সনি ক্যামেরার কামাল দেখবে বিশ্ব, Xiaomi 13T ও Xiaomi 13T Pro বিশ্ব বাজারে লঞ্চের আগে পেল TDRA থেক অনুমোদন

Xiaomi 13T সিরিজের হ্যান্ডসেটগুলি ইতিমধ্যেই IMEI ও FCC -এর মতো সার্টিফিকেশন সাইট এবং বেঞ্চমার্কিং প্ল্যাটফর্ম Geekbench-এ দেখা গেছে। আজ আবার এই সিরিজের রেগুলার মডেল অর্থাৎ Xiaomi 13T এবং টপ-এন্ড Xiaomi 13T Pro -কে সংযুক্ত আরব আমিরাত (UAE) -এর ‘টেলিকমিউনিকেশনস অ্যান্ড ডিজিটাল গভর্নমেন্ট রেগুলেটরি অথরিটি’ (TDRA) সার্টিফিকেশন সাইটে খুঁজে পাওয়া গেল। উল্লেখ্য, সেপ্টেম্বরের শুরুতেই ডিভাইস দুটি বিশ্ব বাজারে লঞ্চ হবে বলে জানা গেছে।

TDRA সার্টিফিকেশন সাইটে দেখা গেল Xiaomi 13T এবং Xiaomi 13T Pro স্মার্টফোনকে

TDRA সার্টিফিকেশন সাইটের লিস্টিং অনুসারে, শাওমি ১৩টি (Xiaomi 13T) এর মডেল নম্বর 2306EPN60G এবং শাওমি ১৩টি প্রো (Xiaomi 13T Pro) এর মডেল নম্বর 23078PND5G। এই লিস্টিং আরো নিশ্চিত করেছে যে, উভয় মডেল খুব শীঘ্রই UAE -এর বাজারে লঞ্চের মুখ দেখবে।

এদিকে সাম্প্রতিক কয়েকটি রিপোর্টে Xiaomi 13T এবং Xiaomi 13T Pro এর ফিচার ফাঁস করা হয়েছে। জানা গেছে, Xiaomi 13T Pro ফোনের সামনে ২০ মেগাপিক্সেলের Sony IMX596 সেলফি ক্যামেরা থাকবে। আর ব্যাক প্যানেলে ৫০ মেগাপিক্সেলের Sony IMX707 প্রাইমারি শুটার, ৫০ মেগাপিক্সেলের Omnivision OV13B সেকেন্ডারি আল্ট্রা-ওয়াইড লেন্স এবং ৫০ মেগাপিক্সেলের Omnivision OV50D টেলিফটো সেন্সর যুক্ত ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ দেখা যেতে পারে।

আর আসন্ন Xiaomi 13T Pro -এর অন্যান্য স্পেসিফিকেশন সম্প্রতি লঞ্চ হওয়া Redmi K60 Ultra ফোনের অনুরূপ হবে বলেই দাবি করা হচ্ছে। অর্থাৎ এতেও সম্ভবত ১৪৪ হার্টজ রিফ্রেশ রেট ও ১.৫কে রেজোলিউশনের ৬.৬৭-ইঞ্চি OLED ডিসপ্লে, মিডিয়াটেক ডাইমেনসিটি ৯২০০+ চিপসেট, ১২ জিবি LPDDR5x র‌্যাম এবং ৫১২ জিবি UFS 4.0 স্টোরেজ পাওয়া যাবে। এছাড়া ১২০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সমর্থিত ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি, ইন-ডিসপ্লে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ডুয়াল স্টেরিও স্পিকার, এক্স-অ্যাক্সিস লিনিয়ার মোটর এবং IP68 রেটিং প্রাপ্ত বডি অফার করবে পারে Xiaomi 13T Pro।

অন্যদিকে, স্ট্যান্ডার্ড Xiaomi 13T স্মার্টফোনে Redmi K60 Ultra মডেলের অনুরূপ প্রসেসর ভ্যারিয়েন্ট, ডিসপ্লে ফিচার এবং ব্যাটারি মিলবে বলে আশা করা হচ্ছে। যদিও একাধিক বিষয়ে পার্থক্যও থাকবে। এতে ৬৭ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং প্রযুক্তি দেওয়া হতে পারে। আর স্টোরেজ হিসাবে ৮ জিবি র‌্যাম এবং ২৫৬ জিবি মেমরি পাওয়া যেতে পারে।

প্রসঙ্গত, লঞ্চের পর Xiaomi 13T ব্ল্যাক কালারে এবং Xiaomi 13T Pro মেডো গ্রীন কালারে উপলব্ধ হবে। উভয় ডিভাইসই ১ সেপ্টেম্বর লঞ্চ হতে পারে।