৪ জিবি র‌্যাম ও ডুয়েল ক্যামেরার সাথে আসবে Moto E7 Plus, সামনে এল ছবিও

moto-e7-plus-geekbench-result-4gb-ram-and-snapdragon-soc-live-image-share

কিছুদিন আগে কানাডিয়ান একটি ওয়েবসাইট থেকে ফাঁস করা হয়েছিল Moto E7 এর দাম ও স্পেসিফিকেশন। এবার বেঞ্চমার্ক সাইট গিকবেঞ্চে দেখা গেল এই সিরিজের আরও একটি ফোন Moto E7 Plus কে। যেখানে ফোনটির অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন, প্রসেসর ও র‌্যাম সম্পর্কে জানা গেছে। এছাড়াও ৯১মোবাইলস থেকে এই ফোনের ইমেজ ও শেয়ার করা হয়েছে। এই ইমেজে ফোনের ডিজাইন কিছুটা বোঝা যাচ্ছে। আসুন Moto E7 Plus সম্পর্কে যে যে তথ্য এসেছে সেগুলি জেনে নিই।

প্রথমে কথা বলি মোটো ই৭ প্লাসের ডিজাইন নিয়ে। শেয়ার করা ছবি অনুযায়ী এই ফোনটি ওয়াটারড্রপ নচ ডিসপ্লের সাথে আসবে। এখানে সেলফি ক্যামেরা দেওয়া হবে। ফোনের নিচের দিকে স্বাভাবিক ভাবে স্পিকার গ্রিলস ও ইউএসবি টাইপ সি চার্জিং পোর্ট দেওয়া হবে। আবার ফোনটির পিছনে এলইডি ফ্ল্যাশ সহ ডুয়েল রিয়ার ক্যামেরা থাকবে। ফোনটির মাঝে আছে মোটোরোলা এর লোগো, যেখানে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর দেওয়া হবে।

ফটো-৯১মোবাইলস

এদিকে গিকবেঞ্চে Moto E7 Plus কে অ্যান্ড্রয়েড ১০ এর সাথে দেখা গেছে। এতে ১.৮০ হার্টজ ক্লক স্পিডের সাথে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন প্রসেসর দেওয়া হবে। সাইটে মাদারবোর্ড এর ডিটেলস হিসাবে কেবল “guam” লেখা ছিল। মনে করা হচ্ছে ফোনটি স্ন্যাপড্রাগন ৬৩২ প্রসেসরের সাথে আসবে। এই ফোনে থাকবে ৪ জিবি র‌্যাম। গিকবেঞ্চে এই ফোনটি সিঙ্গেল কোর টেস্টে ১১৫২ পয়েন্ট এবং মাল্টি কোর টেস্টে ৪৩৭৩ পয়েন্ট পেয়েছে।

কিছুদিন আগে কানাডিয়ান ক্যারিয়ার ফ্রিডম মোবাইল সাইটে Moto E7 ফোনটিকে দামের সাথে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছিল। এই সাইটে ফোনটির দাম রাখা জানানো হয়েছিল প্রায় ১০,৫০০ টাকা। এই দাম ফোনটির ২ জিবি র‌্যাম ও ৩২ জিবি স্টোরেজের। এছাড়াও সাইটে ফোনের কিছু স্পেসিফিকেশন ও ফাঁস করা হয়েছিল। Moto E7 ফোনটি ৩,৫৫০ এমএএইচ ব্যাটারির সাথে আসতে পারে। এছাড়াও এই ফোনে থাকবে ৬.২ ইঞ্চি ডিসপ্লে।

এই ফোনটিও কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৩২ প্রসেসরের সাথে আসতে পারে। এর পিছনে থাকবে ডুয়েল ক্যামেরা সেটআপ। যার প্রাইমারি ক্যামেরা ১৩ মেগাপিক্সেল এবং সেকেন্ডারি ক্যামেরা ২ মেগাপিক্সেল। ভিডিও ও সেলফির জন্য এতে ৫ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা থাকতে পারে। ফোনটি নীল রঙে আসতে পারে।