Moto Edge X, Moto Edge S30 দুর্ধর্ষ ক্যামেরা ও 144Hz রিফ্রেশ রেটের ডিসপ্লে সহ আসছে

Motorola Moto Edge X, Moto Edge S30 ফোন দুটি TENAA সার্টিফিকেশন সাইট থেকে ছাড়পত্র পেয়েছে

moto-edge-x-moto-s30-g200-tenaa-listing-specifications-triple-rear-cameras-144hz-refresh-rate

বর্তমান সময়ে মোটামুটি প্রতিটি স্মার্টফোন ব্র্যান্ডই ফ্ল্যাগশিপ সেগমেন্টের ওপর কোমর বেঁধে কাজ করছে; এর ফলশ্রুতি হিসেবে প্রায়শই আমরা প্রিমিয়াম হ্যান্ডসেট চালু হতে দেখতে পাচ্ছি। সেক্ষেত্রে আগামী মাসে অর্থাৎ বছরের শেষ লগ্নে দু-দুটি নতুন ফ্ল্যাগশিপ ফোন লঞ্চ করে, Motorola (মোটোরোলা) নিজের পোর্টফোলিও আরো প্রসারিত করতে চলেছে বলে মনে হচ্ছে। সাম্প্রতিক গুঞ্জন অনুযায়ী, ডিসেম্বরে এই জনপ্রিয় সংস্থাটি চীনের বাজারে Moto Edge S30 (মোটো এজ এস৩০) এবং Edge X (এজ এক্স) নামের দুটি ডিভাইস লঞ্চ করতে পারে। এমনকি, Motorola-র ফোনজোড়াটি ইতিমধ্যেই TENAA সার্টিফিকেশন সাইট থেকে ছাড়পত্র পেয়েছে।

চীনের পরিচিত সার্টিফিকেশন সাইটে (অর্থাৎ TENAA-র ওয়েবসাইটে) স্মার্টফোনদুটিকে খুঁজে পেয়েছেন টিপস্টাররা। এই লিস্টিং থেকে Moto Edge S30 ও Moto Edge X-এর মূল ফিচারগুলি সর্বসমক্ষে এসেছে। আসুন দেখে নিই, আসন্ন দুটি Motorola ফোনে কী কী ফিচার দেখা যেতে পারে।

Moto Edge S30-এর স্পেসিফিকেশন (সম্ভাব্য)

TENAA-র সাইটে মোটো এজ এস৩০ ফোনটি XT2175-2 মডেল নম্বরসহ অন্তর্ভুক্ত হয়েছে। টিপস্টাররা জানিয়েছে, ব্র্যান্ডের মালিক সংস্থা Lenovo-র দেশীয় বাজারে ফোনটি মোটো এজ এস৩০ নামে মুক্তি পেলেও, বিশ্ব বাজারে Moto G200 নামে লঞ্চ হতে পারে। ফিচারের কথা বললে, ফোনটির পরিমাপ এবং ওজন হবে যথাক্রমে ১৬৮×৭৫.৫×৮.৮ মিমি এবং ২০২ গ্রাম। এতে ৬.৭৮ ইঞ্চি এলসিডি ফুল এইচডি+ ডিসপ্লে রয়েছে, যা ১৪৪ হার্টজ রিফ্রেশ রেটের সুবিধা দেবে। তাছাড়া ফোনটি স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্লাস প্রসেসর, ৬ জিবি, ৮ জিবি, ১২ জিবি র‌্যাম এবং ৬৪ জিবি, ১২৮ জিবি, ২৫৬ জিবি, ৫১২ জিবি স্টোরেজ সহ আসতে পারে।

ফটোগ্রাফির জন্য, Moto Edge S30 হ্যান্ডসেটটিতে সম্ভবত ১০৮ মেগাপিক্সেলের প্রাইমারি ক্যামেরাযুক্ত ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ দেখা যাবে। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য থাকবে ৪,৭০০ এমএএইচ ব্যাটারি। ফোনটি সাইড-ফেসিং ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানার এবং অ্যান্ড্রয়েড ১১ ওএস সহ আসবে। উল্লেখ্য, এর আগে 3C সার্টিফিকেশন সাইট থেকে জানা গিয়েছিল, Moto Edge S30 মডেলে ৩৩ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে।

Moto Edge X-এর স্পেসিফিকেশন (সম্ভাব্য)

মোটো এজ এক্স ফোনটি XT2201-2 মডেল নম্বরসহ TENAA-র সাইটে দেখা গেছে। অনুমান করা হচ্ছে, চীনের বাইরে অর্থাৎ অন্যান্য বাজারে এটিকে Motorola Edge 30 Ultra নামে বিক্রি করা হবে। এই স্মার্টফোনটির পরিমাপ ১৬৩×৭৫.৪৯×৮.৪ মিমি এবং ওজন ২০১ গ্রাম হবে। ফোনটি ৬.৬৭ ইঞ্চি OLED স্ক্রিন, ফুল এইচডি+ রেজোলিউশন এবং ১৪৪ হার্টজ রিফ্রেশ রেট অফার করবে। সাথে থাকবে স্ন্যাপড্রাগন ৮ জেন১ (Gen1) চিপসেট, ১৬ জিবি পর্যন্ত র‌্যাম এবং ৫১২ জিবি পর্যন্ত স্টোরেজের সুবিধা।

এছাড়া, এই মোটো ডিভাইসটিতে ৬০ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা এবং ৫০ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি ক্যামেরাযুক্ত ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা ইউনিট থাকবে। এছাড়া ফোনটি ৪,৭০০ এমএএইচ ব্যাটারি, ৬৮ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং, ইন-স্ক্রিন ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানার এবং অ্যান্ড্রয়েড ১১ ওএস সহ আসবে।

A person who enjoys creating, buying, testing, evaluating and learning about new technology.