আগুন ধরে গেলো নোকিয়া ফোনে, রাখা ছিল বালিশের তলায়

Nokia এর ফিচার ফোনগুলি সাধারণত তাদের দীর্ঘ পরমায়ুর জন্য পরিচিত। এমনকি হ্যান্ডসেটগুলি কতটা টেকসই সে বিষয়ে নতুন করে কিছু বলার নেই। তবে সম্প্রতি একটি আকস্মিক ঘটনা সামনে এসেছে, যেখানে কেরলের এক Nokia ফিচার ফোন ব্যবহারকারী বালিশের নীচে ফোন রেখে ঘুমানোর পর সেটিতে আগুন ধরে যায় বলে দাবি করেছেন। এমনি এই ঘটনায় তিনি চোটও পেয়েছেন। ঠিক কিভাবে এই ঘটনা ঘটলো আসুন জেনে নিই।

সংবাদ সংস্থা মনোরমার একটি খবর অনুযায়ী, কেরলের কোল্লাম জেলার বাসিন্দা চন্দ্র বাবু রাত্রে ঘুমোচ্ছিলেন। তার বহুব্যবহৃত ফোনটি রাখা ছিলো বালিশের নীচে। হঠাৎ করেই তিনি ঘাড়ে যন্ত্রণা অনুভব করেন। ঘুম ভেঙে যাওয়ায় উঠে তিনি দেখেন, তার ফিচার ফোনটিতে আগুন লেগে গিয়েছে। ঘটনার ফলে ঐ ব্যক্তি কাঁধে এবং বাম হাতে চোট পেয়েছেন বলে জানা গেছে।

The News Minute কে দেওয়া একটি সাক্ষাৎকারে ৫৩ বছর বয়সী চন্দ্র বাবু জানিয়েছেন, “সেদিন রাতে দীর্ঘ পথশ্রমে ক্লান্ত হয়ে আমি ত্রিবান্দ্রম এয়ারপোর্ট থেকে ঘরে ফিরি। ফলে খুব তাড়াতাড়ি ঘুমিয়ে পড়েছিলাম। মাঝরাতে ঘাড়ে যন্ত্রণা অনুভব করায় আমার ঘুম ভেঙে যায়। উঠে দেখি বালিশের নীচে চেপে রাখা ফোনটা দিয়ে স্ফুলিঙ্গ বেরোচ্ছে, আগুন লেগেছে তাতে!”

ঘটনার সময় বাবু বাড়িতে সম্পূর্ণ একা ছিলেন। চোট পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গেই তিনি ফোনটিকে নিরাপদ দূরত্বে ফেলে দিয়ে হাসপাতালে পৌঁছে যান। কিন্তু ফোনটিতে কিভাবে আগুন ধরে গেল তা নিয়ে ধন্দে খোদ চন্দ্র বাবু নিজেই! কারণ ফোনটি কোনভাবেই চার্জে বসানো ছিলোনা।

জানাজানির পর একাধিক মানুষ বাবুর কাছে সম্পূর্ণ ঘটনাটি জানতে চান। পুরো ব্যাপারটিতে হতবাক বাবু এ প্রশ্নের উত্তরে অন্যদের বালিশের নীচে ফোন না রাখার উপদেশ দিয়েছেন!