ভারতে 5G ইনোভেশন ল্যাব তৈরী করছে চীনা স্মার্টফোন কোম্পানি Oppo

oppo-builds-5g-innovation-lab-in-india-hydrabrad

এবার ভারতের হায়দ্রাবাদে তৈরী হতে চলেছে চীনা স্মার্টফোন কোম্পানী Oppo-র 5G Innovation Lab। আজ্ঞে হ্যাঁ, খুব তাড়াতাড়ি এদেশের মাটিতে ৫জি প্রযুক্তি বিষয়ক গবেষণা শুরু করতে পারে Oppo। এতে ভারতে ৫জি-র আগমন ত্বরান্বিত হবে বলেই মনে করা হচ্ছে। নিজেদের ৫জি সংক্রান্ত কাজকর্মকে আরো এগিয়ে নিয়ে যেতে এই প্রথমবার তারা বিদেশের বাজারে বিনিয়োগ করছে। অপ্পোর এই সিদ্ধান্তে তারা নিজেরা যেমন লাভবান হবে, তেমনই ভারতের জন্যেও যে এই উদ্যোগ অত্যন্ত ইতিবাচক তা আলাদা করে বলার অপেক্ষা রাখেনা।

আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে ভারত ও চীনের সম্পর্ক যখন তলানিতে, তখন চীনা ব্যান্ডটির ভারতে আগমন সত্যিই বেশ তাৎপর্যপূর্ণ। কেননা আজ দুই দেশের পারস্পরিক উত্তেজনাকে কেন্দ্র করে চীনা সংসর্গের কারণে একাধিক টেকনিক্যাল ফার্ম ভারতে নিষেধাজ্ঞার সম্মুখীন হচ্ছে। আবার ঠিক এই সময়েই চীনের একটি জনপ্রিয় স্মার্টফোন প্রস্তুতকারক সংস্থা ভারতে বিনিয়োগ করতে চাইছে। এক্ষেত্রে বিনিয়োগের অঙ্ক যথেষ্ট বড় যার সবটাই ভারতে ৫জি সংক্রান্ত গবেষণা এবং প্রযুক্তিগত উন্নয়নে ব্যয় করা হবে। সুতরাং সমসাময়িক পরিস্থিতির কথা মাথায় রাখলে অপ্পোর গতিবিধি প্রকৃতই বিস্ময়ের সৃষ্টি করে।

ভারতে নিজেদের ৫জি ইনোভেশন ল্যাবের ব্যাপারে বলতে গিয়ে অপ্পো ইন্ডিয়ার ভাইস প্রেসিডেন্ট এবং রিসার্চ ও ডেভলপমেন্ট হেড তাসলিম আরিফের বক্তব্য – বিদেশে এটিই অপ্পোর প্রথম ৫জি ল্যাব, যেখানে সংস্থাটি ৫জি পরিষেবার উপযোগী প্রধান প্রযুক্তিগুলিকে উন্নত করে তোলার কাজ চালিয়ে যেতে চায়। ভারতকে ৫জি যুগের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে সবরকম সাহায্য করতেও বদ্ধপরিকর বলে দাবি সংস্থাটির।

অবগতির জন্য জানিয়ে রাখি, Oppo-র প্রথম ৫জি ইনোভেশন ল্যাবটি রয়েছে চীনে। এক্ষেত্রে হায়দ্রাবাদে প্রস্তুত হতে চলেছে তাদের দ্বিতীয় ৫জি ইনোভেশন ল্যাব। এখানে ৫জি সংযোগের জন্য দরকারী প্রযুক্তির বিকাশসাধনের পাশাপাশি স্মার্টফোনের ক্যামেরা, পাওয়ার, ব্যাটারি এবং পারফর্মেন্স নিয়ে গবেষণা চলবে। অন্যদিকে, ভারতে অবস্থিত হওয়ায় এটি ভারতীয় ক্রেতাদের আরো উন্নত প্রোডাক্ট ও পরিষেবার আনন্দ এনে দেবে‌। তবে এতে আন্তর্জাতিক ক্রেতারাও অনেকটাই উপকৃত হবেন।