৬৪ মেগাপিক্সেল ক্যামেরার সবচেয়ে সস্তা ফোন Moto G30 ভারতে লঞ্চ হল

moto-g30-launched-in-india-with-snapdragon-662-soc-price-rs-10999-specification-sale-date-17-march

ইউরোপের পর Motorola আজ ভারতে লঞ্চ করলো Moto G30। যে দামে এই ফোনটি ভারতে এসেছে তাতে Redmi, Realme-দের যে চিন্তা বাড়াবে তা বলার অপেক্ষা রাখেনা। ৬৪ মেগাপিক্সেল ক্যামেরার সবচেয়ে সস্তা ফোন হিসাবে মোটো জি৩০ ভারতে লঞ্চ হয়েছে। এছাড়াও এই ফোনে আছে আইপি৫২ ওয়াটার রেসিস্টেন্স, স্ন্যাপড্রাগন ৬৬২ প্রসেসর, ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি, অ্যান্ড্রয়েড ১১ অপেরাটিং সিস্টেম ও থিঙ্কশিল্ড অ্যাডভান্স সিকিউরিটি। আসুন Moto G30 এর দাম, লভ্যতা ও স্পেসিফিকেশন জেনে নিই।

Moto G30 এর দাম ও লভ্যতা

মোটো জি৩০ ভারতে ১০,৯৯৯ টাকায় পাওয়া যাবে। এই মূল্য রাখা হয়েছে ফোনটির ৪ জিবি র‌্যাম ও ৬৪ জিবি স্টোরেজের। ফোনটি ডার্ক পার্ল ও প্যাস্টেল স্কাই কালার বিকল্পে উপলব্ধ। আগামী ১৭ মার্চ দুপুর ১২টায় Flipkart থেকে Moto G30 ফোনটির সেল শুরু হবে।

জানিয়ে রাখি ইউরোপে এই ফোনটির ৪ জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি স্টোরেজের দাম রাখা হয়েছিল ১৮০ ইউরো (প্রায় ১৫,৯০০ টাকা)।

Moto G30 এর স্পেসিফিকেশন

অ্যান্টি ফিঙ্গারপ্রিন্ট কোটিং সহ আসা মোটো জি৩০ ফোনে আছে ৬.৫ ইঞ্চি এইচডি প্লাস (৭২০x১৬০০ পিক্সেল) ম্যাক্স ভিশন ডিসপ্লে। এর আসপেক্ট রেশিও ২০:৯ এবং রিফ্রেশ রেট ৯০ হার্টজ। অ্যান্ড্রয়েড ১১ অপারেটিং সিস্টেমে চলা এই ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে ২ গিগাহার্টজ অক্টা কোর কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৬২ প্রসেসর। সাথে আছে এড্রেনো ৬১০ জিপিইউ। ফোনটি ৪ জিবি র‌্যাম ও ৬৪ জিবি স্টোরেজ সহ পাওয়া যাবে। মাইক্রোএসডি কার্ডের মাধ্যমে এই ফোনের স্টোরেজ ১ টিবি পর্যন্ত বাড়ানো যাবে।

ক্যামেরার কথা বললে, Moto G30 ফোনের পিছনে কোয়াড ক্যামেরা বর্তমান। যার প্রাইমারি ক্যামেরা এফ/১.৭ অ্যাপারচার সহ ৬৪ মেগাপিক্সেল। এছাড়াও বাকি তিনটি ক্যামেরা হল ১১৮ ডিগ্রি ফিল্ড অফ ভিউ সহ ৮ মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স, ২ মেগাপিক্সেলের ম্যাক্রো লেন্স, ২ মেগাপিক্সেল ডেপ্থ সেন্সর। এই ক্যামেরায় নাইট ভিশন, শট অপ্টিমাইজেশন, অটো স্মাইল ক্যাপচার, এইচডিআর, এবং RAW ফটো আউটপুট এর মত ফিচার আছে। সেলফি ও ভিডিও কলিংয়ের জন্য এতে এফ/২.২ অ্যাপারচার সহ ১৩ মেগাপিক্সেল সেলফি ক্যামেরা রয়েছে। 

মোটো জি৩০ ফোনটি ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি সহ এসেছে। এই ব্যাটারি দুদিন পর্যন্ত ব্যাকআপ দেবে বলে কোম্পানি দাবি করেছে। আবার এই ফোনে ২০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করবে। এছাড়াও এই ফোনের অন্যান্য ফিচারের মধ্যে আছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর, ফেস আনলক, 4G VOLTE, ব্লুটুথ ৫.০, আইপি৫২ রেটিং প্রভৃতি। এই ফোনের ওজন ১৯৭ গ্রাম।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন