লকডাউনে ৮০-৯০ দশকের সিনেমা দেখতে ব্যস্ত ঘরবন্দি মানুষ, কোন সিনেমা বেশি দেখা হচ্ছে জানেন?

তৃতীয় পর্যায়ে লকডাউন বাড়িয়ে ১৭ মে পর্যন্ত করেছে কেন্দ্র সরকার। লকডাউনের কারণে মানুষ এখন ঘরবন্দি। আর তাই সময় কাটাতে মোবাইল ও ইন্টারনেটের ব্যাপক ব্যবহার করছে সবাই। আমরা সাধারণভাবে মনে করি নতুন নতুন সিনেমা ও ভিডিওর প্রতি আগ্রহ বেশি তরুণ প্রজন্মের । তবে এই লকডাউন সব ভুল প্রমান করেছে। একটি সমীক্ষায় উঠে এসেছে লোকেরা লকডাউনে পুরানো দিনের বিনোদনমূলক কনটেন্ট কে অগ্রাধিকার দিচ্ছে।

এই ট্রেন্ডটি Airtel Xstrem অ্যাপে দেখা গেছে। এয়ারটেলের এক বিবৃতি অনুসারে, অ্যাপটিতে মার্চ মাসের মাঝামাঝি সময়ে ভিডিও স্ট্রিমিংয়ে ৫০ শতাংশ বৃদ্ধি লক্ষ্য করা গেছে। তবে অবাক করার মতো বিষয় হল এই বৃদ্ধি নতুন সিনেমা বা টিভির শো এর জন্য হয়নি। লকডাউনে ৮০ বা ৯০ দশকের জনপ্রিয় টিভি শো যেমন মালগুডি ডেজ, দেখ ভাই দেখা, জবান সম্ভল চুটিয়ে দেখতে শুরু করেছে মানুষ। এয়ারটেল জানিয়েছে এই শো গুলিতে ট্র্যাফিক ৩০০ শতাংশ পর্যন্ত বেড়েছে।

এছাড়াও লোকেরা বলিউডের ক্লাসিক সিনেমাগুলি ও ব্যাপক পরিমাণে দেখতে শুরু করেছে। মাদার ইন্ডিয়া, ডন, আন্দাজ আপনা আপনা এবং রাজা বাবুর মতো সিনেমাগুলি দেখতে অ্যাপে ভিড় জমাচ্ছে মানুষ। বিশেষ করে উত্তরপ্রদেশ, বিহার, রাজস্থান এবং মধ্য প্রদেশের মতো রাজ্যগুলি বেশি বেশি পুরানো দিনের টিভি শো ও সিনেমা দেখতে শুরু করেছে।

আপনাকে জানিয়ে দিই যে এয়ারটেল এক্স-স্ট্রিম অ্যাপে ১০,০০০ টিরও বেশি শো এবং ৪০০ টিরও বেশি টিভি চ্যানেল দেখার সুবিধা রয়েছে। অ্যাপটিতে ভিডিও স্ট্রিমিংয়ের গড় সময় ৪০ শতাংশ বেড়েছে এই লকডাউনে । যদিও কেবল Airtel Xstrem নয়, Netflix, Amazon Prime Video তেও সিনেমা, ওয়েব সিরিজ দেখতে ব্যস্ত মানুষ।