এই দুই Xiaomi ফোনে ব্যবহার করা যাবে না Jio 5G, কেনার আগে সাবধান হোন

Xiaomi-র কোন কোন স্মার্টফোনে ব্যবহার করা যাবে Jio-র 5G পরিষেবা জেনে নিন

Xiaomi 5G Phones Do Not Support Jio 5G

দীর্ঘদিনের প্রতীক্ষার অবসান ঘটিয়ে গত অক্টোবরের শুরুতে এদেশে চালু হয়েছে দ্রতগতির 5G পরিষেবা। ভারতের শীর্ষস্থানীয় টেলিকম অপারেটর Reliance Jio এখনও পর্যন্ত ১৩৩ টিরও বেশি শহরে তাদের True 5G সার্ভিস রোলআউট করেছে। এর সুবাদে ব্যবহারকারীরা 4G সিম মারফতই তাদের 5G স্মার্টফোনে সংস্থার পঞ্চম প্রজন্মের দুরন্ত গতির নেট পরিষেবা ব্যবহার করতে সক্ষম হচ্ছেন। উল্লেখ্য যে, Jio বর্তমানে ইউজারদেরকে স্ট্যান্ডঅ্যালোন (SA) নেটওয়ার্কের মাধ্যমে 5G সার্ভিস অফার করছে। অর্থাৎ, সংস্থার নেটওয়ার্কটি একটি 5G কোরে চলবে এবং এটি বিদ্যমান এলটিই (LTE) কোরের ওপর নির্ভর করবে না। ইতিমধ্যেই অধিকাংশ স্মার্টফোনেই Jio True 5G নেটওয়ার্ক সাপোর্ট করছে। তবে সমস্ত 5G ফোনেই যাতে ব্যবহারকারীরা এই দুরন্ত গতির ইন্টারনেট ব্যবহারের মজা পেতে সক্ষম হন, তার জন্য হ্যান্ডসেট নির্মাতা সংস্থাগুলি একের পর এক সফটওয়্যার আপডেট রোলআউট করে চলেছে। তবে সম্প্রতি পাওয়া খবর বলছে যে, এখনও মার্কেটে এমন বেশ কিছু পঞ্চম প্রজন্মের নেটওয়ার্ক কানেক্টিভিটিযুক্ত হ্যান্ডসেট বিদ্যমান রয়েছে, যাতে Reliance Jio-র 5G পরিষেবা পাওয়া যাবে না। আজকের এই প্রতিবেদনে আমরা আপনাদেরকে এমনই কিছু স্মার্টফোনের কথা জানাতে চলেছি।

Xiaomi-র এই সকল স্মার্টফোনে মিলবে না Reliance Jio True 5G সার্ভিস

টেলিকমটক (TelecomTalk)-এর রিপোর্ট অনুযায়ী, শাওমি (Xiaomi)-র নির্বাচিত কিছু ৫জি স্মার্টফোনে জিও-র পঞ্চম প্রজন্মের নেটওয়ার্ক সার্ভিস সাপোর্ট করবে না। যদিও সংস্থাটির অধিকাংশ স্মার্টফোনেই জিও-র ৫জি সার্ভিস অ্যাক্সেস করা যাবে, তবে কেবল দুটি ডিভাইসের ক্ষেত্রে ঘটেছে ছন্দপতন এবং সেগুলি হল – শাওমি এমআই ১০ (Xiaomi Mi 10) এবং শাওমি এমআই ১০আই (Xiaomi Mi 10i)। অর্থাৎ, উক্ত দুটি স্মার্টফোনের মালিকরা দেশের শীর্ষস্থানীয় টেলিকম অপারেটরটির ৫জি পরিষেবা ব্যবহারের মজা উপভোগ করতে পারবেন না। এই প্রসঙ্গে বলে রাখি, এগুলি কিন্তু যেমন-তেমন কোনো কমজোরি ডিভাইস নয়, দুটি হ্যান্ডসেটেরই দাম প্রায় ৫০,০০০ টাকার কাছাকাছি। সেক্ষেত্রে মোটা টাকা খরচ করে ফোন কিনেও যারা জিও-র ৫জি নেটওয়ার্ক সার্ভিস ব্যবহার করতে পারবেন না, তাদের এই মুহূর্তে হতাশ হওয়াটাই খুব স্বাভাবিক।

Xiaomi-র এই সকল স্মার্টফোনে ব্যবহার করা যাবে Jio-র 5G পরিষেবা

আমরা সকলেই জানি যে, শাওমি ভারতের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় স্মার্টফোন ব্র্যান্ড। চীনা স্মার্টফোন কোম্পানিটি ইতিমধ্যেই এদেশে লক্ষ লক্ষ ৫জি হ্যান্ডসেট বিক্রি করেছে, যেগুলিতে জিও এবং এয়ারটেল (Airtel)-এর ৫জি নেটওয়ার্ক সাপোর্ট করে। তবে দুর্ভাগ্যবশত উপরিউক্ত দুটি ডিভাইসে জিও-র ৫জি পরিষেবা অ্যাক্সেস করা যাবে না বলে হালফিলে জানা গিয়েছে। প্রসঙ্গত জানিয়ে রাখি, শাওমির যে সকল স্মার্টফোনগুলিতে দেশের শীর্ষস্থানীয় টেলিকম সংস্থাটির ৫জি সার্ভিস সাপোর্ট করবে, সেই তালিকায় রয়েছে Mi 11 Ultra 5G, Xiaomi 12 Pro 5G, Xiaomi 11T Pro 5G, Redmi Note 11 Pro 5G, Xiaomi 11 Lite NE 5G, Redmi Note 11T 5G, Redmi 11 Prime 5G, Redmi Note 10T 5G, Mi 11X 5G, Mi 11X Pro 5G, Redmi K50i 5G, Xiaomi 11i 5G এবং Xiaomi 11i HyperCharge 5G।

5G সাপোর্টের জন্য কেন স্মার্টফোন কোম্পানিগুলি সফটওয়্যার আপডেট রোলআউট করছে?

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে, গত বছরের শেষের দিকে ভারতে 5G নেটওয়ার্কের দেখা মিললেও বহুদিন আগেই এদেশের মার্কেটে পা রেখেছে 5G স্মার্টফোন। প্রায় বছর তিনেক আগে থেকেই ভারতে পঞ্চম প্রজন্মের নেটওয়ার্ক কানেক্টিভিটিযুক্ত হ্যান্ডসেটের বিক্রি শুরু হয়ে গিয়েছে এবং প্রচুর সংখ্যক মানুষ বাজারে আসা মাত্রই সেগুলি কিনে ফেলেছেন। খুব স্বাভাবিকভাবেই তখন ফোনে কী ধরনের 5G ব্যান্ড থাকলে সেটিতে ঝড়ের গতির নেট পরিষেবা পাওয়া যাবে, সে সম্পর্কে বিশেষ কোনো তথ্য জানা ছিল না। তাই পুরোনো চিপসেট সংবলিত বেশ কিছু স্মার্টফোনে বর্তমানে Jio এবং Airtel-এর 5G নেটওয়ার্ক সাপোর্ট না করায় নির্মাতা সংস্থাগুলি ইদানীংকালে সেগুলির জন্য সফটওয়্যার আপডেট রোলআউট করছে। এর সুবাদে অধিকাংশ হ্যান্ডসেটেই চলতি সময়ে এই বিদ্যুৎ গতির নেট পরিষেবা ব্যবহারের সুবিধা মিললেও দু-এক জায়গায় ব্যতিক্রম থেকেই যাচ্ছে। তাই যারা হালফিলে নতুন 5G স্মার্টফোন কেনার প্ল্যান করছেন, তারা কেনার আগে অবশ্যই খুব ভালো করে চেক করে নিন যে ডিভাইসটিতে Jio এবং Airtel-এর পঞ্চম প্রজন্মের নেটওয়ার্ক সার্ভিস সাপোর্ট করবে কি না।