম বাড়ানো কমানো করতে পারেন।

ফোকাস মোড

এই ফিচারটি সাহায্যে আপনি আপনার ফোনকে কুড়ি থেকে ১৮০ মিনিট পর্যন্ত ফোকাস মোডে রাখতে পারেন এবং তাতে আপনার মোবাইলে কোন অবাঞ্চিত নোটিফিকেশন আসলে তা নিজে থেকেই সাইলেন্ট হয়ে যাবে এবং আপনি নির্দ্বিধায় আপনার কাজ করে যেতে পারবেন।

ম্যাজিক ক্লোন ফিচার

এই ফিচারটির সাহায্যে আপনি আপনার ফোনে যখনই কোন ফটো বা ভিডিও তুলবেন, তখন সেগুলির সাথে তার একটি ক্লোন (বা কপি) ও আপনার ফোনে সেভ হয়ে যাবে।

কাস্টমাইজ অ্যানিমেশন

এই কাস্টম স্কিন একটি ফিজিক্যাল ইঞ্জিনের সঙ্গে আসবে, যার মাধ্যমে আপনি নিজের মতন করে অ্যানিমেশন গুলিকে কাস্টমাইজ করতে পারেন।

এছাড়াও আরো অনেক উল্লেখযোগ্য ফিচার আছে এই কাস্টম স্কিনে, যে গুলি হল – রিডিং মুড উইথ লিংক ডিসপ্লে টেক্সচার, স্ক্রিন ইউজেস এন্ড স্টেটস, পার্সোনালাইজড হেলথ অ্যাপ, পিআইপি ফিচার, এফিশিয়েন্ট মাল্টিটাস্কিং এবং ডার্ক মোড ফিচার।