Homeমোবাইলফ্রি আনলিমিটেড ডেটা ব্যবহারের সুযোগ, ৩০ হাজার টাকার কমে সেরা 5G ফোনগুলি আজই কিনুন

ফ্রি আনলিমিটেড ডেটা ব্যবহারের সুযোগ, ৩০ হাজার টাকার কমে সেরা 5G ফোনগুলি আজই কিনুন

রকেটের' গতির নেট সার্ভিসের স্বাদ পেতে চাইলে কিনে ফেলুন এই ৫ টি দুর্দান্ত 5G স্মার্টফোন

গত বছরের অক্টোবর মাসের গোড়ার দিকে ভারতে চালু হয়ে গিয়েছে 5G সার্ভিস। ইতিমধ্যেই দেশের বেশ কয়েকটি শহরের বাসিন্দাদেরকে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে এই দুরন্ত গতির নেট পরিষেবা ব্যবহারের সুযোগ দিয়েছে Reliance Jio এবং Bharti Airtel। ফলে এই বিদ্যুৎ গতির নেটওয়ার্ক অ্যাক্সেস করার জন্য হালফিলে অনেকেই কোনো নামজাদা কোম্পানির একটি ব্র্যান্ড-নিউ 5G স্মার্টফোন কিনতে আগ্রহী হয়ে উঠেছেন। সেক্ষেত্রে আপনিও যদি এই দলের অন্তর্ভুক্ত হন, তাহলে আমাদের আজকের এই প্রতিবেদনটি শুধুমাত্র আপনারই জন্য। কারণ আজ আমরা চলতি সময়ে ভারতের বাজারে ৩০,০০০ টাকার কমে উপলব্ধ ৫ টি ধামাকাদার 5G হ্যান্ডসেটের কথা আপনাদেরকে জানাতে চলেছি।

‘রকেটের’ গতির নেট সার্ভিসের স্বাদ পেতে চাইলে কিনে ফেলুন এই ৫ টি দুর্দান্ত 5G স্মার্টফোন

Redmi Note 12 Pro Plus 5G

বর্তমানে ফ্লিপকার্ট (Flipkart)-এ রেডমির এই ফোনটির ৮ জিবি + ২৫৬ জিবি স্টোরেজ মডেলের দাম ২৯,৯৯৯ টাকা। রেডমি নোট ১২ প্রো+ ৫জি-তে রয়েছে ৬.৬৭ ইঞ্চি ফুল এইচডি+ অ্যামোলেড ডিসপ্লে, যা ১২০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট, ২০:৯ অ্যাসপেক্ট রেশিও এবং ৯০০ নিট পিক ব্রাইটনেস অফার করে। মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ১০৮০ (MediaTek Dimensity 1080) প্রসেসর দ্বারা চালিত এই ডিভাইসটি অ্যান্ড্রয়েড ১২ (Android 12) ভিত্তিক এমআইইউআই ১৩ (MIUI 13) কাস্টম ইউজার ইন্টারফেসে রান করে।

Redmi Note 12 Pro Plus 5G

ক্যামেরার কথা বললে, রেডমির এই স্মার্টফোনে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ বিদ্যমান। এই ক্যামেরাগুলি হল – ২০০ মেগাপিক্সেলের স্যামসাং এইচপিএক্স (Samsung HPX) সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেলের আল্ট্রা-ওয়াইড লেন্স এবং ২ মেগাপিক্সেলের ম্যাক্রো শ্যুটার। আবার, সেলফি ও ভিডিও কলিংয়ের জন্য ডিভাইসটির সামনে ১৬ মেগাপিক্সেলের সেলফি ক্যামেরা বর্তমান। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য নয়টি ৫জি ব্যান্ড সাপোর্ট সহ আসা এই ফোনে ৪,৯৮০ এমএএইচ ব্যাটারি রয়েছে, যা ১২০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে।

OnePlus Nord 2T 5G

ওয়ানপ্লাসের এই ফোনটির ৮ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টটি চলতি সময়ে অ্যামাজন (Amazon) থেকে কিনতে হলে ক্রেতাদের ২৮,৯৯৯ টাকা খসাতে হবে। অ্যান্ড্রয়েড ১২ ভিত্তিক অক্সিজেনওএস ১২.১ (OxygenOS 12.1) দ্বারা চালিত ওয়ানপ্লাস নর্ড ২টি ৫জি ফোনে রয়েছে কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫ প্রোটেকশন সহ ৬.৪৩ ইঞ্চি ফুল এইচডি+ (১,০৮০x২,৪০০ পিক্সেল) অ্যামোলেড ডিসপ্লে, যা ২০:৯ অ্যাসপেক্ট রেশিও এবং ৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট সাপোর্ট করে। ফাস্ট পারফরম্যান্সের জন্য আটটি ৫জি ব্যান্ড সাপোর্ট সহ আসা এই ডিভাইসটিতে অক্টা-কোর মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ১৩০০ (MediaTek Dimensity 1300) প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে।

OnePlus Nord 2T 5G

ফটোগ্রাফির জন্য ওয়ানপ্লাসের এই হ্যান্ডসেটে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ বিদ্যমান। এগুলি হল – অপটিক্যাল ইমেজ স্টেবিলাইজেশন (OIS) সহ ৫০ মেগাপিক্সেল সনি আইএমএক্স৭৬৬ (Sony IMX766) প্রাইমারি সেন্সর, ১২০ ডিগ্রি ফিল্ড-অফ-ভিউ সহ ৮ মেগাপিক্সেল আল্ট্রা-ওয়াইড শ্যুটার এবং ২ মেগাপিক্সেল মনোক্রোম সেন্সর। আবার, সেলফি এবং ভিডিও চ্যাটের জন্য ডিভাইসটির সামনে ৩২ মেগাপিক্সেলের সনি আইএমএক্স৬১৫ (Sony IMX615) সেন্সরের দেখা মিলবে। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য ওয়ানপ্লাস নর্ড ২টি ৫জি স্মার্টফোনে ৪,৫০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে, যা ৮০ ওয়াট সুপারভোক (SuperVOOC) ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে।

Samsung Galaxy M53 5G

১২ টি ৫জি ব্যান্ড সাপোর্ট সহ আসা স্যামসাং গ্যালাক্সি এম৫৩ ৫জি স্মার্টফোনে আছে ৬.৭ ইঞ্চি ফুল এইচডি+ (১০৮০x২৪০০ পিক্সেল) ইনফিনিটি-ও সুপার অ্যামোলেড+ ডিসপ্লে, যা ১২০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট অফার করে। দুরন্ত পারফরম্যান্সের জন্য হ্যান্ডসেটটিতে অক্টা-কোর মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৯০০ (MediaTek Dimensity 900) প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। স্মার্টফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ১২ ভিত্তিক ওয়ান ইউআই ৪.১ (One UI 4.1) কাস্টম স্কিনে রান করে। স্যামসাংয়ের নিজস্ব ‘র‌্যাম প্লাস’ ফিচার বিদ্যমান থাকায় ডিভাইসটিতে ১২ জিবি ভার্চুয়াল র‌্যাম পাওয়া যাবে।

Samsung Galaxy M53 5G

ক্যামেরার কথা বললে, সেলফি এবং ভিডিও চ্যাটের জন্য স্যামসাং গ্যালাক্সি এম৫৩ ৫জি-এর সামনে ৩২ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট-ফেসিং ক্যামেরা রয়েছে। আবার, ফোনটির পিছনে কোয়াড ক্যামেরা সেটআপ বর্তমান। এই ক্যামেরাগুলি হল – ১০৮ মেগাপিক্সেলের প্রাইমারি সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেলের আল্ট্রা-ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স, ২ মেগাপিক্সেলের ডেপথ সেন্সর এবং ২ মেগাপিক্সেলের ম্যাক্রো সেন্সর। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য ডিভাইসটিতে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে, যা ২৫ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে। বর্তমানে অ্যামাজনে স্যামসাংয়ের এই ফোনটির ৬ জিবি + ১২৮ জিবি মডেলটি ২৩,৯৯৯ টাকায় বিক্রির জন্য উপলব্ধ রয়েছে।

Realme 10 Pro+ 5G

রিয়েলমির এই স্মার্টফোনটির ৬ জিবি + ১২৮ জিবি মডেলটি বর্তমানে ফ্লিপকার্ট থেকে ২৪,৯৯৯ টাকায় কিনতে পারবেন গ্রাহকরা। ডিভাইসটির সামনে আছে ৬.৭ ইঞ্চি ফুল এইচডি+ (২৪১২ x ১০৮০ পিক্সেল) অ্যামোলেড ডিসপ্লে, যা ১২০ হার্টজ পর্যন্ত রিফ্রেশ রেট, ২০.১:৯ অ্যাসপেক্ট রেশিও ও ৯৩.৬৫ শতাংশ স্ক্রিন-টু-বডি রেশিও অফার করে। অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে ১৩ টি ৫জি ব্যান্ড সাপোর্টযুক্ত এই ফোনে লেটেস্ট অ্যান্ড্রয়েড ১৩ (Android 13) ভিত্তিক রিয়েলমি ইউআই ৪.০ (Realme UI 4.0) কাস্টম স্কিন পাওয়া যাবে।

Realme 10 Pro+ 5G

মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ১০৮০ প্রসেসর দ্বারা চালিত এই ডিভাইসে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ দেখা যাবে। এই ক্যামেরাগুলি হল – ১০৮ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেল আল্ট্রা-ওয়াইড লেন্স এবং ২ মেগাপিক্সেল মনোক্রোম সেন্সর। আবার, সেলফি ও ভিডিও কলিংয়ের জন্য হ্যান্ডসেটটিতে মিলবে ১৬ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা। এছাড়া, পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য রিয়েলমি ১০ প্রো+ ৫জি ফোনে রয়েছে ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি, যা ৬৭ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে।

Oppo Reno 8 5G

ওপ্পোর এই ফোনটির ৮ জিবি + ১২৮ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের বর্তমানে ফ্লিপকার্টে দাম ২৯,৯৯৯ টাকা৷ ডুয়াল-সিমের (ন্যানো) ওপ্পো রেনো ৮ ৫জি স্মার্টফোনে কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫ প্রোটেকশন সহ ৬.৪৩ ইঞ্চি ফুল এইচডি+ (১,০৮০ x ২,৪০০পিক্সেল) অ্যামোলেড ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে, যা ৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট, ২০:৯ অ্যাসপেক্ট রেশিও এবং ৮০০ নিট পিক ব্রাইটনেস অফার করে। ১২ টি ৫জি ব্যান্ড সাপোর্ট সহ আসা এই হ্যান্ডসেটটি অ্যান্ড্রয়েড ১২ ভিত্তিক কালার ওএস ১২.১ (ColorOS 12.1) কাস্টম স্কিনে রান করে। ফাস্ট পারফরম্যান্সের জন্য এতে মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ১৩০০ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে।

Oppo Reno 8 5G

ফটোগ্রাফির জন্য, ওপ্পো রেনো ৮ ৫জি ফোনে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ বর্তমান। এই ক্যামেরাগুলি হল – এফ/১.৮ অ্যাপারচার সহ ৫০ মেগাপিক্সেল সনি আইএমএক্স৭৬৬ প্রাইমারি সেন্সর, এফ/২.২ অ্যাপারচার ও ১১২ ডিগ্রি ফিল্ড-অফ-ভিউ সহ ৮ মেগাপিক্সেল সনি আইএমএক্স৩৫৫ (Sony IMX355) আল্ট্রা-ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স এবং এফ/২.৪ অ্যাপারচার সহ ২ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো সেন্সর। আবার, সেলফি এবং ভিডিও কলিংয়ের জন্য হ্যান্ডসেটটির সামনে এফ/২.৪ অ্যাপারচার সহ ৩২ মেগাপিক্সেলের সেলফি ক্যামেরার দেখা মিলবে। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য ফোনটিতে ৪,৫০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে, যা ৮০ ওয়াট সুপারভোক ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে।

আরও পড়ুন