চমকে দেবে iQOO 11 এর ডিসপ্লে, লঞ্চের আগে উৎসাহ বাড়িয়ে প্রকাশ্যে নতুন তথ্য

iQOO 11 Specifications Revealed

আইকো ইতিমধ্যেই নিশ্চিত করেছে যে, তারা তাদের নতুন iQOO 11 সিরিজটি আগামী ২ ডিসেম্বর মার্কেটে লঞ্চ করতে চলেছে। বিগত কয়েকমাস ধরে বেশ কিছু প্রতিবেদনে এই বহু প্রতীক্ষিত লাইনআপটির সম্পর্কে নানান তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে। আর এবার আসন্ন লঞ্চের আগে কোম্পানির তরফে আপকামিং সিরিজের ডিভাইসগুলির ডিসপ্লে সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ বিবরণ প্রকাশ করা হয়েছে। এর পাশাপাশি আবার, এক চীনা টিপস্টার iQOO 11-এর স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্ট এবং ক্যামেরা সংক্রান্ত তথ্যও ফাঁস করেছেন। চলুন তাহলে এগুলি দেখে নেওয়া যাক।

প্রকাশ্যে এল iQOO 11-এর ডিসপ্লে, স্টোরেজ এবং ক্যামেরা স্পেসিফিকেশন

আইকো সম্প্রতি নিশ্চিত করেছে যে, ফ্ল্যাগশিপ আইকো ১১ সিরিজের হ্যান্ডসেটে ই৬ অ্যামোলেড (E6 AMOLED) ডিসপ্লে থাকবে, যা ২কে (2K) রেজোলিউশন এবং ১৪৪ হার্টজ পর্যন্ত রিফ্রেশ রেট অফার করবে। এছাড়া, ডিসপ্লেটি এক্সডিআর (XDR) ইঞ্জিন, ১,৮০০ নিট পর্যন্ত পিক ব্রাইটনেস এবং ১,৪৪০ হার্টজ পালস্-উইদ-মডিউলেশন (PWM) ডিমিং সাপোর্ট করবে। আইকো ১১-এ ৬.৭৮ ইঞ্চির ফ্ল্যাট ডিসপ্লে থাকবে, যেখানে আইকো ১১ প্রো-তে কার্ভড এজ-এর সাথে একই আকারের স্ক্রিন দেখা যাবে। এই সিরিজে অন্তর্ভুক্ত দুটি মডেলেই কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮ জেন ২ প্রসেসর এবং ভিভো ভি২ ইমেজ সিগন্যাল প্রসেসর (ISP) চিপ ব্যবহার করা হবে।

অন্যদিকে, সুপরিচিত টিপস্টার পান্ডা ইজ বল্ড তার সাম্প্রতিক ওয়েইবো (চীনা মাইক্রোব্লগিং সাইট) পোস্টে দাবি করেছেন যে, স্ট্যান্ডার্ড আইকো ১১ ফোনটি পাঁচটি কনফিগারেশনে বাজারে আসবে। এগুলি হল ৮ জিবি র‍্যাম + ১২৮ জিবি স্টোরেজ, ৮ জিবি র‍্যাম + ২৫৬ জিবি স্টোরেজ, ১২ জিবি র‍্যাম + ২৫৬ জিবি স্টোরেজ, ১২ জিবি র‍্যাম + ৫১২ জিবি স্টোরেজ, এবং ১৬ জিবি র‍্যাম + ৫১২ জিবি স্টোরেজ। টিপস্টার জানিয়েছেন যে, ১২৮ জিবি সংস্করণ ছাড়া অন্যান্য স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টগুলি হল ইউএফএস ৪.০। তবে, সমস্ত ভ্যারিয়েন্টই এলপিডিডিআর৫এক্স র‍্যাম অফার করবে।

এছাড়াও, টিপস্টার iQOO 11-এর রিয়ার ক্যামেরা ক্যামেরা সেটআপ সম্পর্কে কিছু তথ্যও শেয়ার করেছেন। তার দাবি অনুযায়ী, এই ফোনের রিয়ার ক্যামেরা সেটআপে ৫০ মেগাপিক্সেলের প্রাইমারি ক্যামেরা, একটি ৮ মেগাপিক্সেলের ওমনিভিশন ওভি৮বি আল্ট্রা-ওয়াইড লেন্স এবং একটি ১২ বা ১৩ মেগাপিক্সেলের পোর্ট্রেট সেন্সর অন্তর্ভুক্ত থাকবে। উল্লেযোগ্যভাবে, এটি একটি পূর্ববর্তী লিকের বিরোধিতা করে, যেখানে দাবি করা হয়েছিল যে iQOO 11-এ ৫০ মেগাপিক্সেলের প্রধান সেন্সর, একটি ১৩ মেগাপিক্সেলের আল্ট্রা-ওয়াইড-অ্যাঙ্গেল লেন্স এবং একটি ৮ মেগাপিক্সেলের ম্যাক্রো সেন্সর দ্বারা গঠিত ট্রিপল ক্যামেরা ইউনিট দেখা যাবে।

প্রসঙ্গত, একটি সাম্প্রতিক রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে যে iQOO 11-এ একটি ১৬ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা এবং ১২০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট সহ ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি থাকবে। ডিভাইসটি আইল অফ ম্যান এডিশন (কালো) এবং ট্র্যাক এডিশন (BMW-এর সিগনেচার তিনটি রঙের স্ট্রাইপের সাথে সাদা প্যানেল)-এর মতো কালার অপশনে পাওয়া যাবে।