OnePlus 8 Pro ফেরত নিচ্ছে কোম্পানি, বদলে পাবেন নতুন ফোন বা টাকা, জেনে নিন কারণ

চীনা ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন নির্মাতা ওয়ানপ্লাস কিছুদিন আগে OnePlus 8 সিরিজ লঞ্চ করেছিল। এরমধ্যে ওয়ানপ্লাস ৮ প্রো এর প্রি-বুকিং শুরু হয়েছে ২৯ এপ্রিল থেকে। আপনাকে জানিয়ে রাখি ওয়ানপ্লাস ৮ প্রো হল কোম্পানির এখনও পর্যন্ত সবচেয়ে দামি ফোন। যেসমস্ত গ্রাহক এই ফোনকে প্রি-অর্ডার করেছিল, কোম্পানি তাদের ডেলিভারি ও শুরু করেছে। তবে এরি মধ্যে কোম্পানি অনেকের থেকে ফোন ফিরিয়ে নিয়ে টাকা ফেরত দিচ্ছে বা নতুন ফোন দিচ্ছে। কিন্তু কি এমন হল যে, কোম্পানির সবচেয়ে দামি ফোনকে ফিরিয়ে নিতে হচ্ছে আসুন জানি।

আসলে ওয়ানপ্লাস 8 প্রো তে কিছু ব্যবহারকারী ডিসপ্লেতে সবুজ রঙের ছিদ্র এবং কালো দাগ দেখতে পাচ্ছে। ইতিমধ্যেই তারা ওয়ানপ্লাসের ফোরামে এই বিষয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেছে। যদিও কোম্পানি OTA আপডেট দিয়ে গ্রিন টিন্টের সমস্যাটি সমাধান করেছে কিন্তু এখনো রয়ে গেছে কালো দাগের সমস্যাটি। আর সেকারণেই অনেকে ফোনটি ব্যবহার করতে চাইছে না। তাই কোম্পানি সিদ্ধান্ত নিয়েছে ব্যবহারকারীরা ফোনটি ফেরতদিয়ে টাকা দাবি করতে পারবে অথবা রিপ্লেস করতে পারবে।

ভারতে ওয়ানপ্লাস ৮ প্রো এর ৮ জিবি র‌্যাম + ১২৮ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্টের দাম ৫৪,৯৯৯ টাকা। আবার ১২ জিবি র‌্যাম + ২৫৬ জিবি স্টোরেজ ভ্যারিয়েন্ট কেনা যাবে ৫৯,৯৯৯ টাকায়।

OnePlus 8 Pro ফোনে পাবেন ১৯.৮:৯ আসপেক্ট রেশিও, এইচডিআর ১০ প্লাস, QHD+ রেজুলেশন এবং ১২০ হার্জ রিফ্রেশ রেট যুক্ত ৬.৭৮ ইঞ্চি ফ্লুইড AMOLED ডিসপ্লে। এতে কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৬৫ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। সাথে দেওয়া হয়েছে এড্রেন ৬৫০ জিপিইউ। এদিকে ৪,৫০০ এমএএইচ ব্যাটারি রয়েছে ওয়ানপ্লাস ৮ প্রো ফোনে।

ওয়ানপ্লাস ৮ প্রো ফোনের পিছনে আছে কোয়াড রিয়ার ক্যামেরা। যার প্রধান ক্যামেরা ৪৮ মেগাপিক্সেল সনি আইএমএক্স ৬৮৯ সেন্সর। যার অ্যাপারচার এফ / ১.৭৮ এবং ১.১২ মাইক্রন পিক্সেল সাইজ। এই সেন্সর অপটিকাল ইমেজ স্টেবিলাইজেশ (OIS) এবং ইলেকট্রনিক ইমেজ স্টেবিলাইজেশন (EIS) উভয় সাপোর্ট করে। এছাড়াও দ্বিতীয় ক্যামেরা হিসাবে অ্যাপারচার এফ / ২.২ এবং ১১৯.৭ ডিগ্রী ফিল্ড অফ ভিউ সহ ৪৮ মেগাপিক্সেল আলট্রা ওয়াইড এঙ্গেল লেন্স আছে। আবার ৮ মেগাপিক্সেল টেলিফোটো লেন্স দেওয়া হয়েছে, যার অ্যাপারচার এফ/২.৪। এছাড়াও চতুর্থ ক্যামেরা ৫ মেগাপিক্সেল কালার ফিল্টার সেন্সর, যার অ্যাপারচার এফ/২.৪। ক্যামেরা সেটআপে পিডিএএফ, লেজার অটো-ফোকাস, সিএএফ, ৩ এক্স অপটিকাল জুম এবং ডুয়েল-এলইডি ফ্ল্যাশ সাপোর্ট করবে। আবার ফোনের সামনে এফ/২.৪৫ অ্যাপারচার, EIS সহ ১৬ মেগাপিক্সেল সনি আইএমএক্স ৪৭১ সেন্সর আছে।