৫ মিনিটে বিক্রি হল ১০০ কোটি টাকার Redmi 10X, আপনি কার অপেক্ষায়

কিছুদিন আগেই চীনে লঞ্চ হয়েছিল Redmi 10X সিরিজ। আজ এই সিরিজের প্রথম সেল ছিল। সেখানেই মাত্র ৫ মিনিটে ১০০ কোটি টাকার বেশি ফোন বিক্রি হয়েছে। Xiaomi এই সিরিজে দুটি ফোন এনেছে Redmi 10X ও Redmi 10X Pro। এদের ৫জি ও ৪জি দুটো ভ্যারিয়েন্টের আজ সেল ছিল। কোম্পানি আজ সোশ্যাল মিডিয়ায় জানিয়েছে ৫ মিনিটে প্রায় ১০৬ কোটি টাকার রেডমি ১০ এক্স সিরিজ সেল হয়েছে। রেডমি ১০ এক্স সিরিজের প্রধান ফিচারের কথা বললে এতে ৭এনএম চিপসেট, 5G সাপোর্ট, এমোলেড ডিসপ্লে ও ৪,৫২০ এমএএইচ ব্যাটারি আছে। এছাড়াও এই দুই ফোনে পাবেন কোয়াড ক্যামেরা সেটআপ।

Redmi 10X 5G ও Redmi 10X Pro 5G দাম :

Redmi 10X এর ৬ জিবি র‌্যাম ও ৬৪ জিবি স্টোরেজের দাম প্রায় ১৬,৬৯০ টাকা। আবার ৬ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি, ৮ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি এবং ৮ জিবি র‌্যাম ও ২৫৬ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম যথাক্রমে প্রায় ১৯,০০০ টাকা, ২২,২০০ টাকা ও ২৫,৪০০ টাকা। এদিকে Redmi 10X Pro এর ৮ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি এবং ৮ জিবি র‌্যাম ও ২৫৬ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম যথাক্রমে প্রায় ২৫,৬০০ টাকা ও ২৭,৫০০ টাকা।

Redmi 10X 5G ও Redmi 10X Pro 5G স্পেসিফিকেশন :

রেডমি ১০ এক্স ও রেডমি ১০ এক্স প্রো প্রায় একই স্পেসিফিকেশনের সাথে লঞ্চ হয়েছে। তবে এদের ক্যামেরা ও চার্জিং ফিচার ভিন্ন। দুটি ফোনেই ৬.৫৭ ইঞ্চি AMOLED ফুল এইচডি প্লাস ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে। যার রেজুলেশন ২৪০০×১০৮০ পিক্সেল এবং আসপেক্ট রেশিও ২০:৯। এতে এইচডিআর ১০ সাপোর্ট করে এবং এর রিফ্রেশ রেট ৬০ হার্জ। ওয়াটার ড্রপ নচ ডিসপ্লের টাচ স্যাম্পলিং রেট ১৮০ হার্জ।

ডিসপ্লের সুরক্ষার জন্য দুটি ফোনেই কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫ দেওয়া হয়েছে। আবার এটি IP53 সার্টিফায়েড, অর্থাৎ ধুলো ও জল প্রতিরোধী। প্রসেসরের কথা বললে এখানে পাবেন মিডিয়াটেক ডিমেনসিটি ৮২০ প্রসেসর। যার সাথে ৫জি মডেম যুক্ত। এতে মালি জি-৫৭ জিপিইউ, লিকুইড কুলিং( শীতল রাখার জন্য) ও মি গেম টার্বো ২.০ টেকনোলজি ব্যবহার করা হয়েছে। সিকিউরিটির জন্য এখানে পাবেন ইন ডিসপ্লে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ১০ ভিত্তিক এমআইইউআই ১২ সিস্টেমে চলে।

ফটোগ্রাফির কথা বললে রেডমি ১০ এক্স ও ১০ এক্স প্রো ফোনে পাবেন কোয়াড রিয়ার ক্যামেরা। যেখানে প্রো ভার্সনের প্রাইমারি ক্যামেরা ৪৮ মেগাপিক্সেল। অন্যান্য ক্যামেরা হল ৮ মেগাপিক্সেল সুপার ওয়াইড এঙ্গেল সেন্সর, ৮ মেগাপিক্সেল টেলিফোটো লেন্স, ৫ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো লেন্স। এই ক্যামেরায় ৩০ এক্স ডিজিটাল জুম, অপটিক্যাল ইমেজ স্টেবিলাইজেশন ফিচার সাপোর্ট করবে। আবার সেলফি ও ভিডিও কলিংয়ের জন্য এতে ২০ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা আছে।

অন্য দিকে রেডমি ১০ এক্স এর ক্যামেরা সেটআপের কথা বললে এর প্রাইমারি ক্যামেরা ৪৮ মেগাপিক্সেল। এছাড়াও আছে ৮ মেগাপিক্সেল টেলিফোটো সেন্সর, যেখানে ৩০ এক্স ডিজিটাল জুম সাপোর্ট করবেনা। প্রো ভার্সনের মত এখানেও ৮ মেগাপিক্সেল সুপার ওয়াইড এঙ্গেল সেন্সর ও ৫ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো লেন্স আছে। তবে সেলফির জন্য এখানে ১৬ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা পাবেন। আবার দুটি ফোনেই রয়েছে ৪,৫২০ এমএএইচ ব্যাটারি। তবে প্রো ভার্সনে ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে। সেখানে সাধারণ ভার্সনে করবে ২২.৫ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং।

টেকগাপের মেম্বাররা ও সদ্য যোগ দেওয়া লেখকরা এই প্রোফাইলের মাধ্যমে টেকনোলজির সমস্ত রকম খুঁটিনাটি আপনাদের সামনে আনে।