শীঘ্রই ভারতে আসছে Moto G 5G এবং Moto G9 Power, জানুন দাম ও ফিচার

ইউরোপীয়ান মার্কেটে লঞ্চ করার পর মোটোরোলা এবার ভারতেও খুব শীঘ্রই আনতে চলেছে Moto G 5G এবং Moto G9 Power। জনপ্রিয় টিপস্টার মুকুল শর্মা টুইট করে গতকাল খবরটির সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। প্রসঙ্গত, মোটোরোলা শীঘ্রই ভারতে যে একটি ফোন লঞ্চ করবে, তা চারদিন আগে মুকুল শর্মা তার টুইট পোস্টের মাধ্যমে জানিয়েছিলেন। ফোনের নাম অবশ্য তিনি সেখানে উল্লেখ করেননি। বেএর শ কিছুক্ষণ পরে তিনি কোড ল্যাঙ্গুয়েজের ভঙ্গীতে শুধু G GGGGG লিখে আর একটি টুইট করেন। পাঁচবার ইংরেজী G ওয়ার্ডটি লিখে সম্প্রতি ইউরোপীয় মার্কেটে লঞ্চ হওয়া Moto G 5G ফোনটির নামই তিনি যে বলতে চেয়েছেন, তা অবশ্য বুঝতে অসুবিধা হয় নি। এবারও মুকুল শর্মা Moto G 5G এবং Moto G9 Power ফোনটির লঞ্চ ডেট সর্ম্পকে কিছু বলেন নি। তবে তার টুইট দেখে অনুমান করা যায়, ডিসেম্বর মাসেই ফোন দুটি ভারতে উপলব্ধ হতে চলেছে।

Moto G 5G এর স্পেসিফিকেশন

ডুয়েল সিমের মোটো জি ৫জি ফোনটি ৬.৭ ইঞ্চি ফুল এইচডি প্লাস (২৪০০ x ১০৮০) ম্যাক্স ডিভিশন ডিসপ্লের সাথে আসতে পারে। পাঞ্চ হোল ডিজাইনের এই ডিসপ্লের পিক্সেল ডেন্সিটি ৩৯৪ পিপিআই ও রিফ্রেশ রেট ৬০ হার্টজ। আবার পাঞ্চ হোলের মধ্যে এফ/২.২ অ্যাপারচার সহ ১৬ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা দেওয়া হয়েছে। এই ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৭৫০জি প্রসেসর। মাইক্রোএসডি কার্ডের মাধ্যমে এর স্টোরেজ ১ টিবি পর্যন্ত বাড়ানো যাবে। ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ১০ অপারেটিং সিস্টেমে চলে।

ফটোগ্রাফির জন্য Moto G 5G ফোনে আছে ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ। এই ক্যামেরা সেটআপটি হল ৪৮ মেগাপিক্সেল (এফ/১.৭) + ৮ মেগাপিক্সেল ১১৮ ডিগ্রী আলট্রা ওয়াইড এঙ্গেল লেন্স (এফ/২.২) + ২ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো সেন্সর (এফ/২.৪)। পাওয়ারের জন্য এতে ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি আছে যা ২০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে। চার্জিংয়ের জন্য এতে আছে ইউএসবি টাইপ সি পোর্ট। সিকিরিউটির জন্য ফোনে পাবেন ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। ফোনের বামদিকে গুগল অ্যাসিট্যান্টের জন্য একটি ডেডিকেটেড বাটন দেওয়া হয়েছে।

Moto G9 Power এর স্পেসিফিকেশন

মোটো জি৯ পাওয়ার ফোনে আছে ৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেটের ৬.৮ ইঞ্চি এইচডি প্লাস (৭২০ x ১৬৪০) পাঞ্চ হোল ডিসপ্লে। এই ফোনে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৬২ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। স্টোরেজ ও র‌্যামের কথা বললে এতে পাবেন ৪ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি স্টোরেজ। মাইক্রোএসডি কার্ডের মাধ্যমে স্টোরেজ ৫১২ জিবি পর্যন্ত বাড়ানো যাবে।

এই ফোনটি ৬,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি সহ এসেছে। সাথে ২০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে। চার্জিংয়ের জন্য এতে আছে ইউএসবি টাইপ সি পোর্ট। ফোনটির পিছনে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর উপলব্ধ।

ক্যামেরার কথা বললে Moto G9 Power ফোনের পিছনে আছে ট্রিপল ক্যামেরা সেটআপ। যার প্রাইমারি ক্যামেরা এফ/১.৭৯ অ্যাপারচার সহ ৬৪ মেগাপিক্সেল। অন্য দুটি ক্যামেরা হল ২ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো সেন্সর (এফ/২.৪) ও ২ মেগাপিক্সেল ডেপ্থ সেন্সর (এফ/২.৪)। সেলফি ও ভিডিও কলের জন্য এতে আছে এফ/২.২৫ অ্যাপারচার সহ ১৬ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা।

Moto G 5G এবং Moto G9 Power-এর দাম

ইউরোপে মোটো জি ৫জি এর দাম শুরু হয়েছে ২৯৯.৯৯ ইউরো থেকে, যা প্রায় ২৬,২৪০ টাকার সমান। বাজারে উপলব্ধ এটি সবচেয়ে সস্তা 5G ফোনও বটে। অন্যদিকে মোটো জি৯ পাওয়ার এর দাম ১৯৯ ইউরো, যা প্রায় ১৭,৫০০ টাকার সমান। এই দাম ফোনটির ৪ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি স্টোরেজের। ভারতে ফোনদুটির দাম কত হতে পারে তার জন্য অফিসিয়াল লঞ্চ না পর্যন্ত আমাদের অপেক্ষা করতে হবে।